'নির্বাচন কমিশন অমিত শাহ চালাচ্ছেন না তো'? বাঁকুড়ার সভায় চাঁচাছোলা ভাষায় বিজেপিকে আক্রমণ মমতার

'নির্বাচন কমিশন অমিত শাহ চালাচ্ছেন না তো'? বাঁকুড়ার সভায় চাঁচাছোলা ভাষায় বিজেপিকে আক্রমণ মমতার

বাঁকুড়ার সভায় চাঁচাছোলা ভাষায় বিজেপিকে আক্রমণ মমতার

বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারে ত্রুটি রাখছে না গেরুয়া শিবির। জাতীয় স্তরের নেতা মন্ত্রীরা এসে প্রচার করছেন তাঁরা। আর এই অবস্থায় পরপর কর্মসূচি ও প্রচার সভা করছেন তৃণমূল নেত্রীও। আঘাত লাগা পা নিয়েই প্রচার চালাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

  • Share this:

    #বাঁকুড়া: বাঁকুড়ার মেজিয়াম থেকে ফের কড়া ভাষায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে কটাক্ষ করলেন মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারে ত্রুটি রাখছে না গেরুয়া শিবির। জাতীয় স্তরের নেতা মন্ত্রীরা এসে প্রচার করছেন তাঁরা। আর এই অবস্থায় পরপর কর্মসূচি ও প্রচার সভা করছেন তৃণমূল নেত্রীও। আঘাত লাগা পা নিয়েই প্রচার চালাচ্ছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্য়ায়।

    বিধানসভা নির্বাচনের প্রচারে বাংলায় ঘনঘন অমিত শাহের আসাকেও কটাক্ষ করেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলছেন, "হোম মিনিস্টার দেশ চালাবে? না, তিনি তো কলকাতায় বসে চক্রান্ত করছে। কোথায় কাকে গ্রেফতার করা হবে, কোথায় কাকে মারা হবে নাকি এজেন্সি দিয়ে কোথায় কার পিছনে লাগা হবে। শিল্পপতিদের ঘরে ঘরে রেড হচ্ছে। স্বরাষ্ট্র সচিবকে পর্যন্ত নোটিশ দিয়েছে এখন। নির্বাচনের সময়ে কেন সরকারি আধিকরারিদের হেনস্থা করা হচ্ছে। নন্দীগ্রামে যারা কৃষক আন্দোলন করেছিলেন তাদের ওয়ারেন্ট পাঠানো হচ্ছে কীসের জন্য!"

    এরপরে অমিত শাহকে সরাসরি তোপ দেগে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন, "নির্বাচন কমিশনের প্রতি সম্পূর্ণ শ্রদ্ধা রেখে বলছি। নির্বাচন কমিশন কে চালাচ্ছে? অমিত শাহ বাবু আপনি চালাচ্ছেন না তো? আমার প্রশ্ন রয়ে গিয়েছে। আমরা চাই পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন নির্বাচন হোক। কিন্তু অমিত শাহ কে?তিনি নির্বাচন কমিশনকে গাইড করার কে?কমিশনের কাজে উনি হস্তক্ষেপ করছেন।"

    বিজেপিকে আক্রমণ করে মমতা বলছেন, "ওরা কী চায়? প্রাণে ফেলতে চায়? জল দিতে আসে না। রেশন দিতে আসে না। বন্যা বা কোভিড হলে আসে না। শ্রমিকদের মৃত্যুতে আসে না। পরিযায়ী শ্রমিকদের বিপদে আসে না। নির্বাচনে লুঠ করার জন্য ট্রেনে করে গুন্ডা নিয়ে আসে গায়ের জোর দেখানোর জন্য। বহিরাগত গুন্ডাদের নিয়ে নির্বাচন করতে দেব না।"

    Published by:Swaralipi Dasgupta
    First published: