corona virus btn
corona virus btn
Loading

করোনার কঠিন সময়ে রক্ত সঙ্কট চরমে, এগিয়ে এল মহিষাদল রাজ কলেজের পড়ুয়ারা

করোনার কঠিন সময়ে রক্ত সঙ্কট চরমে, এগিয়ে এল মহিষাদল রাজ কলেজের পড়ুয়ারা
  • Share this:
#মহিষাদল: বাড়ছে করোনা সংক্রমণ। বাড়ছে উদ্বেগ। তারই মধ্যে জেলার ব্লাডব্যাংক গুলিতে রক্ত সংকটও বাড়ছে। সেই সংকট কাটাতেই এগিয়ে এলো মহিষাদল রাজ কলেজের পড়ুয়ারা। শুক্রবার কলেজেই আয়োজিত হয় রক্তদান শিবির। শিবিরে স্বেচ্ছায় রক্তদান করেন ২০০ জন কলেজ পড়ুয়া। আয়োজকদের পক্ষ থেকে রক্তদাতাদের হাতে আজ তুলে দেওয়া হয় ফলমূল ও বিরিয়ানির প্যাকেট। এদিন তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবস উপলক্ষেই রক্তদান করেন। আজ ২৮  আগস্ট তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবস। প্রতি বছরই ঘটা করে আজকের দিনটি উদযাপন করা হয়। কিন্তু বর্তমান সময়ে করোনার আবহে তা না করে অনাড়ম্বর ভাবেই কলেজে কলেজে সোশ্যাল ডিসস্ট্যান্স বজায় রেখে সরকারি নিয়ম মেনেই পালিত হয় তৃণমূল ছাত্র পরিষদের প্রতিষ্ঠা দিবস। আর এই দিনে মানুষের পাশে দাঁড়াতে রক্তদানের অঙ্গীকার বদ্ধ হলেন তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সদস্য কলেজ পড়ুয়ারা। বিগত কয়েক বছর ধরে মহিষাদল রাজ কলেজের তৃণমূল ছাত্র পরিষদের  উদ্যোগে প্রতিষ্ঠা দিবসে রক্তদান শিবিরের আয়োজন করা হয়ে আসছে। জেলায় সর্বাধিক রক্ত সংগ্রহ করে এর আগে নজিরও গড়েছে মহিষাদল রাজ কলেজের তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সদস্যরা। বর্তমান সময়ে করোনা আবহে রক্তদান শিবির সেইভাবে যখন গড়ে উঠছে না। ফলে জেলায় রক্তের অভাব দেখা দিয়েছে। সেই অভাব দূর করার লক্ষ্যে এবার বিশেষ ভাবে এগিয়ে আসে তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সদস্য প্রাক্তন ও বর্তমান ছাত্র ছাত্রীরা।  রক্তদাতার সংখ্যা বাড়াতে রক্তদানের বিষয় মানুষকে জানাতে এবং সচেতন করার জন্য মহিষদল রাজ কলেজ তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সদস্যরা একটি থিম সং-ও তৈরি করেছে। যা সোশ্যাল মিডিয়ায় মানুষের মন কেড়েছে। রক্তদান একটি মহত কাজ। সেই কাজে সাধারন মানুষ যাতে আগ্রহের সাথে এগিয়ে আসে সেজন্যই এই উদ্যোগ বলে জানান মহিষাদল রাজ কলেজের তৃণমূল ছাত্র পরিষদের সভাপতি অতনু সামন্ত। থিম সং তৈরির পাশাপাশি  মহিষাদল  এলাকায় দেওয়ালে দেওয়ালে রক্তদানের উপকারিতা তুলে ধরা হয় সংগঠনের পক্ষ থেকে। আজ ২৮ আগস্ট শুক্রবার মহিষাদল  রাজ কলেজ তৃণমূল ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে আয়োজিত রক্তদান শিবিরে যোগদান করেন অধ্যাপক ও কলেজের কর্মচারীরা। SUJIT BHOWMIK
Published by: Elina Datta
First published: August 29, 2020, 12:21 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर