ইদের ফল কিনতে গিয়ে আর ফেরা হল না, ৬ মাসের সন্তানকে জড়িয়ে হাহাকার মৃত জওয়ানের স্ত্রীর

ইদের ফল কিনতে গিয়ে আর ফেরা হল না, ৬ মাসের সন্তানকে জড়িয়ে হাহাকার মৃত জওয়ানের স্ত্রীর

বুধবার বাজারে ইফতারের জন্য ফল কিনতে যাওয়ার সময় জঙ্গিরা গুলি করে তাঁদের। গুলিতে ঘটনাস্থলেই মারা যান বিএসএফ জওয়ান জিয়াউল হক ও পরে হাসপাতালে মারা যান রানা মন্ডল।

বুধবার বাজারে ইফতারের জন্য ফল কিনতে যাওয়ার সময় জঙ্গিরা গুলি করে তাঁদের। গুলিতে ঘটনাস্থলেই মারা যান বিএসএফ জওয়ান জিয়াউল হক ও পরে হাসপাতালে মারা যান রানা মন্ডল।

  • Share this:

    Pranab Kumar Banerjee

    #রেজিনগর ও জলঙ্গি: দুই বিএসএফ জওয়ানের দেহ বাড়িতে বফিরল কফিনবন্দি হয়ে। গত বুধবার কাশ্মীরের চানা গড়ে জঙ্গী হামলায় নিহত হন দুই বিএসএফ জওয়ান। একজনের বাড়ি রেজিনগরের ও অন্যজনের বাড়ি জলঙ্গিতে। রেজিনগরের জিয়াউল হক ও জলঙ্গির রানা মন্ডলের দেহ গ্রামে ফিরে আসতেই গোটা গ্রাম তাঁদের শেষ শ্রদ্ধা জানাতে হাজির হয়। রাষ্ট্রীয় মর্যাদায় গান স্যালুট দিয়ে শেষকৃত্য সম্পন্ন হয় দুই শহীদ  জওয়ানের।

    বুধবার বাজারে ইফতারের জন্য ফল কিনতে যাওয়ার সময় জঙ্গিরা গুলি করে তাঁদের। গুলিতে ঘটনাস্থলেই মারা যান বিএসএফ জওয়ান জিয়াউল হক ও পরে হাসপাতালে মারা যান রানা মন্ডল। ঠিক ইদের আগে এই ঘটনায় পরিবারের পাশাপাশি গোটা এলাকাতেও শোকের ছায়া নেমে আসে। শহীদ জওয়ান রানা মন্ডল এর স্ত্রী জেসমিনা বিবি বলেন, ‘‘বাড়ি আসবে বলেছিল। এল, কিন্তু কফিনবন্দি হয়ে। ছয় মাসের সন্তানকে আমি কিভাবে মানুষ করব। বড় হলে সে তার বাবাকে দেখতে পাবে না।’’

    একই অবস্থা রেজিনগরের জিয়াউল হকের পরিবারের। ভাই ওমর হোসেন বলেন, ইদের আগে জঙ্গিরা এভাবে মেরে ফেলল, আল্লাহ যেন তাদের শাস্তি দেয়। পরিবারের একমাত্র রোজগেরে ছিল আমার ওই দাদাই। আমাদের পরিবার পুরোপুরি শেষ হয়ে গেল। মৃতের পরিবারের পাশে দাঁড়িয়েছেন প্রতিবেশী জেলা পরিষদের সদস্য রাফিকা সুলতানা। বলেন, ‘‘শোকের ছায়া নেমেছে ইদের আগে। পরিবারকে সান্ত্বনা দেওয়ার ভাষা নেই। আমরা আছি পরিবারের পাশে।’’

    Published by:Simli Raha
    First published: