corona virus btn
corona virus btn
Loading

মা-বাবাকে পড়াচ্ছে সন্তানরা, জামুড়িয়ার আদিবাসী পাড়ায় 'বিরল' সাক্ষরতা অভিযান

মা-বাবাকে পড়াচ্ছে সন্তানরা, জামুড়িয়ার আদিবাসী পাড়ায় 'বিরল' সাক্ষরতা অভিযান

শ্লেট-পেনসিল নিয়ে অ আ ক খ শিখছেন চাঁদমনি হাঁসদা, উপল কিস্কু, সোনালি মেঝাইনরা।

  • Share this:

আদিবাসী পাড়ায় বয়স্কদের সাক্ষরতা অভিযান শুরু হয়েছে। তবে এই সাক্ষরতা অভিযান একটু অন্যরকমের। ছোট ছোট পড়ুয়ারা তাঁদের মা-বাবাদের দিচ্ছেন পড়াশোনার পাঠ।

শ্লেট-পেনসিল নিয়ে অ আ ক খ শিখছেন চাঁদমনি হাঁসদা, উপল কিস্কু, সোনালি মেঝাইনরা। বিদ্যাসাগরের ২০০তম জন্মশত বার্ষিকীতে এই দৃশ্যের দেখা মিলবে জামুড়িয়ায়। লকডাউনের সময় তিলকা মাঝি আদিবাসী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক দীপনারায়ণ নায়েক উদ্যোগী হন পঠন পাঠনের। আদিবাসী পিছিয়ে পড়া পড়ুয়াদের পাড়ায় পাড়ায় গিয়ে তিনি পড়িয়ে যাচ্ছেন।

ছোট ছেলে মেয়েদের এই পাঠদানের সময় তাঁদের মা বাবারা বসে থাকতেন খোলা আকাশের নীচে ওই পাঠশালায়। পড়া হয়ে গেলে তাঁরা ছেলে মেয়েদের নিয়ে যেতেন বাড়ি। অনেক অভিভাবকই ওই মাস্টারের পড়াশোনা শেখার ইচ্ছা প্রকাশ করেছিলেন। এবার দীপমাস্টার বের করলেন অভিনব উপায়। দায়িত্ব বর্তালেন পড়ুয়াদের ওপর। সেই থেকে শুরু হল বয়স্কদের সাক্ষরতা অভিযান। যেখানে ছোটরা পড়াচ্ছেন, বড়রা পড়ছেন।

কথায় আছে শিক্ষা আনে চেতনা, চেতনা ঘটায় বিপ্লব। সাক্ষরতা বিপ্লব ঘটাচ্ছে পশ্চিম বর্ধমানের অন্তর্গত জামুড়িয়ার জবা (শিমুলিয়া) আদিবাসী গ্রামের কচিকাঁচারা। দীর্ঘ সময় ধরে কোভিড-১৯ এর কারণে স্কুল-পাঠশাল সব বন্ধ। এহেন পরিস্থিতিতে শিশুরা যাতে পড়াশোনায় আগ্রহ হারিয়ে না ফেলে, তারই সমাধানে এগিয়ে এসেছিলেন এলাকারই তিলকা মাঝি আদিবাসী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক দীপ নারায়ণ নায়ক। পাশাপাশি মিড ডে মিল না হোক দুধ, পাউরুটি, কলার মত প্রোটিন যুক্ত পুষ্টিকর খাবারের জোগানও দিয়েছেন। এবার ওই পড়ুয়াদের মা বাবাদেরও বিশেষ পাঠশালায় বিশেষ প্রোটিন যুক্ত খাবারের জোগান দিচ্ছেন।

করোনা সতর্কতা বিধি মেনে, সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে, নানা ছড়া ও কবিতা শেখানোর শেখানো হচ্ছে। মাস্টারমশাইয়ের সেই পথ অনুসরণ করে শিশুরাও তাঁদের বয়স্ক মা-বাবা, দাদু-ঠাকুমাকেও হাতে খড়ি দেওয়াচ্ছেন লকডাউনের সময়। সব মা-বাবাই তো সন্তানদের লেখাপড়া শিখিয়ে শিক্ষিত করে তোলেন, কিন্তু সন্তানরা মা-বাবাকে শিক্ষিত করছে, এ ঘটনা বিরল।

DIPAK SHARMA

Published by: Arindam Gupta
First published: September 16, 2020, 12:43 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर