২৫ কোটি টাকার মাদকসহ কুখ্যাত দুষ্কৃতী গ্রেফতার, চাঞ্চল্য পূর্ব বর্ধমানে

২৫ কোটি টাকার মাদকসহ কুখ্যাত দুষ্কৃতী গ্রেফতার, চাঞ্চল্য পূর্ব বর্ধমানে

৩৬ বছর বয়সী এই ব্যক্তির বাড়ি পূর্ব বর্ধমান জেলার আউশগ্রামের পাথরকুচি ডাঙ্গাপাড়া এলাকায়।

৩৬ বছর বয়সী এই ব্যক্তির বাড়ি পূর্ব বর্ধমান জেলার আউশগ্রামের পাথরকুচি ডাঙ্গাপাড়া এলাকায়।

  • Share this:

#বর্ধমান: নির্বাচন যত এগিয়ে আসছে ততই এ রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে থাকা মাদকের কারবার প্রকাশ্যে এসে পড়ছে। ফের প্রচুর পরিমাণ মাদক সহ পুলিশের জালে ধরা পড়ল এক ব্যক্তি। পূর্ব বর্ধমান জেলার মেমারি থানার রসুলপুর বাজার থেকে মাদক পাচারের অভিযোগে এক ব্যক্তিকে গ্রেফতার করল কলকাতা পুলিশের বিশেষ টাস্কফোর্স। গভীর রাতে তাকে আটক করে দীর্ঘক্ষণ মেমারি থানায় জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। গ্রেফতারের পর তাকে বিশেষ নজরদারিতে মঙ্গলবার সকালে কলকাতা নিয়ে গিয়েছে কলকাতা পুলিশের এসটিএফ।

কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্ক ফোর্স সূত্রে জানা গিয়েছে, ধৃত ব্যক্তির নাম সুনীল হাওলাদার। ৩৬ বছর বয়সী এই ব্যক্তির বাড়ি পূর্ব বর্ধমান জেলার আউশগ্রামের পাথরকুচি ডাঙ্গাপাড়া এলাকায়। সুনীল হাওলাদার প্রচুর পরিমাণ হেরোইন গাড়িতে বোঝাই করে পাচারের জন্য নবদ্বীপের দিকে যাচ্ছে বলে গোপন সূত্রে খবর পায় কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্ক ফোর্স। সেই তথ্যের ওপর ভিত্তি করে তারা অভিযানে বের হয়। মেমারি থানার পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে আগেভাগেই রাস্তায় অপেক্ষায় ছিলেন তদন্তকারী পুলিশ অফিসাররা। সুনীল হাওলাদারের সাদা রংয়ের চারচাকা গাড়ি রসুলপুর বাজারে পৌঁছতেই সেই গাড়ি আটক করে পুলিশ। এরপর সেই গাড়িতে তল্লাশি শুরু হয়। তাতেই প্যাকেট বন্দি অবস্থায় প্রচুর পরিমাণ নিষিদ্ধ মাদক উদ্ধার হয়।

কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্ক ফোর্স সূত্রে জানা গিয়েছে, কুখ্যাত মাদক পাচারকারী হিসেবে সুনীল হাওলাদারের খোঁজ চলছিল বেশ কিছুদিন ধরেই। হাতেনাতে তাকে ধরতে জাল বিছিয়েছিলেন তদন্তে থাকা পুলিশ অফিসাররা। প্রচুর পরিমাণ হেরোইন নিয়ে তা অন্যত্র পাচারের জন্য সুনীল রওনা দিয়েছে জানতে পারার পরই তাকে জালে ফেলতে তৎপর হয়ে ওঠে তদন্তকারী পুলিশ অফিসাররা। জানা গিয়েছে, পাঁচ কেজি হেরোইন বাজেয়াপ্ত করা সম্ভব হয়েছে। নিষিদ্ধ বাজারে তার আর্থিক মূল্য অন্তত ২৫ কোটি টাকা। এত বড় মাপের মাদক পাচারকারীকে জালে জড়াতে পেরে খুশি কলকাতা পুলিশের স্পেশাল টাস্কফোর্সের অফিসাররা। এই মাদক কারবারের সঙ্গে আর কারা কারা জড়িত, কতদূর পর্যন্ত ছড়িয়ে রয়েছে এই চক্র সেসব বিস্তারিত তথ্য পেতে ধৃতকে নিজেদের হেফাজতে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হবে বলে কলকাতা পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে।

Saradindu Ghosh

Published by:Piya Banerjee
First published: