ছেলেধরা সন্দেহে সেনাবাহিনীর জওয়ানকেই আটকে রাখল গ্রামবাসীরা !

ছেলেধরা সন্দেহে সেনাবাহিনীর জওয়ানকেই আটকে রাখল গ্রামবাসীরা !
representative image

বুধবার রাতে রাস্তা ভুল করে সগড়ভাঙা গ্রামের ভৈরবতলায় কোনওভাবে চলে আসেন সেনাবাহিনীর এই জওয়ান

  • Share this:

#দুর্গাপুর:  ফের ছেলেধরা সন্দেহে একজনকে আটকে রাখল স্থানীয় বাসিন্দারা। পরে আটক ব্যাক্তির পরিচয়পত্র দেখে জানা যায় সে সেনাবাহিনীর জওয়ান, রাজস্থানের বাসিন্দা ।

বুধবার রাতে রাস্তা ভুল করে সগড়ভাঙা গ্রামের ভৈরবতলায় কোনওভাবে চলে আসেন সেনাবাহিনীর এই জওয়ান। ছেলেধরা আতঙ্কে এলাকার মানুষজন রাতে পাহারার কাজ করছিল। সন্দেহভাজন একজনকে ঘোরাঘুরি করতে দেখে রাত পাহারার কাজে থাকা কিছু লোকজন ওই ব্যাক্তিকে ধরে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করে। খবর পৌঁছোয় এলাকার বাসিন্দারা কাছে। সকলে এসে ভিড় জমান। সগড়ভাঙা গ্রামের ভৈরবতলা এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে । সেনাবাহিনীর জওয়ান স্থানীয় গ্রামবাসীদের হাতে আটকে আছে, এই খবর পাওয়া মাত্রই ঘটনাস্থলে আসে পুলিশ। কিন্তু উত্তেজিত জনতার হাত থেকে সেনাবাহিনীর ওই জওয়ানকে উদ্ধার করতে এসে নিরাপত্তার দাবিতে পুলিশ কর্মীরাই স্থানীয় বাসিন্দাদের বিক্ষোভের মুখে পড়ে।

বাসিন্দাদের অভিযোগ ছেলেধরার গুজবে অনেক নিরীহ মানুষ হিংসার শিকার হচ্ছে, কিন্তু পরিস্থিতি এমন জায়গায় পৌঁছেছে যে বাধ্য হয়ে রাতে পাহারার কাজে তাদের নামতে হয়েছে, তাই পুলিশ যদি একটু এলাকায় টহলদারি বাড়ায় তাহলে মানুষের আতঙ্ক অনেকটাই চলে যায়। উত্তেজিত জনতাকে শান্ত করে সেনা জওয়ানকে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ।

First published: 01:51:38 PM Sep 26, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर