দক্ষিণবঙ্গ

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

মহিষাদলে পুলিশ খুনের আসামী কর্ণ বেরার যাবজ্জীবন সাজা

মহিষাদলে পুলিশ খুনের আসামী কর্ণ বেরার যাবজ্জীবন সাজা
  • Share this:

#হলদিয়া: মহিষাদলে পুলিশ খুনে কর্ণ বেরার যাবজ্জীবন সাজা। কর্ণের সঙ্গী শেখ রহিমের দশ বছরের জেল। শনিবারই দুজনকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। আজ সাজা শোনাল হলদিয়া মহকুমা আদালত।

কর্ণ বেরা। কুখ্যাত দুষ্কৃতী। একের পর এক চুরি, ডাকাতি, পুলিশ খুন থেকে আদালত চত্বরে বোমা মেরে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা...নানা অভিযোগ কর্ণর বিরুদ্ধে। কনস্টেবল নবকুমার হাইতকে খুনের মামলায় সোমবার কর্ণকে ভারতীয় দণ্ডবিধির ৩০২ নম্বর ধারায় যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা শোনাল হলদিয়া মহকুমা আদালত। দশ বছরের জেল হল কর্ণের সঙ্গী শেখ রহিমের।

ঘটনা ২০১৬ সালের সাত জানুয়ারির। রাত দশটা নাগাদ মহিষাদলের একচল্লিশ নম্বর জাতীয় সড়কের কাপাসেড়িয়ায় কনস্টেবল নবকুমার হাইতকে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি চালিয়ে পালায় কর্ণ বেরা। ঘটনাস্থলেই মারা যান নবকুমার। এই খুনের মামলাতেই কর্ণকে যাবজ্জীবন সাজা ঘোষণা করে আদালত।

সোমবার সকালে কর্ণকে হলদিয়া মহকুমা আদালতের অতিরিক্ত জেলা দায়রা বিচারক আশিসকুমার দাসের এজলাসে পেশ করা হয়। সরকারি ও অভিযুক্তপক্ষের আইনজীবীদের সওয়াল-জবাবের পর সাজা শোনানো হয়। ভারতীয় দন্ডবিধির ১৮৬/৩৪, ৩৫৩, ৩৩৩ এবং অস্ত্র আইনের ২৫ ও ২৭ ধারায় তাকে আলাদা আলাদাভাবে সাজা শোনানো হয়। এই রায়ে খুশি নন নিহত কনস্টেবেলের স্ত্রী সুচিত্রা হাইত। শুনানি চলাকালীন আদালত চত্বরে ছিল কড়া পুলিশি নজরদারি। সাজা ঘোষণার পর পুলিশের নজর এড়িয়ে কোনও ভাবেই যাতে কর্ণ পালাতে না পারে, তার পর্যাপ্ত ব্যবস্থাও ছিল।

আরও পড়ুন-পেটের টানে মাছ ধরতে সংরক্ষিত জঙ্গলে, বাঘের হামলায় মৃত্যু ৪ ম‍ৎস্যজীবীর

First published: December 3, 2018, 8:17 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर