দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

'এত ভয় কেন? কী হয়েছে?' কাটোয়ার সভা থেকে মমতাকে প্রশ্ন নাড্ডার

'এত ভয় কেন? কী হয়েছে?' কাটোয়ার সভা থেকে মমতাকে প্রশ্ন নাড্ডার
মমতাকে কটাক্ষ নাড্ডার৷ Photo-File
  • Share this:

#কাটোয়া: 'এত ভয় কেন? কী হয়েছে?' কাটয়োর কৃষক সুরক্ষা সভা থেকে বাংলায় এ ভাবেই মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কটাক্ষ করলেন বিজেপি সভাপতি জে পি নাড্ডা৷ এর আগের বার রাজ্য সফরে এসে ডায়মন্ড হারবার যাওয়ার পথে হামলা হয়েছিল জে পি নাড্ডার কনভয়ে৷ এ বার অবশ্য পূর্ব বর্ধমানে নির্বিঘ্নেই চলছে বিজেপি সভাপতির রাজ্য সফর৷

এ দিন বিমানে দিল্লি থেকে অণ্ডাল বিমানবন্দরে পৌঁছন জে পি নাড্ডা৷ এর পর সেখান থেকে হেলিকপ্টারে পৌঁছন কাটোয়ার জগদানন্দপুর গ্রামে পৌঁছন বিজেপি সভাপতি৷ স্থানীয় রাধাকৃষ্ণ মন্দিরে পুজো দিয়ে সভা মঞ্চে পৌঁছন নাড্ডা৷ সেই সভা থেকেই নানা ইস্যুতে রাজ্য সরকার এবং শাসক দলকে আক্রমণ করেন তিনি৷ কটাক্ষের সুরে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশে তিনি বলেন, 'মমতাদি, এত ভয় কেন? কী হয়েছে? খালি বলে হবে না, হবে না৷ মে মাসের পর থেকে হবে, হবে, হবে৷'

দিল্লিতে চলতে থাকা কৃষক আন্দোলনের মধ্যেই মূলত কৃষকদের সঙ্গে জনসংযোগ সারাই এই সফরে উদ্দেশ্য ছিল জে পি নাড্ডার৷ সেই কারণেই বেছে নেওয়া হয়েছে রাজ্যের শস্য ভান্ডার হিসেবে পরিচিত পূর্ব বর্ধমান জেলাকে৷ সভার নামও দেওয়া হয়েছিল কৃষক সুরক্ষা সভা৷ রাজ্যের আপত্তিতে এতদিন বাংলার কৃষকরা প্রধানমন্ত্রীর কৃষক সম্মান নিধি প্রকল্পের আর্থিক সাহায্য পাচ্ছে না বলেও অভিযোগ করেন বিজেপি সভাপতি৷ সম্প্রতি এই প্রকল্পে রাজ্যের আবেদনকারী কৃষকদের তথ্য যাচাইয়ে রাজি হয়েছে রাজ্য সরকার৷ সেই প্রসঙ্গ তুলে নাড্ডা বলেন, 'এতদিনে মমতাদি প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখে প্রকল্পে যোগ দেওয়ার কথা জানিয়েছেন৷ আর আপনার দরকার নেই দিদি৷ আমরা কৃষক সুরক্ষা সভা করলাম তখন গিয়ে আপনার টনক নড়ল? বিজেপি-র সরকার ক্ষমতায় এলে বাংলার কৃষকরা এমনিই অর্থ সাহায্য পাবে৷'

এ দিন সভাস্থলে আসার সময় রাস্তার দু' পাশে মানুষের ভিড় দেখেও উৎসাহিত বিজেপি সভাপতি৷ সভা মঞ্চ থেকে তিনি বলেন, 'এই ভিড় থেকে স্পষ্ট, বাংলায় পরিবর্তন হচ্ছেই৷'

বিজেপি সভাপতি আরও অভিযোগ করেন, কেন্দ্রের বিভিন্ন প্রকল্পের নাম চুরি করছে রাজ্য সরকার৷ কেন্দ্রীয় প্রকল্পের নাম বদলে দিয়ে রাজ্যের নামে চালানো হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন নাড্ডা৷ যদিও এ ভাবে প্রধানমন্ত্রীর নাম বাংলার মানুষের মন থেকে বোঝা যাবে না বলেও দাবি করেন বিজেপি সভাপতি৷

এই সভা থেকেই আনুষ্ঠানিক ভাবে 'এক মুঠো চাল' কর্মসূচির উদ্বোধন করেন জে পি নাড্ডা৷ আগামী ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত এই কর্মসূচিতে কৃষকদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে চাল এবং সব্জি সংগ্রহ করবে বিজেপি৷ এ দিন পাঁচটি কৃষক পরিবারে গিয়েও চাল এবং সব্জি সংগ্রহ করেন বিজেপি সভাপতি৷ সংগৃহীত চাল এবং সব্জি দিয়ে খিচুড়ি রান্না করে আগামী ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত কৃষকদের মধ্যেই তা বণ্টন করবে বিজেপি৷ এ দিন দুপুরে মথুরা মণ্ডল নামে এক কৃষকের বাড়িতে মধ্যাহ্নভোজও সারেন জে পি নাড্ডা৷

Published by: Debamoy Ghosh
First published: January 9, 2021, 3:19 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर