corona virus btn
corona virus btn
Loading

দীর্ঘদিনের দাবি পূরণ! ব্যাঙ্ক ও ATM পরিষেবা মিলতে চলায় খুশি বাসিন্দারা

দীর্ঘদিনের দাবি পূরণ! ব্যাঙ্ক ও ATM পরিষেবা মিলতে চলায় খুশি বাসিন্দারা

কৃষক বাজারে একটি ব্যাঙ্ক ও এটিএমের খুবই প্রয়োজন ছিল। এলাকায় কোনও ATM না থাকায় টাকা তোলার ক্ষেত্রে বাসিন্দাদের খুবই সমস্যা হচ্ছিল।

  • Share this:

 #বর্ধমানের: বাজার চলছে নিয়মিত। প্রতিদিন লক্ষ লক্ষ টাকার কৃষি পণ্য কেনাবেচা হচ্ছে। অথচ এলাকায় নেই কোনও ব্যাঙ্ক। কোনও ATM না থাকায় টাকা লেনদেনে খুবই সমস্যার মধ্যে পড়ছিলেন বাসিন্দারা। আজকের দিনে ব্যাঙ্কে এটিএম ছাড়া বাজার চলছে এমনটা ভাবাই যায় না। চার বছর আগেই পূর্ব বর্ধমানের  ভাতার কৃষক বাজারে ব্যাঙ্ক ও এটিএম পরিষেবা চালু করার দাবি জানিয়েছিলেন এলাকার কৃষকরা। অবশেষে এতদিন পর  তাঁরা সুরাহা পেলেন। বর্ধমান সেন্ট্রাল কো-অপারেটিভ ব্যাঙ্ক, ভাতার কৃষক বাজারে তাদের শাখা খুলতে চলেছে। সেই সঙ্গে সেখানে চালু হচ্ছে ATM পরিষেবা। জেলা প্রশাসন উদ্যোগ নিয়ে এই ব্যবস্থা করেছে। ভাতার কৃষক বাজারে প্রশাসন ব্যাঙ্ক চালুর উদ্যোগ নিয়ে এগিয়ে আসায় খুশি এলাকার বাসিন্দারা।

এলাকার কৃষকরা বলছেন, ভাতারে কৃষক বাজার তৈরি হয়েছে অনেক আগেই। ধীরে ধীরে কৃষক বাজার জমে উঠেছে। কৃষকরা তাদের উৎপাদিত সামগ্রী নিয়ে বাজারে আসছেন। এছাড়াও সেখানে সহায়ক মূল্যে ধান কেনা থেকে শুরু করে নানান পরিকাঠামো তৈরি করা হচ্ছে। তাই কৃষক বাজারে একটি ব্যাঙ্ক ও এটিএমের খুবই প্রয়োজন ছিল। এলাকায় কোনও ATM না থাকায় টাকা তোলার ক্ষেত্রে বাসিন্দাদের খুবই সমস্যা হচ্ছিল। তাই ব্যাঙ্ক ও এটিএম খোলার আবেদন জানানো হয়েছিল জেলা প্রশাসনের কাছে। সেই আবেদন মেনে ব্যাঙ্কের ব্যবস্থা করেছে জেলা প্রশাসন। এর ফলে কৃষক বাজারের সঙ্গে যুক্ত কৃষক ও এলাকার বাসিন্দাদের খুবই  সুবিধা হবে।

জেলা প্রশাসনের এক আধিকারিক জানান, পূর্ব বর্ধমান জেলায় কৃষক বাজারগুলিকে কার্যকর করতে তৎপরতা বাড়িয়েছে জেলা প্রশাসন। সেখানে যাতে নিয়মিত বাজার বসে, কৃষকরা যাতে উৎপাদিত ফসল সেখানে এনে দ্রুত বিক্রির ব্যবস্থা করতে পারেন তার পরিকাঠামো তৈরি করা হচ্ছে। পাশাপাশি সেখানে ক্ষুদ্র শিল্পের সঙ্গে যুক্তদের প্রশিক্ষণ ও কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। প্রতিটি কৃষক বাজারেই যাতে ব্যাঙ্ক এটিএম সহ প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা রাখা যায় তার পরিকাঠামো গড়ে তোলা হচ্ছে। ভাতার বাজারেও তেমনিই ব্যাঙ্ক-এটিএম চালু করা সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তার পরিকাঠামো তৈরি করা হয়ে গিয়েছে।এর ফলে কৃষক বাজার আরও জমজমাট হয়ে উঠবে বলে আশা করছে প্রশাসন।

Published by: Pooja Basu
First published: September 13, 2020, 4:34 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर