• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • UNIQUE CAMPAIGN OF TMC ON CHRISTMAS EVE TMC WORKER DOING NOBLE WORK WEARING ABHISHEK BANERJEES MASK ED

নিজে উপস্থিত না থেকেও বর্ধমানের রাস্তায় দরিদ্রদের হাতে কম্বল তুলে দিলেন অভিষেক!

শুক্রবার বড়দিনের রাতে স্যান্টাক্লজ সেজে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখোশ লাগিয়ে সেই কাজ করতে দেখা গেল তৃণমূলের যুব নেতাকর্মীদের।

শুক্রবার বড়দিনের রাতে স্যান্টাক্লজ সেজে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখোশ লাগিয়ে সেই কাজ করতে দেখা গেল তৃণমূলের যুব নেতাকর্মীদের।

  • Share this:

#বর্ধমান: ভবঘুরে ও দরিদ্রদের হাতে খাবার ও কম্বল তুলে দিচ্ছেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় যুব সভাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়! হঠাৎ দেখলে মনে হবে তেমনটাই। তবে সময় নিয়ে ভালোভাবে দেখলে ভুল ভাঙবে তখনই। আসলে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখোশ পরে সেই কাজ করছেন তৃণমূল যুব কংগ্রেসের নেতাকর্মীরা। শুক্রবার বড়দিনের রাতে স্যান্টাক্লজ সেজে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখোশ লাগিয়ে সেই কাজ করতে দেখা গেল তৃণমূলের যুব নেতাকর্মীদের।

রাস্তায় রাস্তায় ঘুরে দরিদ্র রিকশা চালক থেকে শুরু করে ভবঘুরে সবার হাতেই তুলে দিলেন কেক, গায়ে জড়িয়ে দিলেন কম্বল।কিন্তু সেই কাজ করতে গিয়ে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখ ব্যবহার কেন? যুব তৃণমূল কর্মীরা বলছেন, রাজ্যের যুব সমাজের আইকন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। আমরা তাঁর সৈনিক। তাই তার মুখ সামনে রেখেই এই কাজ করছি আমরা। যদিও বিরোধীরা বলছেন, এসব নির্বাচনের আগে রাজনৈতিক সস্তা চমক ছাড়া আর কিছুই নয়। স্বাভাবিকভাবেই এই কর্মসূচিকে ঘিরে বর্ধমানে রাজনৈতিক চাপান উতোর শুরু হয়েছে।

জেলা বিজেপি নেতৃত্বের বক্তব্য, এই মুহূর্তে রাজ্য রাজনীতিতে নিজের দলে কোণঠাসা অবস্থায় রয়েছেন মুখ্যমন্ত্রীর ভাইপো অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করে দল ছাড়া নেতাদের তালিকা ক্রমশই বাড়ছে। ইতিমধ্যেই তার বিরুদ্ধে তোপ দেগেছেন সদ্য বিজেপিতে যোগ দেওয়া শুভেন্দু অধিকারী। তাতেই ভয় পেয়ে গিয়েছেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। ভাবমূর্তি ফেরাতে তিনি কর্মীদের নিজের মুখে ব্যবহার করার নির্দেশ দিয়েছেন। আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনে অভিষেকের মুখোশ কোনও কাজে দেবে না। উল্টে তার মুখ যত ব্যবহার করা হবে ততই তৃণমূল কংগ্রেসের মুখ পুড়বে।

পূর্ব বর্ধমান জেলা যুব তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি রাসবিহারী হালদার বলেন, বিগত বছরগুলোতেও আমরা এই কর্মসূচি নিয়েছিলাম। আমাদের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে দুঃস্থ দরিদ্রদের পাশে দাঁড়াচ্ছে বিভিন্ন ক্লাবগুলিও। আর এইসব দেখেই ভীত হয়ে পড়ছে বিজেপি। সেকারণেই তারা এই সাধু উদ্যোগেরও বিরোধিতা করতে তৎপর। ওরা যত আমাদের নামে কুৎসা করবে ততোই তারা জনবিচ্ছিন্ন হয়ে পড়বে।

Saradindu Ghosh

Published by:Elina Datta
First published: