corona virus btn
corona virus btn
Loading

বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি বাঁকুড়ায়, জলমগ্ন আসানসোলও

বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি বাঁকুড়ায়, জলমগ্ন আসানসোলও

বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় বন্যা পরিস্থিতির তেমন উন্নতি হল না বাঁকুড়া জেলায় ৷

  • Share this:

#বাঁকুড়া: বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় বন্যা পরিস্থিতির তেমন উন্নতি হল না বাঁকুড়া জেলায় ৷ দুর্গাপুর ব্যারেজ থেকে জল ছাড়ায় নতুন করে বিভিন্ন এলাকা প্লাবিত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে ৷

জেলার গন্ধেশ্বরী , দারকেশ্বর , শিলাবতী , কংসাবতী , ভৈঁরোবাঁকি ও শালী নদীর জল এখনও বিপদসীমা ছুঁয়ে বইছে । বৃষ্টি অব্যাহত থাকায় দারকেশ্বরের জলে এখনও মিনাপুর ও ভাদুল সেতু ডুবে রয়েছে ৷ ওই দুটি সেতু দিয়ে যান চলাচল বন্ধ রয়েছে । গন্ধেশ্বরী নদীর উপর মানকানালি সেতুটিও ডুবে থাকায় বাঁকুড়া মানকানালি সড়কে যান চলাচল বন্ধ ।

এদিকে আজ সকাল থেকে দুর্গাপুর ব্যারেজ থেকে জল ছাড়তে শুরু করায় নতুন করে সোনামুখী , পাত্রসায়ের ও ইন্দাস ব্লকের একাংশ প্লাবিত হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে । সাধারনত দুর্গাপুর ব্যারেজ থেকে জল ছাড়লে ভৌগোলিক কারনে বাঁকুড়ার শালী নদীর জল পাত্রসায়ের ব্লকে আটকে পড়ে বন্যার সৃষ্টি করে । এবারও তেমন পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে বলে আশঙ্কা স্থানীয়দের । এদিকে একটানা বৃষ্টিতে বাঁকুড়া শহরের কানকাটা ও পলাশতলার বিস্তীর্ণ এলাকায় জল জমে জলবন্দী হয়ে পড়েছেন বহু মানুষ । বন্যা পরিস্থিতি মোকাবিলায় জেলার বন্যা প্রবন ব্লকগুলিতে সতর্কতা জারি রেখেছে বাঁকুড়া জেলা প্রশাসন । সোনামুখী , পাত্রসায়ের , ইন্দাস , জয়পুর ও কোতুলপর ব্লকের সবকটি গ্রাম পঞ্চায়েতকে পরিস্থিতির উপর কড়া নজর রাখতে বলা হয়েছে ।

এদিকে টানা বৃষ্টিতে জলমগ্ন আসানসোলের বেশ কিছু নিচু এলাকাও ৷ বৃষ্টিতে জল জমেছে ইসিএলের খোলামুখ খনিতে ৷ তার জেরে উৎপাদন ব্যাহত খোলামুখ খনিতে ৷ বৃষ্টিতে জলমগ্ন আসানসোলের একাধিক ওয়ার্ড ৷  জল বেড়েছে অজয় ও দামোদর নদেও ৷

First published: July 24, 2017, 10:35 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर