ইছামতীর জলের প্লাবিত গ্রাম, স্লুইস গেট ভাঙার অভিযোগ ইটভাটার মালিকদের বিরুদ্ধে

উত্তর চব্বিশ পরগনার বসিরহাটের নলকোরা। গ্রামের ভিতর দিয়ে কিছু দূর এগোনোর পর ইছামতীতে মিশেছে চঙ্গর খাল। সেখানেই ছিল একটি স্লুইস গেট। জোয়ারের সময় গেট ফেলে আটকানো হত জল। অভিযোগ, সম্প্রতি সেটি ভেঙে দেওয়া হয়।

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Aug 18, 2019 09:18 AM IST
ইছামতীর জলের প্লাবিত গ্রাম, স্লুইস গেট ভাঙার অভিযোগ ইটভাটার মালিকদের বিরুদ্ধে
Representative Image
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Aug 18, 2019 09:18 AM IST

#উত্তর চব্বিশ পরগনা: স্লুইস গেট ভেঙে লোকালয়ে ঢুকে পড়ছে নদীর জল। জমা জলে নষ্ট হচ্ছে খেতের ফসল। উত্তর চব্বিশ পরগনার বসিরহাটের নলকোরার ঘটনা। স্থানীয়দের অভিযোগ, এলাকার ইটভাটার মালিকরাই ভেঙে দিয়েছেন খালের স্লুইস গেট। বিনা বাধায় নদীর পলি তুলতেই এই ব্যবস্থা। তাতেই প্লাবিত হচ্ছে একের পর এক গ্রাম।

উত্তর চব্বিশ পরগনার বসিরহাটের নলকোরা। গ্রামের ভিতর দিয়ে কিছু দূর এগোনোর পর ইছামতীতে মিশেছে চঙ্গর খাল। সেখানেই ছিল একটি স্লুইস গেট। জোয়ারের সময় গেট ফেলে আটকানো হত জল। অভিযোগ, সম্প্রতি সেটি ভেঙে দেওয়া হয়। এরজন্য স্থানীয় ইটভাটাগুলির মালিকদেরই দায়ী করেছেন গ্রামবাসীরা। ইছামতী থেকে পলি তুলতেই এই ব্যবস্থা বলে অভিযোগ গ্রামবাসীর। এদিকে, স্লুইস গেট ভাঙার পর থেকেই গ্রামে ঢুকছে নদীর জল। জলের তলায় পচছে ধান,পাট, সবজি।

সমস্যা মেটাতে প্রশাসনের দ্বারস্থ হয়েছেন স্থানীয় পঞ্চায়েত সদস্য। শুধু চাষের ক্ষতি নয়। জমা জলে দুর্ঘটনার আশঙ্কায় বাচ্চাদের স্কুলে পাঠাতে ভয় পাচ্ছেন অভিভাবকরা। দিন কাটছে গৃহবন্দি হয়ে।

First published: 09:14:53 AM Aug 18, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर