'ধাক্কা মেরে আমাকে বিজেপি-তে পাঠাল', তৃণমূলকেই দুষেই অমিতের সভার পথে শিশির

'ধাক্কা মেরে আমাকে বিজেপি-তে পাঠাল', তৃণমূলকেই দুষেই অমিতের সভার পথে শিশির

শিশির অধিকারী৷ Photo-File

তবে এগরার সভায় নয়, কলকাতায় বিজেপি-র হেস্টিংস অফিসে অমিত শাহের হাত ধরেই বিজেপি-তে আসতে পারেন তিনি৷

  • Share this:

#কলকাতা: তৃণমূলই তাঁকে ধাক্কা দিয়ে বিজেপি-তে যেতে বাধ্য করল৷ এগরায় অমিত শাহের সভায় যাওয়ার জন্য বাড়ি থেকে বেরনোর সময় এমনই অভিযোগ করলেন কাঁথির তৃণমূল সাংসদ শিশির অধিকারী৷ প্রবীণ সাংসদের কথায়, 'রাজনীতি তো করতে হবে, বাঁচতে তো হবে৷' সূত্রের খবর, শিশিরবাবুর আর এক ছেলে এবং তমলুকের সাংসদ দিব্যেন্দু অধিকারীও এ দিনই বিজেপি-তে যোগ দিতে পারেন৷ তবে এগরার সভায় নয়, কলকাতায় বিজেপি-র হেস্টিংস অফিসে অমিত শাহের হাত ধরেই বিজেপি-তে আসতে পারেন তিনি৷

শিশির অধিকারী যে এ দিন অমিত শাহের সভায় যাবেন, নিজেই সেকথা জানিয়েছিলেন৷ এ দিন সকালে কাঁথির শান্তিকুঞ্জের বাড়ি থেকে বেরনোর সময় শিশিরবাবু বলেন, 'আমরা ফুটপাথের লোক, সংগ্রামের লোক৷ মেদিনীপুরের ইজ্জত বাঁচানোর জন্য লড়ছি৷ মেদিনীপুরের বেকার যুবকদের কর্মসংস্থানের জন্য লড়ব৷ আমাকে চরম অপদস্থ করা হয়েছে৷ তৃণমূলই আমাকে ধাক্কা মেরে বিজেপি-তে পাঠাল৷ কী করব, বাঁচতে তো হবে, রাজনীতি তো করতে হবে৷' শিশিরবাবুও এ দিন দাবি করেছেন, বাংলায় ২০০-র বেশি আসনে জয় পাবে বিজেপি৷ প্রবীণ সাংসদের কথায়, 'মমতায় বন্দ্যোপাধ্যায় যতই বলুন ২৯৪ আসনে উনিই প্রার্থী, বিজেপি দুশোর বেশি আসন পাবে৷' সাংসদ পদে তিনি ইস্তফা দেবেন কি না, সে বিষয়েও স্পষ্ট করে কিছু বলেননি শিশির অধিকারী৷ বরং হুঁশিয়ারির সুরে বলেন, 'ওরা যা পারে করে নিক৷'

যদিও শিশিরের যাবতীয় অভিযোগের জবাব দিয়েছেন তৃণমূল মুখপাত্র কুণাল ঘোষ৷ তিনি বলেন, 'শিশিরবাবু প্রবীণ মানুষ, অবোধ শিশু নয়৷ এই নাটকগুলি তাঁকে মানায় না৷ শুভেন্দু বিজেপি-তে গিয়েছিলেন সিবিআই-ইডির ভয়ে, শিশিরবাবু এখন একটা অজুহাত দিচ্ছেন৷ অধিকারী পরিবার পরিবারতন্ত্রের আদর্শ উদাহরণ৷ ওনাদের চোখ দিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় গোটা মেদিনীপুরকে দেখেছেন৷ কেউ কাউকে ধাক্কা দেয়নি৷ যখন শুভেন্দু অধিকারী মুখ্যমন্ত্রীর পরিবারকে আক্রমণ করতেন তখন কি উনি বাড়িতে বসে আঙুল চুষতেন?'

Abir Ghosal

Published by:Debamoy Ghosh
First published: