• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • SOCIAL DISTANCE MAINTAINING IN BURDWAN POLICE BARRACKS TO AVOID CORONA INFECTION RM

ব্যারাকে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে থাকার ব্যবস্থা করা হোক! মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে খুশি পুলিশকর্মীরা

মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ মেনে ব্যারাকগুলিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার ব্যাপারে বাড়তি জোর দিতে চলেছে পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ

মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ মেনে ব্যারাকগুলিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার ব্যাপারে বাড়তি জোর দিতে চলেছে পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ

  • Share this:

#পূর্ব বর্ধমান: মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ মেনে ব্যারাকগুলিতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার ব্যাপারে বাড়তি জোর দিতে চলেছে পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ। কোন ব্যারাকে কতজন পুলিশ কর্মী রয়েছেন তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জেলা পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে। ইতিমধ্যেই বর্ধমান জেলায় ৭৮ জন পুলিশকর্মী করোনা সংক্রমিত হয়েছেন। তার মধ্যে খণ্ডঘোষ থানায় এক সঙ্গে ১৮  জন পুলিশকর্মী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এর আগে মেমারির পালসিট পুলিশ ক্যাম্পে বেশ কয়েকজন পুলিশকর্মী এক সঙ্গে করোনা আক্রান্ত হয়েছিলেন। পাশাপাশি, বর্ধমান মহিলা থানার ৫  পুলিশকর্মীও কোভিড পজিটিভ। অন্যদিকে, খণ্ডঘোষ থানার ওসি প্রসেনজিৎ দত্ত দ্বিতীয়বারের জন্য করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। চিকিৎসার জন্য তাঁকে কলকাতায় পাঠানো হয়েছে।

মঙ্গলবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সচিবদের নিয়ে দক্ষিণবঙ্গের কয়েকটি জেলার সঙ্গে ভার্চুয়াল বৈঠক করেন। সেই বৈঠকে পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশ ও প্রশাসনের আধিকারিকরা উপস্থিত ছিলেন। ছিলেন পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সভাধিপতি শম্পা ধারা-ও।  সেখানেই খণ্ডঘোষ থানার পুলিশকর্মী অফিসারদের একসঙ্গে করোনা আক্রান্ত হওয়ার প্রসঙ্গ উল্লেখ করে মুখ্যমন্ত্রী ব্যারাকগুলিতে যাতে দূরত্ব বজায় রেখে পুলিশকর্মীরা বসবাস করেন, তা নিশ্চিত করার নির্দেশ  দেন।

মুখ্যমন্ত্রীর এই নির্দেশে খুশি পুলিশকর্মীদের অনেকেই। তাঁদের বক্তব্য, অনেক থানাতেই পুলিশকর্মীদের বিশ্রামের স্বাস্থ্যসম্মত পরিকাঠামো নেই। অনেক জায়গাতেই আবদ্ধ ঘরে একসঙ্গে অনেক পুলিশকর্মীকে বিশ্রাম নিতে হয়। অনেক জায়গায় পুলিশ ব্যারাকগুলিও ঘন বসতিপূর্ণ। সেখান থেকে করোনার সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা থেকেই যাচ্ছে। জেলা পুলিশের এক পদস্থ আধিকারিক জানান, মুখ্যমন্ত্রীর পরামর্শ মেনে কোন ব্যারাকে কত জন পুলিশ কর্মী কীভাবে রয়েছেন তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রয়োজনে তাঁদের জন্য আলাদা পরিকাঠামোর ব্যবস্থা করা হবে। উল্লেখ্য,  বর্ধমান, কালনা, কাটোয়ার করোনা আক্রান্ত পুলিশ কর্মীদের জন্য সেফ হাউস গড়ে তোলা হয়েছে।

Saradindu Ghosh

Published by:Rukmini Mazumder
First published: