Howrah : বেনজির অমানবিকতা ! পড়া না পারায় দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্রের গায়ে গরম মোম ঢেলে ‘শাস্তি’ গৃহশিক্ষকের

শিশুর দেহে আঘাত এবং অভিযুক্ত শিক্ষক

অমানবিকতার বেনজির এই ঘটনা হাওড়ার (Howrah) গোলাবাড়ি থানার ফকিরবাগান লেনের

  • Share this:

হাওড়া : পড়া না পারায় দ্বিতীয় শ্রেণীর ছাত্রের গায়ে গরম মোম এবং হাতা দিয়ে ছ্যাঁকা দেওয়ার অভিযোগ গৃহশিক্ষকের বিরুদ্ধে ৷ বেনজির অমানবিকতার এই ঘটনা হাওড়ার গোলাবাড়ি থানার ফকিরবাগান লেনের ৷ অভিযুক্ত গৃহশিক্ষক দীপক প্রজাপতি পলাতক ৷

দ্বিতীয় শ্রেণীর ওই পড়ুয়া তার দাদা, দিদির সঙ্গে বাড়িতে দীপকের কাছে পড়ে ৷ গত ১৪ অগাস্ট তাদের বাড়িতে পড়াতে যায় দীপক ৷ সে সময় বাড়িতে অন্য আর কেউ ছিলেন না ৷ অভিযোগ, পড়া বলতে না পারায় শিশুটির গায়ে তার দাদা দিদির সামনেই গরম মোম ঢেলে ‘শাস্তি’ দেয় ওই শিক্ষক ৷ সেইসঙ্গে গরম হাতা দিয়েও ছ্যাঁকা দেওয়া হয় বলে অভিযোগ৷ তার শরীরের নানা জায়গায় ফোস্কা পড়ে যায় ৷

আক্রান্ত শিশুর বাবা পেশায় ফুলবিক্রেতা ৷ তিনি ও তাঁর স্ত্রী বাড়িতে ফিরলে ঘটনার কথা জানায় আক্রান্ত শিশুর দাদা ও দিদি ৷ সঙ্গে সঙ্গে যন্ত্রণায় ছটফট করতে থাকা ছোট ছেলেকে নিয়ে চিকিৎসকের কাছে যান ওই দম্পতি ৷ তার পর গোলাবাড়ি থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয় ৷

ঘটনার পুলিশি তদন্ত চলছে ৷ অভিযুক্ত শিক্ষক এখনও অধরা ৷ শরীরে একাধিক আঘাত নিয়ে বাড়িতেই শিশুটির চিকিৎসা চলছে |

Published by:Arpita Roy Chowdhury
First published: