corona virus btn
corona virus btn
Loading

পুরভোটের ঘণ্টা বাজতেই বীরভূমের সাঁইথিয়া পুরসভা এলাকায় লিফলেট বিতর্ক শুরু !

পুরভোটের ঘণ্টা বাজতেই বীরভূমের সাঁইথিয়া পুরসভা এলাকায় লিফলেট বিতর্ক শুরু !

বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজে কাটমানি নিয়েছেন অম্বিকা দত্ত। ওই লিফলেটেই লেখা রয়েছে সেটা ৷

  • Share this:

#বীরভূম: সাঁইথিয়া পুরভোটের ঘণ্টা বাজতেই শুরু হয়ে গেল লিফলেট বিতর্ক। সাঁইথিয়ার ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলার নীলা দত্তের স্বামী অম্বিকা দত্তের নামে এই লিফলেট এখন ভাইরাল সাঁইথিয়া-তে। লিফলেটে লেখা রয়েছে ১৪ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলার কোনও কাজ করেন না সেই জায়গায় সমস্ত কাজ করছেন তার স্বামী অম্বিকা দত্ত।

বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজে কাটমানি নিয়েছেন অম্বিকা দত্ত। ওই লিফলেটেই লেখা রয়েছে সেটা ৷  কয়েকদিন আগে সাঁইথিয়ার মাঠপাড়া এলাকায় অম্বিকা দত্তকে এই নিয়ে বিক্ষোভ দেখায় স্থানীয় বাসিন্দারা সেখানে অম্বিকা দত্ত স্বীকার করে নিয়েছেন কাটমানি নেওয়ার কথা ৷ সেই কন্ঠস্বর নাকি রেকর্ডও আছে। সেই কাটমানি নেওয়ার কথা স্বীকার করে নেওয়ার কথা অডিও রেকর্ডিং পুরভোটের প্রচারে ব্যবহার করা হবে। আর এই নিয়েই বিতর্ক ছড়িয়েছে সাঁইথিয়া-তে। মুখে কিছু না বললেও সকলেরই মনে করছেন এই লিফলেট ছাপানো হয়েছে স্থানীয় বিজেপির পক্ষ থেকেই। তবে বিজেপির নেতারা জানিয়েছেন এই লিফলেট এর সঙ্গে তারা যুক্ত নন ৷ এই লিফলেট হচ্ছে তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের ফলাফল।

তৃণমূল নিজেদের মধ্যেই গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব করে এই লিফলেট ছাপিয়েছে। অন্যদিকে যার বিরুদ্ধে অভিযোগ অম্বিকা দত্ত জানিয়েছেন, তাঁর স্ত্রী অসুস্থ বলেই তার কাউন্সিলর স্ত্রী-র কাজকর্ম সামনে সাধারন মানুষকে পুরপরিষেবা দেন তিনি ৷  যদি কেউ প্রমাণ করে দিতে পারে যে তিনি কাটমানি নিয়েছেন তাহলে তাকে দল যা শাস্তি দেবে সেই শাস্তি মাথা পেতে নেবেন।  তবে এই সমস্ত ঘটনায় তিনি আঙুল তুলেছেন স্থানীয় বিজেপির দিকে। সব মিলিয়ে পৌরসভা ভোটের আগে লিফলেট বিতর্ক এখন সাঁইথিয়ার বাসিন্দাদের মুখে মুখে। তবে এই নিয়ে সাঁইথিয়া পুরসভার  চেয়ারম্যান বিপ্লব দত্ত জানিয়েছেন এই লিফলেট মানুষকে বিভ্রান্ত করার জন্য ছাপিয়েছে কেউ বা কারা।

Supratim Das

First published: February 25, 2020, 3:07 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर