'যতই ডিজিটাল ইন্ডিয়া বানান, রুটি তো গুগুল থেকে ডাউনলোড হবে না', ব্যানারের স্লোগানে আলোড়ন

'যতই ডিজিটাল ইন্ডিয়া বানান, রুটি তো গুগুল থেকে ডাউনলোড হবে না', ব্যানারের স্লোগানে আলোড়ন
এই কর্মসূচিতে কলকাতা, বর্ধমান, দুর্গাপুর, আসানসোলের শিখ ধর্মাবলম্বী কৃষক পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন

এই কর্মসূচিতে কলকাতা, বর্ধমান, দুর্গাপুর, আসানসোলের শিখ ধর্মাবলম্বী কৃষক পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন

  • Share this:

#বর্ধমান: 'রুটি গুগুল থেকে ডাউনলোড হবে না'। জমিতেই গম ফলাতে হবে। কঠিন পরিশ্রমের মধ্য দিয়ে সেই কাজ করে আসছেন কৃষকরা। তাই সেই কৃষকদের বাঁচাতে হবে। কৃষকদের স্বার্থেই বাতিল করতে হবে কেন্দ্রের নয়া কৃষি আইন। এই সংক্রান্ত একটি ব্যানার নজর কেড়েছে বুধবার শিখ ধর্মাবলম্বীদের প্রতিবাদ কর্মসূচিতে। সেখানে তারা যে ব্যানার সামনে রেখে আন্দোলন চালিয়েছে তাতে বলা হয়েছে, 'যতই ডিজিটাল ইন্ডিয়া বানান, রুটি গুগুল থেকে ডাউনলোড হবে না'। বর্ধমান গুরুদ্বার প্রবন্ধক কমিটির এই ব্যানার এখন আলোচনার অন্যতম বিষয় হয়ে উঠেছে।

বুধবার বর্ধমানের গলসিতে দুই নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে শিক ধর্মাবলম্বীরা। কেন্দ্রীয় নয়া কৃষি আইনের প্রতিবাদে ও তা বাতিলের দাবিতে প্রায় আধঘন্টা দু নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে তারা। রাজ্যের গুরুত্বপূর্ণ এই জাতীয় সড়কের দুটি লেনই অবরুদ্ধ হয়ে পড়ায় ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়। এই কর্মসূচিতে কলকাতা, বর্ধমান, দুর্গাপুর, আসানসোলের শিখ ধর্মাবলম্বী কৃষক পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। জাতীয় সড়কের ওপর মিনি ট্রাক দাঁড় করিয়ে রেখে তার ওপর উঠে মাইকে কেন্দ্রের বিজেপি সরকার বিরোধী স্লোগান দেয় তারা।

এই কর্মসূচিতে পুরুষদের পাশাপাশি পরিবারের মহিলারা সদস্যরাও উপস্থিত ছিলেন। মহিলারা সামনে থেকে ব্যানার ফেস্টুন ফ্লেক্স হাতে স্লোগান দেন। সেখানেই বড় বড় করে লেখা রয়েছে- যতই ডিজিটাল ইন্ডিয়া বানান রুটি গুগুল থেকে ডাউনলোড হবে না। এ ব্যাপারে প্রশ্ন করা হলে আন্দোলনকারীরা বলেন, কৃষকরাই আমাদের মুখে অন্ন তুলে দিচ্ছেন। অথচ তাদের কথা না ভেবে কেন্দ্রীয় সরকার পুঁজিপতি মজুতদারদের সুবিধা করে দিচ্ছে। তাদের জন্য তৈরি হয়েছে এই নতুন কৃষি আইন। এর ফলে কৃষকরা আরও বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হবে। চাল ডাল তেল থেকে শুরু করে প্রয়োজনের সবকিছুর দাম অনেকগুণ বেড়ে যাবে। তাই অবিলম্বে এই আইন বাতিল করা হোক সেই দাবিতেই এই কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে।


আন্দোলনকারীরা বলেন,পাঞ্জাব হরিয়ানা দিল্লিতে আমাদের পরিবারের সদস্যরা রয়েছেন। এই চরম শীত উপেক্ষা করে দিনের পর দিন তাঁরা নয়া কৃষি আইনের বিরুদ্ধে আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছেন। আমরা যে তাদের পাশে রয়েছি সেই বার্তা দিতেই এই কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে।

Published by:Ananya Chakraborty
First published: