corona virus btn
corona virus btn
Loading

দাউ দাউ করে জ্বলছে আগুন! পুড়ে খাক হয়ে যাচ্ছে যত্নে বোনা মাঠের ঘাস! ষড়যন্ত্রের অভিযোগ

দাউ দাউ করে জ্বলছে আগুন! পুড়ে খাক হয়ে যাচ্ছে যত্নে বোনা মাঠের ঘাস! ষড়যন্ত্রের অভিযোগ
প্রতীকী ছবি

খেলার মাঠে আগুন! সযত্নে তৈরি করা মাঠের ঘাস সেই আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেল। পেট্রোল বা কেরোসিন জাতীয় জ্বালানি তেল ছড়িয়ে এই আগুন ধরানো হয় বলে অনুমান।

  • Share this:

#ভাতার: খেলার মাঠে আগুন! সযত্নে তৈরি করা মাঠের ঘাস সেই আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেল। পেট্রোল বা কেরোসিন জাতীয় জ্বালানি তেল ছড়িয়ে এই আগুন ধরানো হয় বলে মনে করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। বুধবার সকালে এই ঘটনা নজরে আসে।  রাতের অন্ধকারে দুষ্কৃতীরা এই কাজ করেছে বলে মনে করা হচ্ছে। অভিযোগ খেলার মাঠের পাশে রাস্তা তৈরিকে কেন্দ্র করে কয়েকদিন ধরেই এলাকায় চাপা উত্তেজনা তৈরি হয়েছিল। তারই জেরে মাঠে এই আগুন লাগানো হয় বলে মনে করা হচ্ছে।  অবিলম্বে দুষ্কৃতীদের গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছেন স্থানীয় যুবকরা। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তেজনা দেখা দিলে ভাতার থানার পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি সামাল দেয় তদন্ত করে অভিযুক্তদের খুঁজে বের করা হবে বলে আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

পূর্ব বর্ধমান জেলার ভাতার ব্লকের অন্তর্গত ধরমপুর গ্রামের যুব সংঘ ক্লাবের নিজস্ব একটি খেলার মাঠ রয়েছে। সেই খেলার মাঠের ঘাসের মধ্যে আগুন লাগিয়ে দেয় কে বা কারা। তা নিয়েই এলাকায় চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে। উল্লেখ্য, খেলার মাঠে পূর্বদিকে একটি পাড়া রয়েছে।সেই পাড়ার লোকদের দাবি, খেলার মাঠের দক্ষিন দিকে রাস্তার জন্য কিছুটা জায়গা ছাড়তে হবে বলে ক্লাবের সদস্যদের জানিয়েছিল সেখানের বাসিন্দারা। রাস্তার অভাবে ওই পাড়ার বাসিন্দাদের যাতায়াতের সমস্যা দীর্ঘদিনের। কিন্তু ক্লাব মাঠ ছোট করে রাস্তা দিতে রাজি হয়নি বলে অভিযোগ।

তা নিয়ে ক্লাব কর্তৃপক্ষ ও খেলার মাঠের পূর্বদিকের পাড়ার বাসিন্দাদের বিবাদ দীর্ঘদিনের। তারই জেরে খেলার মাঠে এই আগুন লাগানো হয়েছে বলে দাবি স্থানীয়দের একাংশের। ভাতার থানার পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। কে বা কারা কেন এই আগুন লাগিয়ে তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে পুলিশ জানিয়েছে। ধরমপুর যুব সংঘ ক্লাবের সভাপতি শেখ জিয়াউদ্দিন আহমেদ জানান, সকালে খেলার মাঠে আগুন ধরানোর বিষয়টি নজরে আসে। বিষয়টি ভাতার থানায় লিখিতভাবে জানানো হচ্ছে।

Saradindu Ghosh

Published by: Shubhagata Dey
First published: September 24, 2020, 12:32 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर