রাজ্যে ফের সক্রিয় ভাগাড় চক্র, আটক গাড়ি ভর্তি মৃত পশুর পচা মাংস

representative image

  • Share this:

    #দেগঙ্গা: রাজ্যবাসীর মন থেকে ভাগাড়ের মাংসের ভয় অনেকটাই ফিকে হয়ে আসছিল, তারমধ্যেই আভমকা ফের হানা দিল ভাগাড়-আতঙ্ক! এবার উত্তর ২৪ পরগনার দেগঙ্গা! পাচারের আগে ধরা পড়ল গাড়ি ভর্তি মৃত পশুর পচা মাংস। পুলিশ-প্রশাসন অন্ধকারে থাকলেও, স্থানীয় বাসিন্দাদের উদ্যোগেই বিষয়টি প্রকাশ্যে আসে।

    দেগঙ্গার মণ্ডলগাঁতি এলাকায় রাতের অন্ধকারে ভাগাড়ে ফেলে দেওয়া পশুর মাংস কাটা হত পাঁচিল ঘেরা একটি নির্জন জায়গায়। পরে সেখান থেকে ম্যাটাডর করে ছোট ছোট টুকরো করা মাংস হোটেল, রেস্তরাঁয় পাচার করে দেওয়া হত। কলকাতার রেস্তরাঁগুলিও রয়েছে সেই তালিকায়।

    বেশ কিছুদিন ধরেই এলাকাবাসীদের সন্দেহ হচ্ছিল, এলাকায় কিছু একটা 'ভুল' কাজ হচ্ছে! তাঁরা বিষয়টি নজরে রাখছিল! অবশেষে সোমবার রাতে হাতেনাতে ধরা পড়ল গাড়ি ভর্তি ভাগাড়ের মাংস। প্রাথমিক ভাবে জানা গিয়েছে, মধ্যমগ্রাম, কলকাতার বিভিন্ন হোটেলে এই মাংস পৌঁছে দেওয়া হত। ধরা পড়েছে এক অভিযুক্তও। বাকিরা পলাতক। জানা গিয়েছে, এই চক্রের মূল মাথা টিটাগড়ের বাসিন্দা ইকবাল আনসারি। ইকবালের খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে দেগঙ্গা থানার পুলিশ।

    স্থানীয়দের অভিযোগ, প্রশাসনের ঢিলেঢালা নজরদারির কারণেই ফের সক্রিয় হয়ে উঠেছে ভাগাড় চক্র ।

    আরও পড়ুন-বাঁচানো গেল না, মারা গেলেন মধুস্মিতার অপর কিডনি গ্রহীতাও

    First published: