দক্ষিণবঙ্গ

?>
corona virus btn
corona virus btn
Loading

মন ভালো নেই প্রণব মুখোপাধ্যায়ের 'সেকেন্ড হোম' মহিষাদলের

মন ভালো নেই প্রণব মুখোপাধ্যায়ের 'সেকেন্ড হোম' মহিষাদলের
সঙ্কট কাটেনি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের।

রবিবার রাতে বাথরুমে পড়ে গিয়েছিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি৷ সোমবার সকালে ডান হাত অবশ হতে থাকায় দ্রুত প্রণব মুখোপাধ্যায়কে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়

  • Share this:

#মহিষাদল: প্রিয়জন লড়ছে মৃত্যুর সঙ্গে। তাই মন ভালো নেই প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির ভালোবাসার শহর মহিষাদলের। মুখে বিষাদ যেন ছায়া ফেলেছে মহিষাদলবাসীর। অসুস্থ প্রনব মুখোপাধ্যায়ের সুস্থতা কামনা করছেন সকলে। প্রৌঢ়রা ফিরে যাচ্ছেন পুরনো দিনের কথায়। স্মৃতির সারণিতে আজ ঝড়।

প্রনব মুখোপাধ্যায়ের রাজনীতির হাতেখড়িটা হয়েছিল এই মহিষাদলেই। রাজনীতির গুরু হিসেবে তিনি মানতেন মহিষাদলের মানুষ প্রয়াত বিপ্লবী ও প্রাক্তন সাংসদ তথা রাজ্যের প্রাক্তন মন্ত্রী সুশীল কুমার ধাড়াকেই। সুশীল বাবুর বাংলা কংগ্রেসের হাত ধরেই রাজনীতির শুরু। বাংলা কংগ্রেসের হাত ধরেই রাজ্যসভায় প্রথমবার সাংসদও হয়েছিলেন প্রনববাবু।

মহিষাদল, তমলুক এবং অবিভক্ত মেদিনীপুর তাঁর দ্বিতীয় বাড়ি, একথা তিনি নিজেই বলতেন।মহিষাদলের প্রতি ভালোবাসা, সুশীল কুমার ধাড়ার প্রতি কৃতজ্ঞতা সব সময়ই তিনি দেখিয়ে এসেছেন। সুশীল বাবুর মৃত্যুর দিন বিদেশমন্ত্রকের গুরুত্বপূর্ণ বৈঠক ছিল, সেই বৈঠক ছেড়ে সস্ত্রীক প্রনববাবু মহিষাদল ছুটে এসেছিলেন দিল্লি থেকে। এসেছিলেন সুশীল বাবুর শেষকৃত্যে যোগ দিতে। মহিষাদলের প্রজ্ঞানানন্দ স্মৃতি ভবন জুড়ে এমন অনেক স্মৃতি রয়েছে প্রনব বাবুর।

রবিবার রাতে বাথরুমে পড়ে গিয়েছিলেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি৷ সোমবার সকালে ডান হাত অবশ হতে থাকায় দ্রুত প্রণব মুখোপাধ্যায়কে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়৷  মস্তিষ্কে রক্ত জমাট বেঁধেছে দেখে চিকিত্‍সকরা অপারেশনের সিদ্ধান্ত নেন৷ অপারেশনের আগে করোনা পরীক্ষায় পজিটিভ রিপোর্ট আসে৷ কিন্তু অস্ত্রোপচার করতেই হত। অস্ত্রোপচারের পর থেকেই তাঁকে ভেন্টিলেশানে রাখা হয়।

বুধবার সকালেল দিল্লির সেনা হাসপাতালের তরফে জানানো হয় প্রণববাবুর অবস্থা এখনও সঙ্কটজনক। তাঁর ভেন্টিলেশান সাপোর্ট এখন থাকছে।

Published by: Arka Deb
First published: August 12, 2020, 12:26 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर