দক্ষিণবঙ্গ

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

'জুতো মেরে পা ভেঙে দেব', দলীয় কর্মীদেরই হুমকি বিজেপি সাংসদ সৌমিত্রের

'জুতো মেরে পা ভেঙে দেব', দলীয় কর্মীদেরই হুমকি বিজেপি সাংসদ সৌমিত্রের
বিজেপি সাংসদ সৌমিত্র খাঁ৷ Photo-File

নবান্ন অভিযানের প্রস্তুতি সভাতেই প্রকাশ্যে এল বিজেপির গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর বাসস্ট্যান্ডে অনুষ্ঠিত প্রস্তুতি সভাতেই এই মন্তব্য করেন বিষ্ণুপুরের সাংসদ৷

  • Share this:

#বাঁকুড়া: ফের বিতর্কিত মন্তব্য করলেন বিজেপি সাংসদ সৌমিত্র খাঁ৷ এবার অবশ্য দলীয় কর্মীদের উদ্দেশেই 'জুতো মেরে পা ভেঙে দেওয়ার' হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি৷ নবান্ন অভিযানের প্রস্তুতি সভাতেই প্রকাশ্যে এল বিজেপির গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব। বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর বাসস্ট্যান্ডে অনুষ্ঠিত প্রস্তুতি সভাতেই এই মন্তব্য করেন বিষ্ণুপুরের সাংসদ৷

সভা মঞ্চে দাড়িয়ে মাইক্রোফোন হাতে নিয়ে সৌমিত্র খাঁ  বলেন, 'যাঁরা কলকাতায় গিয়ে দিলীপ ঘোষ জিন্দাবাদ, সৌমিত্র খাঁ জিন্দাবাদ বলছেন তাঁরাই আবার বিষ্ণুপুরে বলছেন এটা বিজেপি-র সভা নয়৷' এইসব কর্মীদের জুতো মেরে পা ভেঙ্গে দেবার হুশিয়ারি দিলেন তিনি। তিনি বলেন বিজেপি দলের কেউ কেউ  প্রস্তুতি সভাতে না আসার কথা বলেছেন। বিজেপি কর্মীদের একাংশকে হুঁশিয়ারি দিয়ে তিনি বলেন, 'আগুন জ্বালিও না, আগুন জ্বালালে অনেক দুর যাবে৷'

দলের বিক্ষুদ্ধ গোষ্ঠীর দিকে কড়া ভাষায় এমনই বার্তা দিয়ে সতর্ক করলেন  সৌমিত্র খাঁ। তবে এদিন তিনি দলের কোনও নেতা বা কর্মীর নাম করেননি। দলের কেউ কেউ সম্বোধন করে সাংসদ তাঁর বক্তব্যে কড়া হুশিয়ারি দিলেন। বেশ কিছুদিন আগে বাঁকুড়ার সাংগঠনিক জেলা বিজেপি সভাপতি বিবেকানন্দ পাত্র দলের ছাতনা  মণ্ডল সভাপতিকে ফোনে রাজ্য যুব সভাপতি সৌমিত্র খাঁ সম্পর্কে বিতর্কিত বেশ কিছু মন্তব্য করেছিলেন। সেই ফোন রেকর্ডিং সোশ্যাল মিডিয়াতে দ্রুত গতিতে ভাইর‍্যাল হয়ে যায়। জেলা সভাপতির এই বেফাঁস মন্তব্যে অস্বস্তিতে পড়ে জেলা বিজেপি।

মঙ্গলবার বিষ্ণুপুর প্রস্তুতি সভায় দেখা যায়নি বিষ্ণুপুর সাংগঠনিক জেলা বিজেপি সভাপতি হরকালী প্রতিহারকে, ছিলেন না বাঁকুড়া সাংগঠনিক জেলার সভাপতি বিবেকানন্দ পাত্রকেও৷ বিষ্ণুপুর বাসস্ট্যান্ডে সভা মঞ্চে  নিজের দলের কাদের জুতো মারার ইঙ্গিত দিলেন  সৌমিত্র খা তা স্পষ্ট না হলেও দলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব যে চরম পর্যায়ে  তা এদিনের সভায় স্পষ্ট হয়ে গেল৷

Mritunjoy Das

Published by: Debamoy Ghosh
First published: September 30, 2020, 7:59 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर