corona virus btn
corona virus btn
Loading

জলমগ্ন ঘাটাল, বায়ুসেনার চপারের সাহায্যে উদ্ধার দুর্গতদের

জলমগ্ন ঘাটাল, বায়ুসেনার চপারের সাহায্যে উদ্ধার দুর্গতদের

জলমগ্ন ঘাটাল, বায়ুসেনার চপারের সাহায্যে উদ্ধার দুর্গতদের

  • Share this:

 #পশ্চিম মেদিনীপুর: বন্যা দুর্গতদের উদ্ধারে হেলিকপ্টার। বায়ুসেনার হেলিকপ্টারে ঘাটালের প্রতাপপুর থেকে ২ মহিলা ও ১ পুরুষকে উদ্ধার করা হল ৷ ৬ শিশুকেও উদ্ধার করেছে বায়ুসেনা ৷ অত্যন্ত দুর্গম এলাকা হওয়ায় হেলিকপ্টারের সাহায্যে চলছে উদ্ধারকাজ ৷ একটি বাড়িতে আটকেছিলেন ৩৮ জন ৷ কপ্টার থেকে খাবার ও ওষুধ ফেলা হয় ৷

জেলায় জেলায় অব্যাহত জল-ছবি। জলমগ্ন খানাকুলে জলের তোড়ে নৌকা উল্টে মৃত এক। কোথাও জলমগ্ন হাসপাতাল। কোমর জলে হাঁটছেন প্রসূতি। সরাতে হচ্ছে রোগীদের। ঘাটালে জলে আটকে পড়া দুর্গতদের উদ্ধারে নামল হেলিকপ্টার। রায়না, জামালপুর থেকে ঘাটাল। পুরশুড়া , খানাকুল থেকে তারকেশ্বর। আজও জলে ভাসছে বিভিন্ন জেলার বিস্তীর্ণ এলাকা।

পশ্চিম মেদিনীপুর

ঘাটালের বন্যা পরিস্থিতির অবনতি। শিলাবতীর বাঁধ ভেঙে প্লাবন। নতুন করে জল ঢুকছে বহু গ্রামে । জলমগ্ন হাসপাতাল। ঘাটাল হাসপাতালের রোগীদের অন্যত্র সরানো হয়েছে । সরিয়ে নেওয়া হয়েছে অপারেশন থিয়েটার। আটকে পড়া দুর্গতদের উদ্ধারে নামল হেলিকপ্টার। ঘটনাস্থলে বিপর্যয় মোকাবিলা দল।

পূর্ব বর্ধমান

বিপদসীমার উপর দিয়ে বইছে দামোদর, মুণ্ডেশ্বরী। জামালপুরের জলমগ্ন উত্তরশিয়ালি গ্রামে সাপের কামড়ে অসুস্থ মুজিবর মল্লিককে নৌকায় করে উদ্ধার করা হয়েছে। দামোদরের পাড়েই ছিল মেডিক্যাল টিম। সেখানেই প্রাথমিক চিকিৎসার পর তাঁকে নিয়ে যাওয়া হয় জামালপুর স্বাস্থ্য কেন্দ্রে।

বাঁধ ভেঙে প্লাবিত পূর্ব বর্ধমানের রায়না, জামালপুরের বিস্তীর্ণ এলাকা। বিচ্ছিন্ন সড়ক যোগাযোগ। নেই পর্যাপ্ত নৌকা। টিউবওয়েল ডুবে যাওয়ায় পানীয় জলের সংকট দেখা দিয়েছে। মজুত নেই খাবার। চরম দুর্ভোগে গ্রামবাসীরা। উদ্ধারকাজে নেমেছে জাতীয় বিপর্যয় মোকাবিলা বাহিনী।

অন্যদিকে, গুরুজুয়ারি নদীর জল বেড়ে বিপত্তি। কালনার ঘুঘুডাঙা গ্রামে যোগাযোগ ব্যবস্থা বিচ্ছিন্ন। কখনও নৌকায়, কখনও সাঁতরে চলছে যাতায়াত । জলমগ্ন গ্রাম ছাড়ছেন গ্রামবাসীরা।

বাঁকুড়া

কমেছে কুয়ে নদীর জলস্তর। জল নেমেছে লাভপুরের লাঘাটা সেতু থেকে । সিউড়ি-কাটোয়া রাস্তায় যান চলাচল স্বাভাবিক। যদিও ময়ূরাক্ষী নদীর বদ্বীপে ১২ গ্রামের সঙ্গে যোগাযোগ এখনও বিচ্ছিন্ন। নৌকার উপর ভরসা করেই চলছে যাতায়াত।

হুগলি

দামোদরের বাঁধ ভেঙে বন্যা পরিস্থিতি পুরশুড়ায়। জলের তলায় প্রায় তিন হাজার একর জমি। ঘরছাড়া কমপক্ষে পাঁচশো পরিবার। খানাকুলে জলের তোড়ে নৌকা উলটে মৃত এক। নিখোঁজ এক মহিলা ও এক শিশু-সহ বেশ কয়েকজন। মুণ্ডেশ্বরীর বাঁধ ভেঙে প্লাবিত ছত্রশাল গ্রাম। উতনায় বাঁধ ভেঙে খানাকুল এক ও দুই নম্বর ব্লক প্লাবিত। যোগাযোগের একমাত্র মাধ্যম নৌকা।

মুণ্ডেশ্বরীর বাঁধ ভাঙায় বন্ধ আরামবাগ-কলকাতা রাজ্যসড়ক। মায়াপুরের কাছে জলমগ্ন রাস্তা । ব্যাহত যান চলাচল।

জলে ভেসে গিয়েছে গ্রাম। মিলছে না ত্রাণ। এই অভিযোগে তারকেশ্বরের কেশবচক পঞ্চায়েত প্রধানকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে কেশবচকের বাসিন্দাদের বিরুদ্ধে। শুক্রবার দুর্গাপুর, তিলপাড়া, মাইথন, পাঞ্চেত, তেনুঘাট, চান্ড্রিল ব্যারেজ থেকে জল ছাড়া হলেও তার পরিমাণ কমেছে।

First published: July 29, 2017, 4:26 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर