corona virus btn
corona virus btn
Loading

ভোট পরবর্তী সংঘর্ষ জারি, কোথায় কী হাল দেখুন এক নজরে...

ভোট পরবর্তী সংঘর্ষ জারি, কোথায় কী হাল দেখুন এক নজরে...

ভোট শেষ। বেরিয়ে গিয়েছে ফলও। তারপরেও অশান্তির আগুন নিভছে না ভাঙড়ের পাওয়ার গ্রিড এলাকায়। তৃণমূল ও জমি রক্ষা কমিটির সংঘর্ষে দফায় দফায় উত্তপ্ত এলাকা। মুড়ি-মুড়কির মতো পড়ছে বোমা। ভাঙচুর চলছে একের পর এক বাড়িতে।

  • Share this:

ভোটের ফল ঘোষণার পর জেলায় জেলায় রাজনৈতিক সংঘর্ষ চলছেই। উত্তপ্ত ভাঙড়, মেমারি, নানুর, দেগঙ্গার মতো একাধিক জায়গা। এই পরিস্থিতিতে রাজ্যে শান্তি বজায় রাখার আরজি জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠী।

ভোট শেষ। বেরিয়ে গিয়েছে ফলও। তারপরেও অশান্তির আগুন নিভছে না ভাঙড়ের পাওয়ার গ্রিড এলাকায়। তৃণমূল ও জমি রক্ষা কমিটির সংঘর্ষে দফায় দফায় উত্তপ্ত এলাকা। মুড়ি-মুড়কির মতো পড়ছে বোমা। ভাঙচুর চলছে একের পর এক বাড়িতে। এলাকা শান্ত করতে শুক্রবার রাতভর অভিযান চালায় পুলিশ। গ্রেফতার করা হয় বেশ কয়েকজন দুষ্কৃতীকে।

দেগঙ্গা- বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষে শুক্রবার রাত থেকেই উত্তপ্ত উত্তর চব্বিশ পরগনার দেগঙ্গা। দেগঙ্গার ঝিকড়া কলোনি পাড়ায় বিজেপির বিরুদ্ধে জোর করে ‘জয় শ্রী রাম’ বলানোর অভিযোগ তুলেছে তৃণমূলের কর্মী-সমর্থকরা। তৃণমূলের বিরুদ্ধে পালটা কর্মীদের ঘরবাড়ি ভাঙচুরের অভিযোগে সরব বিজেপি। এলাকায় একুশো চুয়াল্লিশ ধারা জারি করা হয়েছে। নামানো হয়েছে কেন্দ্রীয় বাহিনীও।

নানুর- ভোট পরবর্তী হিংসায় উত্তপ্ত বীরভূমের নানুরের চারকলগ্রাম। এলাকায় বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষের অভিযোগ। লাঠি-বাঁশ হাতে ঘুরে বেড়াচ্ছেন গ্রামের মহিলারা।

চন্দ্রকোণা- তৃণমূলের অঞ্চল প্রধান-সহ একাধিক তৃণমূল কর্মী-সমর্থকদের বাড়ি ভাঙচুরের ঘটনায় উত্তপ্ত পশ্চিম মেদিনীপুরের চন্দ্রকোণার কুঁয়াপুর গ্রাম। এলাকায় ব্যাপক বোমাবাজির অভিযোগ। সংঘর্ষের খবর পেয়ে বিশাল পুলিশ বাহিনী নিয়ে এলাকায় যান চন্দ্রকোনা থানার ওসি। বিজেপির বিরুদ্ধে এলাকায় সন্ত্রাস ছড়ানোর অভিযোগ তুলেছে তৃণমূল। পালটা তৃণমূলের বিরুদ্ধে হামলার অভিযোগ করেছে বিজেপি।

কোচবিহার- লোকসভা ভোটে পালাবদলের পরই উত্তপ্ত কোচবিহার। ফলপ্রকাশের পর থেকে জেলার একাধিক জায়গায় তৃণমূলের পার্টি অফিসে ভাঙচুর, আগুন লাগানোর অভিযোগ উঠেছে বিজেপির বিরুদ্ধে। সিতাইয়ে বিজেপির দখল করা একটি পার্টি অফিস শনিবার পুনর্দখল করেন জেলার তৃণমূল নেতারা।

ডায়মন্ড হারবার- ডায়মন্ড হারবারের একতারা গ্রাম পঞ্চায়েতে বিজেপির বুথ সভাপতিকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে। বাড়ি ফেরার পথে অজয় কাড়াকে রড-লাঠি দিয়ে মারধর করে দুষ্কৃতীরা। ছিনিয়ে নেয় তাঁর কাছে থাকা দু’লক্ষ টাকাও। গুরুতর আহত অবস্থায় তাঁকে ডায়মন্ডহারবার হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছে। তদন্তে নেমেছে পুলিশ। যদিও হামলার অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল।

তালডাংরা- শুক্রবার রাত থেকে দফায় দফায় সংঘর্ষে উত্তপ্ত বাঁকুড়ার তালডাংরার পাঁচমুড়া। তৃণমূলের পার্টি অফিস ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতিদের বিরুদ্ধে। তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের দিকে পালটা আঙুল তুলেছে বিজেপি।

হরিপাল- ভোট পরবর্তী সংঘর্ষে উত্তপ্ত হুগলির হরিপালের গোপীনগর। তৃণমূলের স্থানীয় অফিসে ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীদের বিরুদ্ধে। দুষ্কৃতীদের মারে আহত দুই তৃণমূল কর্মী। এলাকায় টহল দেয় কেন্দ্রীয় বাহিনী।

গড়বেতা- সিপিএম-তৃণমূল সংঘর্ষে উত্তপ্ত পশ্চিম মেদিনীপুরের গড়বেতার জবা। সংঘর্ষে আহত বেশ কয়েকজন তৃণমূল কর্মী। পরিস্থিতি সামলাতে এলাকায় টহল দেয় কেন্দ্রীয় বাহিনী।

তারাপীঠ- তারাপীঠ থানার পাইকপাড়া গ্রামে ভোট পরবর্তী হিংসা অব্যাহত। বিজেপি-তৃণমূল সংঘর্ষ, ইটবৃষ্টি। লাঠিসোঁটা নিয়ে একে অপরের বিরুদ্ধে চড়াও হয় দু’পক্ষ। আহত দু’দলের বেশ কয়েকজন কর্মী সমর্থক। ঘটনার পর এলাকায় কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে।

এছাড়াও ভোট পরবর্তী সংঘর্ষে উতপ্ত ঝাড়গ্রামের সাকরাইল, পূর্ব বর্ধমানের গাংপুর, কোচবিহারের মোয়ামারির মতো বিভিন্ন জায়গা। এই পরিস্থিতিতে রাজ্যে শান্তি বজায় রাখার আরজি জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠী।

First published: May 26, 2019, 3:41 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर