কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের মধ্যেই মদ, গাঁজার ঠেক ! বন্ধ করা হলো সেন্টার !

কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের মধ্যেই মদ, গাঁজার ঠেক ! বন্ধ করা হলো সেন্টার !

তিন দিনের মধ্যে সেই কোয়ারেন্টাইন সেন্টার বন্ধ করে দিতে বাধ্য হল প্রশাসন।

তিন দিনের মধ্যে সেই কোয়ারেন্টাইন সেন্টার বন্ধ করে দিতে বাধ্য হল প্রশাসন।

  • Share this:

#ধুলিয়ান: কোয়ারেন্টাইন সেন্টারের মধ্যে মদ ও গাঁজা চক্র চলছিল। তিন  দিনের মধ্যে সেই কোয়ারেন্টাইন সেন্টার বন্ধ করে দিতে বাধ্য হল প্রশাসন। ধুলিয়ানের কাঞ্চনতলা হাই স্কুলে ধুলিয়ান পুরসভার পক্ষ থেকে ভিন রাজ্য থেকে আসা শ্রমিকদের নিয়ে কোয়ারেন্টাইন সেন্টার করা হয়েছিল। কর্তৃপক্ষের অভিযোগ ওই সেন্টার এর মধ্যে মদ ও গাঁজা ঠেক শুরু হওয়ায় বাধ্য হয়ে পুরো কর্তৃপক্ষ কোয়ারেন্টাইন সেন্টার তুলে দেয়।

প্রসঙ্গত মুর্শিদাবাদ জেলা থেকে ভিন রাজ্যে কাজ করতে যায় প্রচুর শ্রমিক। ধুলিয়ান পৌরসভা এলাকা থেকেও বিভিন্ন রাজ্যে প্রচুর শ্রমিক কাজ করতে গিয়েছিল। করোনা আতঙ্কের জেরে লকডাউন ঘোষণা হওয়ার পর সেই সমস্ত শ্রমিকেরা নিজের নিজের এলাকায় ফিরে আসে। এলাকাবাসীরা ভীত সন্ত্রস্ত হয়ে সেই সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের কোয়ারেন্টাইন সেন্টারে রাখার জন্য চাপ দিতে থাকে। এলাকার মানুষের কথা ভেবে ধুলিয়ান পৌরসভা থেকে কাঞ্চন তলা হাই স্কুলে ওই সমস্ত পরিযায়ী শ্রমিকদের রাখার ব্যবস্থা করে। প্রায় আড়াইশো পরিযায়ী শ্রমিককে হাই স্কুলে রাখা হয়। ধুলিয়ান পুরসভার পক্ষ থেকে সমস্ত শ্রমিকের থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা ও স্বাস্থ্য পরীক্ষার ব্যবস্থা করা হয়। সমস্ত শ্রমিকদেরকে ১৪ দিন রাখার ব্যবস্থা করা হয় ওই স্কুলে। অভিযোগ, স্কুলের ছাদের গেটের তালা ভেঙে ছাদের উপরে গাঁজা ও মদ খাওয়া হচ্ছিল দেদার। শুধু তাই নয় ছাদের উপর বসে অনেক রাত পর্যন্ত তাসের আড্ডা ও চলছিল। স্কুলের চারপাশে পুলিশ থাকলেও তাদেরকে কোন গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছিল না। পৌরসভা কর্তৃপক্ষ এ নিয়ে নিষেধ করলে স্কুলের ভেতরে আসবাবপত্র ভাঙচুর করা হচ্ছিল বলে অভিযোগ।

PRANAB KUMAR BANERJEE

Published by:Piya Banerjee
First published: