Home /News /south-bengal /

কমিউনিটি হলের চাপে ফাটল ভূর্গভস্থ জলের পাইপলাইন, বন্ধ শহরের বিস্তীর্ণ এলাকার পানীয় জল পরিষেবা

কমিউনিটি হলের চাপে ফাটল ভূর্গভস্থ জলের পাইপলাইন, বন্ধ শহরের বিস্তীর্ণ এলাকার পানীয় জল পরিষেবা

এইচআইটি কমিউনিটি বিল্ডিঙের চাপে ফেটল পরিশুদ্ধ পানীয় জল সরবরাহের মূল পাইপ । যার জেরে একদিকে উত্তর হাওড়ার বিস্তীর্ণ এলাকা পানীয় জলে সরবরাহ বন্ধ ।

  • Share this:

#হাওড়া: এইচআইটি কমিউনিটি বিল্ডিঙের চাপে ফেটল পরিশুদ্ধ পানীয় জল সরবরাহের মূল পাইপ । যার জেরে একদিকে উত্তর হাওড়ার বিস্তীর্ণ এলাকা পানীয় জলে সরবরাহ বন্ধ । অন্যদিকে ঘটনারস্থলের পার্শবর্তী এলাকা জলমগ্ন হয়ে পড়ে । হাওড়া উন্নয়ন সংস্থার তৈরী এই কমিউনিটি হলটি ভূগর্ভস্থ পানীয় জলের পাইপ লাইনের ওপরেই তৈরি করা হয়েছিল বলে দাবি পুরসভার । আমফান ঝড়ের ফলে এলাকায় বেশ কিছু বড় বড় গাছে উপরে যায় , ফলে এলাকায় মাটি অনেকটাই হালকা হয়ে গিয়েছে এবং কয়েকদিনের টানা বৃষ্টিতে হলটির একটি অনেকটাই বসে যায় এবং সেই চাপেই ফেটে যাই জলের পাইপ ।

পুরসভার দাবি , সালকিয়া আন্ডারগ্রাউন্ড রিজার্ভার থেকে উত্তর হাওড়ার বিভিন্ন ওয়ার্ডে পরিশুদ্ধ পানীয় জল সরবরাহ হয় । রিজার্ভার থেকে মূল দুটি পাইপ দিয়েই সরবরাহ হয় এই জল । সেই পাইপের একটি ফেটে যায় । ৭৫০ এমএম-এর এই পাইপের কাজ প্রায় ২০ বছরেরও বেশি সময় আগে করেছিল কেএমডিএ । এরপর হাওড়া কর্পোরেশনের ৩ নম্বর ওয়ার্ডের নস্কর পাড়া রোডে এইচআইটি একটি পার্ক গড়ে তোলে । পার্কের মধ্যেই বছর আড়াই আগেই এইচআইটি তৈরি করে দোতলা কমিউনিটি হল । আর সেই বিল্ডিংয়ের একটি দিক সেই জলের পাইপ লাইনের ওপরেই গাঁথা হয় । পাইপ ফেটে যাওয়ায় নস্কর পাড়া রোডের বিস্তীর্ণ এলাকা এদিন জলমগ্ন হয়ে পড়ে ।

হাওড়া করপোরেশনের তরফে দশটি পাম্প চালিয়ে জল বার করার চেষ্টা চালানো হয় । পরিস্থিতি সামলাতে নিকাশের জন্য প্রায় এক মানুষ সমান মাটি খুড়ে  দেওয়া হয় ।  পার্কের দেওয়াল ফুটো করে দেওয়া হয় । সেই জল বেরিয়ে গিয়ে ভাসায় এলাকা ।  বিপত্তির খবর পেয়ে হাওড়া কর্পোরেশনের কমিশনার, জল সরবরাহ বিভাগের ইঞ্জিনিয়াররা ছুটে যান ঘটনাস্থলে । পরবর্তীতে সেখানে কেএমসি থেকেও প্রতিনিধি পাঠানো হয় বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য । কর্পোরেশন সূত্রে বলা হয়, সমস্ত বিষয়টি খতিয়ে দেখার পর কীভাবে প্রতিকার সম্ভব , সে বিষয়টি ভাবা হবে।

এই ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে দূর্ভোগে পড়েছেন সেখানকার মানুষরা একদিকে জলবন্দি পাশাপাশি এই পাইপলাইন থেকে উত্তর হাওড়ার ১ থেকে ৭ এবং ১০ ও ১১ নম্বর ওয়ার্ডের জল সরবরাহ প্রায় বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে । এইচআইটি চেয়ারম্যান সুলতান সিং ঘটনার কথা স্বীকার করে বলেন , "বিল্ডিংটি বাম আমলে তৈরী হয়েছিল । আমরা শুধু দুটি ফ্লোর বাড়িয়েছি । দেখতে হবে কিভাবে সমস্যা থেকে বেরোনো যায় ।  ইঞ্জিনিয়াররা কাজ করছেন । খুব দ্রুত পরিস্থিতি স্বাভাবিক হবে ।

Debasish Chakraborty

Published by:Shubhagata Dey
First published:

Tags: Howrah, Underground pipeline heavily damaged

পরবর্তী খবর