হোম /খবর /দক্ষিণবঙ্গ /
বর্ধমানে নতুন কন্টেইনমেন্ট জোন ঘোষণা ! বাড়তি সতর্কতা পুলিশের !

বর্ধমানে নতুন কন্টেইনমেন্ট জোন ঘোষণা ! বাড়তি সতর্কতা পুলিশের !

২১ দিন এলাকার বাসিন্দারা বাইরে যেতে পারবেন না।

  • Share this:

#বর্ধমান:  করোনা আক্রান্তের হদিস মেলায় এবার কন্টেইনমেন্ট জোন করা হল মেমারি শহরে। পূর্ব বর্ধমানের মেমারির সোমেশ্বরতলা এলাকায় এক যুবকের দেহে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ মিলেছে। ওই যুবক কলকাতার বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা করাতে গিয়েছিলেন। সেখানেই তিনি করোনায় আক্রান্ত হন। সেখানে তাঁর নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছিল। গত ৬মে তিনি বাড়ি ফেরেন। এরপর তাঁর করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসে। তারপর থেকেই ওই এলাকা বাঁশের ব্যারিকেড দিয়ে  ঘিরে ফেলেছে পুলিশ। এলাকায় অস্থায়ী পুলিশ ক্যাম্প তৈরি হচ্ছে। এলাকাকে পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে  কন্টেইনমেন্ট জোন হিসেবে ঘোষণা করা হয়েছে।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই যুবককে দুর্গাপুরের লেভেল থ্রি করোনা হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়েছে। তাঁর বাবা, মা, দিদি,বাবার বন্ধু ও যে অ্যাম্বুলেন্সে তিনি কলকাতা থেকে ফিরেছিলেন সেই অ্যাম্বুলেন্স চালককে বর্ধমানের দু' নম্বর জাতীয় সড়কের পাশে করোনা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। তাঁদের সংস্পর্শে আর কারা কারা এসেছিলেন তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। তাঁদের তালিকা তৈরি করার কাজ চলছে।  তাদের সংস্পর্শে আসা ব্যক্তিদের হোম কোয়ারান্টিনে  থাকতে বলা হয়েছে। ওই যুবকের প্রত্যক্ষ সংস্পর্শে আসা পরিবারের সদস্যসহ পাঁচজনের নমুনা সংগ্রহ করে কলকাতায় পরীক্ষার জন্য পাঠানো হবে।

শুক্রবার বিকেলে সেই খবর আসার পরপরই ওই এলাকায় বাড়তি নজরদারি শুরু করে পুলিশ। এলাকার বাসিন্দাদের সচেতন করার কাজ চলছে। কাল সন্ধে থেকেই ওই এলাকা জীবানুমুক্ত করার কাজও শুরু হয়েছে।  ২১ দিন এলাকার বাসিন্দারা বাইরে যেতে পারবেন না। বাইরে থেকেও কেউ ওই এলাকায় বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া ঢুকতে পারবেন না বলে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে। জেলা পুলিশের আধিকারিকরা বলেন, ওষুধ সহ যাবতীয় নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী এলাকার পুলিশ কর্মীরাই বাইরে থেকে এনে দেবেন। কারও কোন কিছু প্রয়োজন হলে পুলিশের দেওয়া ফোন নম্বরে তাদের যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে।

SARADINDU GHOSH

Published by:Piya Banerjee
First published:

Tags: Burdwan, Containment Zone, Coronavirus