Flooded National Highway In Bengal: রাজ্য সড়কের ওপর দিয়েই বইছে নদী, ঝুঁকি নিয়ে চলছে বাস, গাড়ি

জাতীয় সড়ক নাকি নদী, ধরতে পারবেন না।

জাতীয় সড়ক নাকি নদী, ধরতে পারবেন না।

  • Share this:

#মেমারি:

একনজরে দেখে  নদী বলে মনে হতে পারে। তবে না, এটা কোনও নদী নয়। বর্ধমান-কালনা রাজ্য সড়ক। বর্ধমান থেকে কালনা যাওয়ার অতি গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা। মেমারির জাবুইডাঙাতে সেই রাস্তার ওপর দিয়ে বইছে জল।

রাস্তা এখন এক হাঁটু জলের তলায়। ফলে ঝুঁকি নিয়ে চলছে যাত্রীবাহী বাস সহ অনান্য যানবাহন। তবে ছোট চারচাকা গাড়ি একেবারেই চলছে না।রাস্তার মাঝেই কচি কাচারা নেমেছে সাঁতার কাটতে। চরম সমস্যায় নিত্যযাত্রীরা। স্থানীয়দের অভিযোগ,  ডিভিসির জল ছাড়ায় বাঁকা নদী উপছে একদিকে যেমন বিঘের পর বিঘে চাষের জমি প্লাবিত, তেমনই জমি উপচে রাস্তার উপর দিয়ে বইছে জল।

কয়েকদিনের মুষলধারায় বৃষ্টি ও সেইসঙ্গে ডিভিসির জল ছাড়ায় দুকূল ছাপিয়ে বইছে বাঁকা নদী। সেই নদীর জলেই প্লাবিত  বর্ধমান কালনা রোড। সেই সঙ্গে প্লাবিত রাস্তার দুপাশে থাকা প্রায় কয়েকশো বিঘা আমন ধানের জমি। কুচুট ও বিজুর ২ পঞ্চায়েতে বিস্তৃর্ণ ধানের জমি জলের তলায়  আমন ধানের প্রভুত ক্ষতির আশঙ্কায় চাষীরা। ক্ষতিপূরণের দাবি তুলেছেন চাষীরা।

গলসি থেকে উৎপন্ন হওয়া বাঁকা নদী বর্ধমান শহরের মাঝ দিয়ে বয়ে গিয়ে মেমারি, মন্তেশ্বর হয়ে গঙ্গায় গিয়ে মিশেছে। বছরের অন্যান্য সময় জল থাকে না বললেই চলে। কিন্তু এখন ফুলেফেঁপে এই নদী আতঙ্কের আর এক নাম হয়ে দাঁড়িয়েছে। দু'কূল ছাপিয়ে প্লাবিত করেছে বিস্তীর্ণ এলাকার জনপদ। বিভিন্ন রাস্তা কোমর সমান জলের তলায়। হাজার হাজার বিঘে ধান জমি এখন বাঁকা নদীর জলে প্লাবিত। সেই জলই এখন বইছে বর্ধমান কালনা রাজ্য সড়কের ওপর দিয়ে। সময় যত যাচ্ছে ততই জল বাড়ছে বাঁকা নদীতে। এরপর জল বাড়তে থাকলে এই রাস্তায় বাস ও অন্যান্য যান চলাচল বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। বাসিন্দারা বলছেন, কোথায় মাঠ আর কোথায় রাস্তা তা বোঝার উপায় থাকছে না। তার ফলে দুর্ঘটনার আশঙ্কা থেকেই যাচ্ছে।

Published by:Suman Majumder
First published: