দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

পুজোর অনুষ্ঠানে স্বল্পবসনাদের অশ্লীল ও চটুল নাচের আসর, গ্রেফতার বনগাঁর ব্যবসায়ী

পুজোর অনুষ্ঠানে স্বল্পবসনাদের অশ্লীল ও চটুল নাচের আসর, গ্রেফতার বনগাঁর ব্যবসায়ী

রাত সাড়ে বারোটা নাগাদ বনগাঁ থানার পুলিশ যায় বনগাঁ মাঝেরপাড়া সহযাত্রী স্পোর্টিং ক্লাবের পুজো প্রাঙ্গণে। অশ্লীল নাচের আসর বসাবার অভিযোগে আটক করে দু’জনকে।

  • Share this:

RAJARSHI ROY

#বনগাঁ: এ বার পূজায় সব ধরনের অনুষ্ঠান ও জমায়েত নিষিদ্ধ করছে প্রশাসন। দূর্গা পূজায় প্রায় সব বারোয়ারী মন্ডপে হয়েছে মঞ্চ। মূলত মাইকে ঘোষণার জন্যই সেই আয়োজন করা হয়েছে। অভিযোগ, এমনই মঞ্চে বনগাঁয় অশ্লীল ও চুটুল নাচের আসর বসায় মাঝের পাড়া সহযাত্রী স্পোর্টিং ক্লাব। স্থানীয় বাসিন্দা সন্দীপ এ দিন অভিযোগ করেন, গতকাল খোলা মেলা পোশাক পরা মেয়েদের নিয়ে পূজার মঞ্চে নাচের আসর বসায় বিশু নামের এক ব্যক্তি। তাঁর আরও অভিযোগ, এই পূজোটি তাঁদের পাড়ার পূজা নয়।গত কয়েক মাস আগে বনগাঁর গাড়ির ব্যবসাদার বিশু জমিটি কেনে। তারপর এ বার সেখানে দূর্গা পূজার আয়োজন করে সে। নাম দেয় ‘মাঝের পাড়া সহযাত্রী স্পোর্টিং ক্লাব’। নতুন এই ক্লাবের পুজোয় অষ্টমীর সন্ধ্যায় হঠাৎই  অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বিশু। মধ্যরাত পর্যন্ত সেই ফাংশান চলে । সেখানে অশ্লীল নাচের আসর বসে। রাত বাড়তেই পূজা মন্ডপের প্রেক্ষাপট পাল্টে যায়। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের নামে শুরু হয় অনুষ্ঠান। পাড়ার কচিকাঁচাদের গান আবৃত্তির বদলে শুরু হয়, ভাড়া করে নিয়ে আসা নর্তকীদের চুটুল নাচ। ভাড়ায় আনা নাচিয়েদের নিয়ে শুরু হয়ে যায় জমজমাট আসর।

নাচের অঙ্গভঙ্গি, ছেলে ছোকরার মৌজ করা, পাল্টে যায় পরিবেশ।অভিযোগ, পূজোর আয়োজক বিশু, তার গাড়ির ড্রাইভারদের নিয়ে শুরু করে মস্তি ড্যান্স। যা দেখে পাড়ার বাসিন্দাদের জানলা দরজা বন্ধ করতে হয়। সন্দীপ দেবনাথের প্রশ্ন, বনগাঁ শহরের জনবহুল এমন এলাকায় অশ্লীল ও চুটুল নাচের আসর বসাবার সাহস পেল কী করে ওরা। রাত সাড়ে বারোটা নাগাদ বনগাঁ থানার পুলিশ যায় বনগাঁ মাঝেরপাড়া সহযাত্রী স্পোর্টিং ক্লাবের পুজো প্রাঙ্গণে। অশ্লীল নাচের আসর বসাবার অভিযোগে আটক করে দু’জনকে। নাচের আসর মাতাবার জন্য যে সাউন্ড সিস্টেম নিয়ে আসা হয়েছিল, তাও বাজেয়াপ্ত করে পুলিশ। নবমীর সকালেও মঞ্চে মদের বোতল ও গ্লাস দেখতে পায় স্থানীয়রা। বনগাঁ পুরসভার ১৬ নং ওয়ার্ডের মধ্যে পড়ে এই পুজোটি। এই ওয়ার্ডের প্রাক্তন কাউন্সিলর অভিজিৎ কাপুরিয়ার দাবী, এমন অশ্লীল কাণ্ডকে তিনি কোনও ভাবেই সমর্থন করেন না। তাই পুলিশ যে ব্যবস্থা মধ্যরাতে নিয়েছে, সেটা শুরুতেই নিলে এমন খারাপ কাজটা বনগাঁর মত জায়গায় হত না।

Published by: Simli Raha
First published: October 25, 2020, 7:02 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर