শাহী র‍্যালির পাল্টা এবার তৃণমূলের, আগামিকাল বোলপুরে রোড শো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের 

শাহী র‍্যালির পাল্টা এবার তৃণমূলের, আগামিকাল বোলপুরে রোড শো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের 

ফাইল ছবি

রবিবার রাত থেকে মুখ্যমন্ত্রীর সফর ঘিরে ছোট-বড় মিলিয়ে ২০ হাজার পতাকা লাগানো হয়েছে। বীরভূম জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল নিজে দাঁড়িয়ে থেকে রাস্তায় পতাকা লাগিয়েছেন।

  • Share this:

#বীরভূম: আজ, সোমবার বীরভূমে আসছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মুখ্যমন্ত্রীর সফর ঘিরে শুরু হয়েছে ব্যাপক প্রস্তুতি। রবিবার রাত থেকে মুখ্যমন্ত্রীর সফর ঘিরে ছোট-বড় মিলিয়ে ২০ হাজার পতাকা লাগানো হয়েছে। বীরভূম জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল নিজে দাঁড়িয়ে থেকে রাস্তায় পতাকা লাগিয়েছেন।

অমিত শাহের সফরের ঠিক নয় দিনের মাথায় বীরভূম সফরে আসছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর এই  সফর ঘিরে এখন সাজো সাজো রব গোটা জেলাজুড়ে। জেলা সফরে এসে আজ, সোমবারই বোলপুরে একটি প্রশাসনিক বৈঠক করবেন। আগামিকাল, মঙ্গলবার একটি রোড শো করার কথা রয়েছে মুখ্যমন্ত্রীর। তাঁর এই কর্মসূচি ঘিরে এখন চূড়ান্ত ব্যস্ততা প্রশাসনিক মহলে, পাশাপাশি জেলা তৃণমূলের নেতাদের মধ্যেও। গত ২০ ডিসেম্বর বোলপুরে একটি রোড শো করেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। সেখানে তীব্র ভাষায় রাজ্যের শাসক দলকে আক্রমণ করেন তিনি। এরপরেই ওই একই জায়গায় পাল্টা রোড শো করার সিদ্ধান্ত নেয় তৃণমূল।

আগামিকাল, মঙ্গলবার মুখ্যমন্ত্রী পদযাত্রা করবেন ওই একই রাস্তায়। তৃণমুল নেত্রীর এই সফরকে ঘিরে কোনওরকম খামতি রাখতে চাইছে না জেলা তৃণমূল কংগ্রেস। যার প্রস্তুতি ইতিমধ্যেই শুরু করে দিয়েছে তৃণমূল। শনিবার সন্ধ্যা থেকেই বোলপুর শহরকে তৃণমূলের পতাকা, ফ্লেক্স দিয়ে মুড়ে ফেলা হয়েছে, মাইকেও  প্রচার চলছে। বীরভূম জেলা নেতৃত্ব জানাচ্ছে, মুখ্যমন্ত্রীর সফর ঘিরে ছোট-বড় মিলিয়ে কুড়ি হাজার পতাকা লাগানো হয়েছে শহর জুড়ে। প্রতিটি মোড়ে লাগানো হয়েছে একাধিক ফ্লেক্স, পোস্টার, ব্যানার। মুখ্যমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে শহরের বিভিন্ন প্রান্তে প্রায় কুড়িটি তোরণ বানানো হয়েছে।

বোলপুর ডাকবাংলো থেকে চৌরাস্তা পর্যন্ত চারটি বেলুনের গেট বানানো হয়েছে। তেরঙা জরি দিয়ে বোলপুর লজ মোড় থেকে চৌরাস্তা পর্যন্ত সাজিয়ে তোলা হচ্ছে, পাশাপাশি রবীন্দ্র আবেগকে সামনে রেখে রবীন্দ্রসঙ্গীতের লাইন ও রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের অসংখ্য কাটআউট বসানো হয়েছে রাস্তার দু’পাশে। এই রোড শো যাতে মানুষ সব জায়গা থেকে দেখতে পায় তার জন্য বোলপুর ডাকবাংলো থেকে চৌরাস্তা পর্যন্ত কুড়িটি জায়ান্ট স্ক্রিন লাগানো হচ্ছে। আজকে মুখ্যমন্ত্রীর রাঙাবিতানে থাকার কথা। সেই মতো ওই অতিথিশালাটিও নতুন ভাবে সাজিয়ে তোলা হচ্ছে। জেলা প্রশাসনের কর্তারা জানিয়েছেন, প্রশাসনিক বৈঠক শেষে মুখ্যমন্ত্রী সোনাঝুরির হাটেও যেতে পারেন। সেইজন্য সোনাঝুরির হাটে বসার জায়গাগুলিকে নতুন করে সাজিয়ে তোলা হচ্ছে। বীরভূমের তৃণমূলের জেলা সহ সভাপতি অভিজিৎ সিংহ জানিয়েছেন, ২৯ তারিখ প্রায় আড়াই লক্ষ লোকের সমাগম হবে। তারই এখন শেষ পর্যায়ের প্রস্তুতি চলছে।

আবীর ঘোষাল

Published by:Siddhartha Sarkar
First published:

লেটেস্ট খবর