রাজ আমলের রীতি মেনে সর্বমঙ্গলা মন্দিরে নাড্ডাকে উত্তরীয় পারবেন পুরোহিতরা

রাজ আমলের রীতি মেনে সর্বমঙ্গলা মন্দিরে নাড্ডাকে উত্তরীয় পারবেন পুরোহিতরা

মন্ত্রোচ্চারণের মধ্য দিয়ে পুজো অঞ্জলি দেবেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি। পুজোর পর তাঁকে ফল মিষ্টির প্রসাদ গ্রহণের আহ্বান জানানো হবে।

মন্ত্রোচ্চারণের মধ্য দিয়ে পুজো অঞ্জলি দেবেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি। পুজোর পর তাঁকে ফল মিষ্টির প্রসাদ গ্রহণের আহ্বান জানানো হবে।

  • Share this:

#বর্ধমান: রাজ আমলের ঐতিহ্য মেনে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডাকে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত বর্ধমানের সর্বমঙ্গলা মন্দির কর্তৃপক্ষ। প্রাচীন প্রথা মেনে মায়ের কাছে পুজো করা উত্তরীয় জে পি নাড্ডার গলায় পরিয়ে দেবেন মন্দিরের পুরোহিতরা। গর্ভগৃহে ঢুকে মাতৃমূর্তির সামনে থেকে তিনি যাতে পুজো দিতে পারেন তার সবরকম ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। মন্ত্রোচ্চারণের মধ্য দিয়ে পুজো অঞ্জলি দেবেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি। পুজোর পর তাঁকে ফল মিষ্টির প্রসাদ গ্রহণের আহ্বান জানানো হবে। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতির এই সফর উপলক্ষে শেষ পর্যায়ের প্রস্তুতি চলছে বর্ধমানের অধিষ্ঠাত্রী দেবী সর্বমঙ্গলা মন্দিরে।

বর্ধমান মানেই জিভে জল আনে যমজ মিষ্টি সীতাভোগ মিহিদানা। শতবর্ষ পার করা এই দুই মিষ্টি উপহার হিসেবে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার হাতে তুলে দেবে বর্ধমান সর্বমঙ্গলা মন্দির কর্তৃপক্ষ। বিশেষ যত্ন সহকারে স্বাস্থ্যবিধি মেনে গাওয়া ঘি দিয়ে তৈরি করা হচ্ছে সেই সীতাভোগ মিহিদানা। সুদৃশ্য প্যাকেটে তা তুলে দেওয়া হবে বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতির হাতে। সেই মিষ্টি যাতে দীর্ঘক্ষন ভালো থাকে সেদিকেও নজর রাখা হয়েছে।

বিকেল চারটে বেজে কুড়ি মিনিট নাগাদ বর্ধমান শহরের মধ্যস্থলে মা সর্বমঙ্গলা মন্দিরে আসার কথা বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জে পি নাড্ডার। তার আগে বর্ধমানের বীরহাটা থেকে কার্জন গেট পর্যন্ত জিটি রোডে রোড শোর কর্মসূচি রয়েছে তাঁর। রোড শো র পর বর্ধমানের ঐতিহ্যবাহী এই মন্দিরে পুজো দেবেন তিনি। এরপর তিনি দু নম্বর জাতীয় সড়ক লাগোয়া একটি হোটেলে সাংবাদিক বৈঠক করবেন। সেখানে দলীয় নেতাদের সঙ্গে গুরুত্বপূর্ণ বৈঠকও করবেন। এরপর রাত আটটা নাগাদ অন্ডাল বিমানবন্দরের উদ্দেশ্যে রওনা দেবেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি। বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি এই সফর উপলক্ষে বর্ধমান শহর জুড়ে ব্যাপক নিরাপত্তা বন্দোবস্ত করা হয়েছে। নিরাপত্তার চাদরে মুুুুড়ে ফেলা হয়েছে গোটা শহর। রোড সংলগ্ন রাস্তার দু'পাশের ছাদেও থাকছে পুলিশের কড়া নজরদারি।

Published by:Dolon Chattopadhyay
First published: