দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

দমছেন না জিতেন্দ্র, জবাব দিলেন ফিরহাদকে! মঙ্গলবারই কলকাতায় তলব করল দল

দমছেন না জিতেন্দ্র, জবাব দিলেন ফিরহাদকে! মঙ্গলবারই কলকাতায় তলব করল দল
ফিরহাদ হাকিমকেও জবাব জিতন্দ্রর৷ Photo-File

দল ডেকে পাঠালেও নিজের অবস্থানেই অনড় জিতেন্দ্র৷ তাঁর দাবি, চিঠি পাঠিয়ে কোনও অন্যায় তিনি করেননি৷ বরং গোপন চিঠি প্রকাশ্যে এনেই অন্যায় করা হয়েছে৷

  • Share this:

#আসানসোল: বিজেপি হয়তো ভুল বোঝাচ্ছে, তাই রাজ্য সরকারের বিরুদ্ধেই চিঠি লিখছেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি৷ এমনই দাবি করলেন পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিম৷ আসানসোলকে বঞ্চনার অভিযোগে সরাসরি পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমকেই চিঠি লিখেছিলেন আসানসোলের বিদায়ী মেয়র এবং পুর প্রশাসক জিেতন্দ্র তিওয়ারি৷ অস্বস্তিতে পড়ে তড়িঘড়ি জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে মঙ্গলবারই কলকাতায় ডেকে পাঠালো দল৷ তৃণমূল শীর্ষ নেতৃত্বের তরফে জানতে চাওয়া হবে, কেন জিতেন্দ্র এই চিঠি লিখলেন৷ একই সঙ্গে তাঁর ক্ষোভ প্রশমনের চেষ্টাও থাকবে৷ অভিষেক বন্দ্য়োপাধ্য়ায় সহ তৃণমূল শীর্ষ নেতৃত্বের পাশাপাশি বৈঠকে থাকতে পারেন ভোট কুশলী প্রশান্ত কিশোরও৷ তবে একাধিক জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে ফোন করলেও তাঁকে তিনি ধরতে পারেননি বলে জানিয়েছেন পুরমন্ত্রী৷

তবে দল ডেকে পাঠালেও নিজের অবস্থানেই অনড় জিতেন্দ্র৷ তাঁর দাবি, চিঠি পাঠিয়ে কোনও অন্যায় তিনি করেননি৷ বরং গোপন চিঠি প্রকাশ্যে এনেই অন্যায় করা হয়েছে৷ একই সঙ্গে ফিরহাদ হাকিমকে জবাব দিয়ে তাঁর প্রশ্ন, 'বিজেপি ভুল বোঝাচ্ছে উনি বুঝলেন কী করে, উনি কি জাদুকর? লোকসভা ভোটের পর ফিরহাদ হাকিম কোথায় ছিলেন? বিজেপি যখন একের পর এক পার্টি অফিস দখল করছিল, দলীয় কর্মীরা মার খাচ্ছিল তখন আমিই সামনে গিয়ে দাঁড়িয়েছিলাম৷ কাজ না হলে দল মানুষ ভোট দেবে না৷ আর ভোটে হারলে দল আমাকেই প্রশ্ন করবে কেন দল হারল! '

এ দিনই পুরমন্ত্রী ফিরহাদ হাকিমকে পাঠানো জিতেন্দ্র তিওয়ারির একটি চিঠি প্রকাশ্যে আসে৷ যেখানে তিনি অভিযোগ করেছেন, রাজ্যের আপত্তিতেই স্মার্ট সিটি প্রকল্পে কেন্দ্রীয় সরকারের পাঠানো প্রায় ২০০০ কোটি টাকা আসানসোল পুরনিগম৷ আবার বর্জ্য অপসারণের জন্য কেন্দ্রের পাঠানো প্রায় ১৫০০ কোটি টাকাও একই কারণে আসানসোল পুরসভা পায়নি বলে অভিযোগ করেছেন জিতেন্দ্র৷ রাখঢাক না করেই জিতেন্দ্র তিওয়ারি চিঠিতে অভিযোগ করেছেন, রাজনৈতিক কারণেই এই অর্থ নেওয়া থেকে বঞ্চিত হতে হচ্ছে আসানসোলকে৷ জিতেন্দ্র অভিযোগ করেছেন, কেন্দ্রের অর্থ নেওয়ার অনুমোদন না দিলেও সেই অর্থ জোগানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল রাজ্য সরকার৷ কিন্তু সেই প্রতিশ্রুতিও রাখা হয়নি৷ রাজ্যের এই সিদ্ধান্তের কারণেই আসানসোলের সঙ্গে অবিচার হয়েছে বলে চিঠিতে অভিযোগ করেছেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি৷ রবিবারই িডসেম্বর এই চিঠি লেখা হয়েছে৷

একই সঙ্গে চিঠিতে তিনি অভিযোগ করেছেন, রানিগঞ্জ এবং জামুড়িয়ায় নতুন টাউনহল তৈরি ও সংস্কার এবং কুলটি, বার্নপুর সহ আসানসোল পুর এলাকায় রাস্তা সংস্কার সহ একাধিক প্রকল্পে পুর ও নগরোন্নয়ন দফতরের অনুমোদন চাইলেও তা দেওয়া হয়নি৷ ফলে হয় রাজ্য সরকার কেন্দ্রীয় প্রকল্পের সুবিধে আসানসোল পুরনিগমকে নিতে দিক, নাহলে বিকল্প অর্থের সংস্থান করুক, চিঠির শেষে পুরমন্ত্রীর কাছে এই আবেদনও করেছেন জিতেন্দ্র তিওয়ারি৷

পুরমন্ত্রী অবশ্য এই চিঠি পাঠানোর জন্য জিতেন্দ্র তিওয়ারির কড়া সমালোচনা করেছেন৷ তাঁর দাবি, এ বিষয়ে কখনওই জিতেন্দ্র তিওয়ারি তাঁকে কিছু জানাননি৷ আলোচনা না করে এই ভাবে চিঠি দেওয়া ঠিক নয় বলেও দাবি করেছেন ফিরহাদ হাকিম৷ তিনি আরও বলেন, রাজ্য সরকার কোনও একটি শহরকে স্মার্ট সিটি হিসেবে গড়ে তোলায় বিশ্বাসী নয়৷ বরং রাজ্যের সব শহরকে স্মার্ট সিটি হিসেবে গড়ে তোলাই রাজ্যের নীতি বলে জানিয়েছেন পুরমন্ত্রী৷ ফিরহাদের আরও দাবি, কিছু দিন আগেই জল প্রকল্পের জন্য আসানসোল পুরসভাকে অর্থ বরাদ্দ করেছে রাজ্য৷ যদিও, ফিরহাদ হাকিমকে জবাব দিতে গিয়ে আসানসোল পুরসভার প্রশাসক বোর্ডের প্রধান জিতেন্দ্র তিওয়ারির অভিযোগ, সমস্ত অর্থ কলকাতা এবং বিধাননগর পুরসভাকে দিয়ে দেওয়া হয়৷

জিতেন্দ্র তিওয়ারি আসানসোলের মেয়র পদে ছিলেন৷ তিনি পাণ্ডবেশ্বরের বিধায়ক এবং পশ্চিম বর্ধমানের জেলা সভাপতি৷ পুরবোর্ডের মেয়াদ ফুরিয়ে যাওয়ায় আসানসোল পুর সভার প্রশাসক বোর্ডের প্রধান এখন জিতেন্দ্র৷ দলের এমন গুরুত্বপূর্ণ নেতা এ ভাবে চিঠিতে ক্ষোভ উগরে দেওয়ায় স্বভাবতই চরম বিড়ম্বনায় তৃণমূল নেতৃত্ব৷ ফিরহাদ হাকিম অবশ্য বলেছেন, 'মুখ্যমন্ত্রী তো বলেই দিয়েছেন যাঁরা যাওয়ার তাঁরা চলে যেতে পারেন৷ '

VENKATESWAR LAHIRI

Published by: Debamoy Ghosh
First published: December 14, 2020, 4:46 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर