Home /News /south-bengal /
Mamata Banerjee: 'মা আমার কথা রেখেছেন', ১৬ সপ্তাহের ব্রত রেখে সিঙ্গুরে এসে পুজো মমতার

Mamata Banerjee: 'মা আমার কথা রেখেছেন', ১৬ সপ্তাহের ব্রত রেখে সিঙ্গুরে এসে পুজো মমতার

নিজস্ব চিত্র

নিজস্ব চিত্র

Mamata Banerjee: তখন আমি মানত করেছিলাম বলেই, বেচাকে বলেছিলাম আমার ছোট জায়গা লাগবে। আমার থাকার জন্য নয়, আমাকে একটা মন্দির করতে হবে, কারণ এটা আমার কথা দেওয়া ছিল।

  • Share this:

#কলকাতা: ফের সিঙ্গুরে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে এ বার সিঙ্গুরে তিনি এসেছিলেন পুজো দিতে। অনুষ্ঠান মঞ্চে সাড়ে ১১ মিনিটের ভাষণে তিনি বললেন, ঠিক কেন এসেছেন তিনি সিঙ্গুরে। এক দিকে সিঙ্গুরের আন্দোলনের মাটিকে প্রণাম করলেন তিনি, পাশাপাশি সিঙ্গুরের মন্দিরে পুজো দেওয়ার কারণ ব্যখা করলেন। মমতা বললেন, সিঙ্গুর আন্দোলনের ইতিহাসের কথা উল্লেখ করে মমতা বললেন, 'সিঙ্গুর জয় পেলেন আপনারা, জমি ফেরত পেলেন, সুপ্রিম কোর্টে জয় পেলেন, আমরা সাহায্য করলাম। এ খানে এখন অ্যাগ্রো ইন্ডাস্ট্রি হচ্ছে, কোচ ফ্যাক্টরি হচ্ছে, আমাকে উদ্বোধন করতে আসতে হবে। ওটা উত্তরপাড়ায় হচ্ছে, হিন্দ মোটরের কারখানা হচ্ছে। ডানকুনিতে ফ্রেড করিডর আমি তৈরি করে দিয়ে গিয়েছিলাম। ডানকুনি থেকে বর্ধমান হয়ে ইন্ডাস্ট্রি চলবে, কোটি কোটি টাকার ইন্ডাস্ট্রি হবে আগামীদিন। আপনাদের ভবিষ্যৎ নিশ্চিত করা হবে।

আরও পড়ুন: বন্ধুরা মজা করে বলত শিক্ষামন্ত্রী, মাধ্যমিকে অষ্টম বাঁকুড়ার ব্রাত্য বসু

তখন আমি মানত করেছিলাম বলেই, বেচাকে বলেছিলাম আমার ছোট জায়গা লাগবে। আমার থাকার জন্য নয়, আমাকে একটা মন্দির করতে হবে, কারণ এটা আমার কথা দেওয়া ছিল। তোমরা জিতেছ। মা আমার কথা রেখেছেন। এটা মনের ভক্তি। মনেই ধর্ম থাকে। তখন বেচা আমাকে বলল, ঠিক আছে, ব্যবস্থা করছি। মন্দিরটা ২০১৯-এ হয়েছে। এখানকার এক কৃষক ভাই পুজো করেন। এর পর মন টানল। এ বার যখন ১৬ সপ্তাহ আগে ব্রত রাখলাম, বেচাকে বললাম, একটা ঘটে জল বসিয়ে রাখতে, আমি যখন যাব, ওখানে গিয়ে উদযাপন করব, তাই মা-কে দেখতে, বাচ্চাদের ভাল বাসতে, অনেকদিন বাদে সিঙ্গুরে মাটিতে পা দিয়ে প্রণাম ও সেলাম জানাতেই আমার আসা।'

আরও পড়ুন: ১০ জুন প্রকাশিত হবে উচ্চ মাধ্যমিকের ফল, দেখা যাবে নিউজ ১৮ বাংলায়

মমতা ইতিহাস মনে করিয়ে দিয়ে বলেন, আমি যখন ১৪ দিন এখানে ধর্না দিয়েছিলাম এবং কলকাতায় ২৬ দিন অনশন করেছিলাম, আপনাদের মনে আছে ২৫ সেপ্টেম্বর, সিঙ্গুরে বিডিও অফিসে রাত একটার সময় মারতে মারতে আমাদের বার করে দেওয়া হয়। সেই সময় দুর্গাপুজো, সবাই পুজোতে ব্যস্ত ছিলেন। আমার তখন শরীরে রক্তক্ষরণ হচ্ছিল। এমন ভাবে আমাকে মারা হয়েছিল। হাসপাতালে চিকিৎসরা লিখে দিয়েছিলেন লাইফ সাপোর্ট রাখার জন্য।

Abir Ghosal

Published by:Uddalak B
First published:

Tags: Mamata Banerjee

পরবর্তী খবর