• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • NOTIFICATION ISSUED BEFORE 24 HOURS VISWA BHARATI UNIVERSITY CELEBRATES BASANTA UTSAV SECRETLY SR

২৪ ঘণ্টা আগে বিজ্ঞপ্তি জারি! চুপিসাড়ে বসন্ত উৎসব হয়ে গেল বিশ্বভারতীতে

বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষের এ হেন সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ শান্তিনিকেতনের বাসিন্দা থেকে প্রাক্তনীরাও ৷ কেন এত গোপনীয়তার সঙ্গে বসন্ত উত্ষসব পালন করা হল তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন ৷

বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষের এ হেন সিদ্ধান্তে ক্ষুব্ধ শান্তিনিকেতনের বাসিন্দা থেকে প্রাক্তনীরাও ৷ কেন এত গোপনীয়তার সঙ্গে বসন্ত উত্ষসব পালন করা হল তা নিয়ে উঠছে প্রশ্ন ৷

  • Share this:

    Indrajit Ruj

    #শান্তিনিকেতন: শান্তিনিকেতনের ঐতিহ্যশালী বসন্ত উৎসব এ বারে গোপনীয়তা অবলম্বন করে এবং প্রথা ভেঙে দোলযাত্রার দিনে না করে তার আগেই করে ফেলল বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ। মাত্র ২৪ ঘণ্টা আগে ছাত্র-ছাত্রীদেরকে বলা হয় বসন্ত উৎসব হবে সকাল ন'টার মধ্যে ৷ যেন সকল ছাত্র-ছাত্রী গুরু প্রাঙ্গণে এসে উপস্থিত হয়। শুধুমাত্র যে সকল ছাত্র-ছাত্রী অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করবেন সেই সকল ছাত্রছাত্রীকে আসতে বলা হয়েছিল । তাছাড়া যে সমস্ত ছাত্র-ছাত্রীর বিশ্বভারতীর আইডেন্টি কার্ড রয়েছে তা দেখিয়ে গৌড় প্রাঙ্গণে ঢুকতে হবে ৷ সকাল সাতটার মধ্য়ে সকলকে আসতে বলা হয়েছিল। পাশাপাশি বিশ্বভারতীর বেশকিছু ভবনের অধ্যাপক অধ্যাপিকা এই অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

    সর্বোপরি উপস্থিত ছিলেন বিশ্বভারতীর উপাচার্য বিদ্যুৎ চক্রবর্তী। মঙ্গলবার সকাল সাতটায় বিশ্বভারতীর উপাসনা মন্দিরে উপাসনার মধ্যে দিয়ে শুরু হয় প্রথা ভেঙে বসন্ত উৎসব। এই বসন্ত উৎসবকে এত গোপনীয় ভাবে করার জন্য বা প্রথা ভাঙার জন্য শান্তিনিকেতনের প্রবীণ নাগরিক থেকে আশ্রমিক সকলেই তীব্র কটাক্ষ করেছেন। আশ্রমিকরা জানিয়েছেন, এত গোপনীয়তা অবলম্বন করার কি ছিল বা কি দরকার ছিল৷ যদি করোনাভাইরাসের কথা মাথায় রেখেই গোপনীয়তা অবলম্বন করে বিশ্বভারতী, তা হলে দোলযাত্রার দিনেও তা করা যেত ।

    পাশাপাশি, এই অনুষ্ঠানে বাইরের কোনও ব্যক্তি বা কোন পর্যটকের প্রবেশ একেবারেই নিষেধ ছিল। তার জন্য সকাল থেকেই বিশ্বভারতীর নিজস্ব নিরাপত্তা কর্মীরা গৌড় প্রাঙ্গণ এলাকা ঘিরে রেখেছিল। যাতে কোনও ব্যক্তি ভেতরে প্রবেশ করতে না পারেন। এমনকি সাংবাদিকের প্রবেশও নিষিদ্ধ  করেছে বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ ।

    'ওরে গৃহবাসী খোল দ্বার খোল লাগলো যে দোল' এই গানের মধ্যে দিয়েই শুরু হয়ে যায়  বসন্ত উৎসব৷ যদিও বিশ্বভারতীর বেশ কিছু ছাত্র-ছাত্রী জানিয়েছে এটা কোনও বসন্ত উৎসব নয় ৷ এটা একটি ঘরোয়া অনুষ্ঠান যা বসন্ত বন্দনা বলা যেতে পারে। যদিও বিশ্বভারতী কর্তৃপক্ষ এই বসন্ত উৎসব নিয়ে কোনও কথা বলতে রাজি হয়নি।

    Published by:Simli Raha
    First published: