• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • হাজার হাজার মাইল পেরিয়ে এসেছে পাখির দল, বছর শেষে পরিযায়ী পাখি দেখার ভিড় চুপির চরে

হাজার হাজার মাইল পেরিয়ে এসেছে পাখির দল, বছর শেষে পরিযায়ী পাখি দেখার ভিড় চুপির চরে

বছর শেষের ক’টা দিন এবং জানুয়ারি মাসে উত্সাহীদের ভিড় আরও বাড়বে বলেই মনে করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

বছর শেষের ক’টা দিন এবং জানুয়ারি মাসে উত্সাহীদের ভিড় আরও বাড়বে বলেই মনে করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

বছর শেষের ক’টা দিন এবং জানুয়ারি মাসে উত্সাহীদের ভিড় আরও বাড়বে বলেই মনে করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

  • Share this:

Saradindu Ghosh #পূর্বস্থলী: বছর শেষে জাঁকিয়ে পড়া শীতকে সঙ্গী করে পূর্ব বর্ধমানের পূর্বস্থলীর চুপি চরে পাখি দেখতে ভিড় করছেন পর্যটকরা। শনিবার অগুণতি পাখি প্রেমী ভিড় করেছিলেন চুপির চরে। ইতিমধ্যেই সেখানে হাজারে হাজারে ভিড় করেছে পরিযায়ী পাখিরা। তাদের টানেই ভিড় বাড়ছে পর্যটকের। বছর শেষের ক’টা দিন এবং জানুয়ারি মাসে উত্সাহীদের ভিড় আরও বাড়বে বলেই মনে করছেন স্থানীয় বাসিন্দারা।

সুদূর সাইবেরিয়া থেকে দল দলে উড়ে আসা পাখিদের দেখতে চুপির চরে ভিড় করছেন পর্যটকরা। শীতের মিষ্টি রোদ পিঠে নিয়ে চড়ুইভাতির পাশাপাশি নৌকো নিয়ে চলছে পাখি দেখা। বিদেশি পাখিদের দেখতে উত্সাহীদের ভিড় বাড়ায় খুশি এলাকার মানুষ। কেনাকাটা বাড়ছে। মিলছে নৌকার ভাড়া। আকর্ষনীয় পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে গড়ে উঠেছে চুপি।

বর্ধমানের পূর্বস্থলী ব্লকের কাষ্ঠশালীর চুপি চর। গঙ্গা গতিপথ বদলে কিছুটা সরে যাওয়ায় এখানে তৈরি হয়েছে বিস্তীর্ন জলাভূমি। গঙ্গার সঙ্গে যোগ থাকায় সারা বছরই জল থাকে এখানে। সেই জলাভূমিতেই শীতের মরশুমে হাজারে হাজারে ভিড় করে পরিযায়ী পাখিরা। এবার শীত দাপট দেখাতেই ভিন দেশের পাখিরা হাজির চুপি চরের জল ও তৃণভূমিতে। পার্পেল মুরহেন, গার্ডওয়াল, বার্ন সালন, লিটল গ্রেভ, ফেরিজিনিয়াস ডাক, সোভেলিয়ার, কমন কট, ইউরোপীয়ান উইগন, কটন টেল-রা দলে দলে হাজার হাজার মাইল পাড়ি দিয়ে এসেছে চুপি চরে। তাদের দেখতে ভিড় করছেন প্রকৃতি প্রেমিকের দল। নৌকা ভাড়া করে চলছে পাখি দেখা।

চুপি চরকে আকর্ষনীয় পর্যটন কেন্দ্র হিসেবে গড়ে তুলতে কয়েক বছর আগেই উদ্যোগী হয়েছিল রাজ্য সরকার। এলাকার পরিকাঠামো উন্নয়নের জন্য দেড় কোটি টাকা বরাদ্দ করেছিল পর্যটন দফতর। সেই টাকায় চুপি পাখিরালয়ে তৈরি হয়েছে ওয়াচ টাওয়ার। সেই টাওয়ার থেকে পাখি দেখার পাশাপাশি পাখিদের ছবি তুলছেন উত্সাহীরা। তৈরি হয়েছে সুন্দর বিনোদন পার্ক। নৌকোয় রয়েছে লাইফ জ্যাকেট। একটি নৌকোয় চারজন উঠতে পারবেন। নৌকো ভাড়া ঘন্টা পিছু দেড়শো টাকা। থাকার জন্য রয়েছে পঞ্চায়েত সমিতির অতিথি নিবাস। বিদেশি পাখি কি কি রয়েছে, কোনটা কেমন দেখতে, কোন পাখি এই জলাশয়ের কোথায় রয়েছে তা নখদর্পনে নৌকা চালকদের।

Published by:Simli Raha
First published: