পারিবারিক বিবাদের জের, স্বামীর ছুরির কোপে গুরুতর আহত স্ত্রী-সহ ৪, মৃত ১

পূর্ব বর্ধমানের চান্ডুল গ্রামের বাসিন্দা রাইসমিল শ্রমিক কৈলাস সোনী ও তার স্ত্রীতাদের দুই সন্তানকে নিয়ে মনসা পুজো উপলক্ষে চান্ডুলেরই জামোড় পাড়ায় যায়।

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Sep 20, 2019 05:09 PM IST
পারিবারিক বিবাদের জের, স্বামীর ছুরির কোপে গুরুতর আহত স্ত্রী-সহ ৪, মৃত ১
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Sep 20, 2019 05:09 PM IST

#বর্ধমান: পারিবারিক বিবাদের জেরে ছুরির আঘাতে খুন ১, জখম ৪। ঘটনায় গ্রেফতার করা হয়েছে অভিযুক্তকে ৷ ঘটনাটি ঘটেছে বর্ধমান থানার চান্ডুলগ্রামের ঘটনা। শ্বশুড়বাড়ির মনসাপুজোয় যোগ দেওয়ার পর বাড়ি ফেরা নিয়ে অশান্তি হয় স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে। বিবাদ মেটাতে শ্বশুর বাড়ির লোকেরা হস্তক্ষেপ করলে এই ঘটনা ঘটে।

পূর্ব বর্ধমানের চান্ডুল গ্রামের বাসিন্দা রাইসমিল শ্রমিক কৈলাস সোনী ও তার স্ত্রীতাদের দুই সন্তানকে নিয়ে মনসা পুজো উপলক্ষে চান্ডুলেরই জামোড় পাড়ায় যায়। সন্ধের সময় বাড়ি ফেরার কথা বললে স্ত্রী আসতে না চাওয়ায় দুই সন্তানকে নিয়ে কৈলাস বাড়ি ফিরে আসে। তার ঠিক ঘন্টা দুয়েক পর আনুমানিক রাত ১০ টা নাগাদ কয়কেজন মিলে মেয়েকে শ্বশুরবাড়ি দিতে যায় ।

অভিযোগ সেই সময় আচমকা ধারাল অস্ত্র নিয়ে শ্বশুড়বাড়ির লোকজনের উপর চড়াও হয় কৈলাস। আচমকা আক্রমণে স্ত্রী সহ ৫ জন জখম হন।

তাদের বর্ধমান মেডিকেলে নিয়ে যাওয়া হলে অভিযুক্তের শ্যালিকাকে ডাক্তাররা মৃত ঘোষণা করে।

অন্যদিকে অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় শ্যালিকার স্বামী কালাচাঁদ মাঝিকে কলকাতায় রেফার করা হয়। গুরুতর জখম অবস্থায় স্ত্রী বর্ধমান মেডিকেলে চিকিৎসাধীন।অন্য দু’জনের আঘাত গুরুতর না হওয়ায় তাদের হাসপাতাল থেকে প্রাথমিক চিকিৎসার পর ছেড়ে দেওয়া হয়।

Loading...

পুলিশ খুনের মামলা রুজু করে কৈলাস সোনীকে গ্রেফতার করেছে।

কৈলাস সোনীর দাবী, স্ত্রীর মদ খাওয়ার প্রতিবাদ করায় তার উপর শ্বশুরবাড়ির লোকেরা আক্রমণ চালায় ৷ নিজেকে বাঁচাতেই সে পাল্টা এই ঘটনা ঘটায়।

First published: 05:09:17 PM Sep 20, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर