• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • ট্রেন চলাচল শুরু হবে বর্ধমান আসানসোল ও রামপুরহাট শাখায়, আগামিকাল থেকে

ট্রেন চলাচল শুরু হবে বর্ধমান আসানসোল ও রামপুরহাট শাখায়, আগামিকাল থেকে

বর্ধমান হাওড়া শাখায় ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ার পরে আসানসোল-দুর্গাপুরের যাত্রীরাও ট্রেন চলাচল শুরু করার জন্য দাবি জানিয়ে আসছিলেন।

বর্ধমান হাওড়া শাখায় ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ার পরে আসানসোল-দুর্গাপুরের যাত্রীরাও ট্রেন চলাচল শুরু করার জন্য দাবি জানিয়ে আসছিলেন।

বর্ধমান হাওড়া শাখায় ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ার পরে আসানসোল-দুর্গাপুরের যাত্রীরাও ট্রেন চলাচল শুরু করার জন্য দাবি জানিয়ে আসছিলেন।

  • Share this:

#বর্ধমান: আগামিকাল, বুধবার থেকে বর্ধমান আসানসোল শাখায় লোকাল ট্রেন চলাচল শুরু হচ্ছে। সেই সঙ্গে বর্ধমান রামপুরহাট শাখাতেও লোকাল ট্রেন চলাচল আগামিকাল থেকেই শুরু হয়ে যাবে। পূর্ব রেল সূত্রে এই খবর জানা গিয়েছে। এর ফলে এই দুই শাখার বহু যাত্রী খুবই উপকৃত হবেন। বর্ধমান হাওড়া কর্ড ও মেন শাখায় আগেই লোকাল ট্রেন চলাচল শুরু হয়েছিল। কিন্তু নন সাবাবার্ন শাখায় এতোদিন ট্রেন চলাচল শুরু না হওয়ায় যাতায়াতের ক্ষেত্রে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছিল যাত্রীদের। ট্রেন চলাচল শুরু হলে বহু নিত্যযাত্রী ও ছোট ব্যবসায়ী উপকৃত হবেন।

পূর্ব রেল সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবার থেকে বর্ধমান ও আসানসোলের মধ্যে চার জোড়া ট্রেন যাতায়াত করবে। বর্ধমান রামপুরহাট শাখাতেও চার জোড়া লোকাল ট্রেন চলবে। সেইসঙ্গে কাটোয়া আজিমগঞ্জ শাখাতেও লোকাল ট্রেন পরিষেবা বুধবার থেকে শুরু হচ্ছে। কাটোয়া আজিমগঞ্জের মধ্যে চার জোড়া ট্রেন চালানো হবে। ইতিমধ্যেই এই শাখার স্টেশনগুলিকে নতুন করে ব্যবহারের উপযোগী করে তোলা হয়েছে। ধোয়া মোছার পর প্রতিটি প্ল্যাটফর্ম,টিকিট কাউন্টার স্যানিটাইজ করা হয়েছে।প্লাটফর্মে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে গোল দাগ কাটা হয়েছে। এবার শুধু রাত পোহালেই ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ার অপেক্ষা।

রেল সূত্রে জানা গিয়েছে, কোভিড প্রোটোকল মেনেই ট্রেন চলাচল শুরু করা হচ্ছে। প্রতিটি স্টেশনে ঢোকার মুখে যাত্রীদের থার্মাল স্ক্রীনিং করা হবে। স্টেশনগুলোতে থাকছে আইসোলেশন রুম। রাখা থাকবে অ্যাম্বুলান্স। কারও দেহে করোনার উপসর্গ মিললে তাকে অ্যাম্বুলেন্সে চাপিয়ে চিকিৎসার জন্য পাঠানো হবে। প্রত্যেক যাত্রীকে মাস্কে মুখ ঢাকা বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। সেইসঙ্গে সামাজিক দূরত্ব যাতে বজায় থাকে তা নিশ্চিত করতে আরপিএফেরর নজরদারি বাড়ানো হবে। স্টেশনের বাইরে ভিড় এড়াতে স্থানীয় থানার পুলিশের সাহায্য নেওয়া হচ্ছে।

বর্ধমান হাওড়া শাখায় ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ার পরে আসানসোল-দুর্গাপুরের যাত্রীরাও ট্রেন চলাচল শুরু করার জন্য দাবি জানিয়ে আসছিলেন। একইভাবে ট্রেন চলাচল না হওয়ায় সমস্যার মধ্যে ছিলেন বর্ধমান রামপুরহাট শাখার গুসকরা,বোলপুর সহ বিস্তীর্ণ এলাকার বাসিন্দারা। ট্রেন চলাচল শুরু হযলে সমস্যা অনেকটাই মিটবে বলেই মনে করছেন তাঁরা।

Published by:Pooja Basu
First published: