Home /News /south-bengal /
হেলিকপ্টারে উড়ে এসে গরিবের ঘরে ভাত খেয়ে নাটক করছে বিজেপি, নাড্ডার সমালোচনায় তৃণমূল

হেলিকপ্টারে উড়ে এসে গরিবের ঘরে ভাত খেয়ে নাটক করছে বিজেপি, নাড্ডার সমালোচনায় তৃণমূল

বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা৷ Photo-File

বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা৷ Photo-File

তৃণমূলের অভিযোগ, এখানে পর্যটকদের মত এসে বিজেপি নেতারা বলছেন কেন্দ্রের কৃষক সম্মান নিধি এখানে চালু করা হচ্ছে না।

  • Share this:

#বর্ধমান: হেলিকপ্টারে উড়ে এসে গরীবের ঘরে ভাত খেয়ে নাটক করছে বিজেপি। শনিবার রাতে এই ভাষাতেই বিজেপি সমালোচনা করল তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব। এদিন পূর্ব বর্ধমানে ঠাসা কর্মসূচি ছিল বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার। সেইসব কর্মসূচির শেষে রাতে সাংবাদিক বৈঠক করে তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা নেতৃত্ব। সেখানেই তৃণমূল কংগ্রেসের পূর্ব বর্ধমান জেলার সভাপতি স্বপন দেবনাথ বলেন, হেলিকপ্টারে উড়ে এসে গরীবের ঘরে ভাত খেয়ে নাটক করছে বিজেপির নেতারা। একদিকে দিল্লিতে আন্দোলনরত কৃষকরা মারা যাচ্ছেন। সে ব্যাপারে বিজেপি নেতৃত্বের হুঁশ নেই। আন্দোলনরত কৃষকদের সঙ্গে আলোচনায় বসার সময় পাচ্ছেন না অমিত শাহ, জে পি নাড্ডারা। অথচ এখানে এসে নিজেদের কৃষকের দরদী দেখাতে চাইছেন। তাঁরা পর্যটকের মতো আসছেন শুধুমাত্র নির্বাচনের কথা মাথায় রেখে।

পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের অঙ্গীকার হলে সাংবাদিক বৈঠকে তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি বলেন, ঝাড়খন্ড বাঁকুড়া বীরভূম থেকে বর্ধমানের রোড শো করার জন্য লোক নিয়ে আসা হয়েছিল। তাই বর্ধমানে বিজেপির এই রোড শোয়ের কোনও গুরুত্ব নেই। বরং তারা তৃণমূল কংগ্রেসের হোডিং ব্যানার ছিঁড়ে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির চেষ্টা করে গিয়েছে। রাজ্যজুড়ে অশান্তি সৃষ্টির চেষ্টা চালাচ্ছে তারা। দিল্লিতে কৃষকরা মারা যাচ্ছে আর এখানে কৃষকের ঘরে খেয়ে ভাঁওতা দিচ্ছে তারা।

তিনি বলেন, এখানে পর্যটকদের মত এসে বিজেপি নেতারা বলছেন কেন্দ্রের কৃষক সম্মান নিধি এখানে চালু করা হচ্ছে না। অথচ বাস্তব হল, বারবার চাওয়া সত্ত্বেও রাজ্যকে সেই সংক্রান্ত তথ্য না দিয়ে ভোটের রাজনীতি করছে বিজেপি। তিনি বলেন আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্পে রাজ্যকে চল্লিশ খরচ দিতে হয়। অথচ এই রাজ্য আগেই বাসিন্দাদের জন্য স্বাস্থ্য সাথী প্রকল্প চালু করেছে। এই জেলার 76 হাজার পরিবার তাতে উপকৃত হয়েছে। এর জন্য বাসিন্দাদের কোনও খরচা দিতে হয়না। এতই দরদ থাকলে আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্পের জন্য রাজ্যগুলির কাছ থেকে চল্লিশ শতাংশ টাকা না নিয়ে পুরোটাই দিক কেন্দ্র। তিনি বলেন, বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেলা এসে বলেছেন এ রাজ্যের কৃষকদের সম্মান দেওয়া হচ্ছে না। অথচ এই রাজ্যেই প্রতি বছর প্রতিটি ব্লকের কৃষকদের সম্মান জানিয়ে আসছে বর্তমান রাজ্য সরকার। বাড়ি বাড়ি এক মুঠো করে চাল সংগ্রহ নির্বাচনের মুখে বিজেপির নাটক বলে উল্লেখ করেন তিনি।

Published by:Pooja Basu
First published:

Tags: BJP, JP Nadda, TMC

পরবর্তী খবর