দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

'আমার পথ কী, রাজনৈতিক মঞ্চ থেকে বলব', নন্দীগ্রামের সভায় জল্পনা বাড়ালেন শুভেন্দু

'আমার পথ কী, রাজনৈতিক মঞ্চ থেকে বলব', নন্দীগ্রামের সভায় জল্পনা বাড়ালেন শুভেন্দু
নন্দীগ্রামের সভায় শুভেন্দু অধিকারী৷ Photo-Facebook

এ দিন নন্দীগ্রামে শহিদ স্মরণে দু'টি সভার আয়োজন করা হয়েছিল৷ সকালে শুভেন্দু অধিকারীর ডাকে সভার আয়োজন করে ভূমি উচ্ছেদ প্রতিরোধ কমিটির৷ বিকেলে আবার রাজ্যের আর এক মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের নেতৃত্বে তৃণমূলের সভা করার কথা৷

  • Share this:

#নন্দীগ্রাম: শহিদ স্মরণের মঞ্চ থেকে নিজের রাজনৈতিক ভবিষ্যৎ নিয়ে জল্পনা আরও বাড়িয়ে দিলেন রাজ্যের মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী৷ নন্দীগ্রামে শহিদ সমাবেশের মঞ্চ থেকে তাঁর ঘোষণা, রাজনৈতিক মঞ্চ থেকেই নিজের রাজনৈতিক ভবিষ্যতের কথা ঘোষণা করবেন তিনি৷ কটাক্ষের সুরে তিনি বললেন, 'নন্দীগ্রামের কথা মনে পড়েছে দেখে খুব ভাল লাগছে৷ ভোটের আগে যেমন আসতেন, ভোটের পরেও তো আসতে হবে!'

এ দিন নন্দীগ্রামে শহিদ স্মরণে দু'টি সভার আয়োজন করা হয়েছিল৷ সকালে শুভেন্দু অধিকারীর ডাকে সভার আয়োজন করে ভূমি উচ্ছেদ প্রতিরোধ কমিটির৷ বিকেলে আবার রাজ্যের আর এক মন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমের নেতৃত্বে তৃণমূলের সভা করার কথা৷ এ দিন সকালে নন্দীগ্রামের তেখালিতে শুভেন্দুর সভায় কোথাও তৃণমূলের পতাকা দেখা যায়নি৷ বক্তব্য রাখতে গিয়ে নিজের দল বা মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম নেননি তিনি৷ এর স্বপক্ষে যুক্তিও দিয়েছেন শুভেন্দু৷ তিনি বলেন, গত ১৩ বছর নন্দীগ্রামে এই সভা হচ্ছে৷ এর সঙ্গে রাজনীতির যোগ নেই৷ তিনি কখনও ভূমি উচ্ছেদ প্রতিরোধ কমিটির নামে ভোট চাননি৷

তবে শুভেন্দু অধিকারীর বক্তব্য এ দিনও ছিল তাৎপর্য্যপূর্ণ৷ তিনি বলেন, 'নন্দীগ্রাম আন্দোলন কারও একার নয়৷ রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা অপেক্ষা করছেন, শুভেন্দু অধিকারী কী করবেন৷ আমার মত কী, পথ কী, শুভেন্দু অধিকারী কোন রাস্তায় স্বচ্ছন্দ, আমার চলার পথে কোথায় চড়াই- উতরোই, কোন রাস্তা গর্তে ভরা, কোথায় হোঁচট খাচ্ছি, এসব রাজনীতির মঞ্চে বলব৷ এই পবিত্র মঞ্চে রাজনীতি করি না৷ শুভেন্দু অধিকারী কাউকে ভয় পায় না৷' এর পরই কটাক্ষের সুরে তিনি বলেন, 'নন্দীগ্রামের কথা মনে পড়েছে দেখে খুব ভাল লাগছে৷ ভোটের আগে যেমন আসতেন, ভোটের পরেও তো আসতে হবে!'

এ দিন নন্দীগ্রামে শুভেন্দুর সভায় তৃণমূলের বড় কোনও মুখ হাজির না থাকলেও পাশকুড়ার তৃণমূল বিধায়ক ফিরোজা বিবি এবং তমলুকের সাংসদ দিব্য়েন্দু অধিকারী উপস্থিত ছিলেন৷

ফের আগামী ৭ জানুয়ারি নন্দীগ্রামে সভা করার ইঙ্গিত দিয়েছেন শুভেন্দু৷ একই সঙ্গে ভবিষ্যতেও তাঁকে নন্দীগ্রামের মানুষ সমর্থন করবে কি না, সভায় উপস্থিত ভিড়ের উদ্দেশে সেই প্রশ্নও করেন তিনি৷ পাশাপাশি দলীয় স্লোগান না দিয়ে শুভেন্দুর মুখে শোনা যায়, 'ভারত মাতা কী জয়' 'জয় জয় নন্দীগ্রাম' স্লোগান৷ যার জেরে শুভেন্দুর রাজনৈতিক ভবিষ্যৎ এবং তৃণমূলের সঙ্গে তাঁর দূরত্ব নিয়ে গত কয়েকদিন ধরে চলা জল্পনা এ দিনের পর আরও বেড়েছে৷

Published by: Debamoy Ghosh
First published: November 10, 2020, 12:49 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर