দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

তিনশো বছরের পুরনো এই দুর্গার নাম ভাঁড়ে মা, কেন এমন নাম?

তিনশো বছরের পুরনো এই দুর্গার নাম ভাঁড়ে মা, কেন এমন নাম?

প্রতিমায় নয়, তিনশো বছর ধরে ঘটে পটে পুজো চলে আসছে পূর্ব বর্ধমানের শাঁকারি গ্রামের ভাঁড়ে মার মন্দিরে।

  • Share this:

#বর্ধমান:মাটির ভাঁড়ে মা দুর্গার আরাধনা। মায়ের নাম তাই ভাঁড়ে মা। প্রতিমায় নয়, তিনশো বছর ধরে ঘটে পটে পুজো চলে আসছে পূর্ব বর্ধমানের শাঁকারি গ্রামের ভাঁড়ে মার মন্দিরে। কেন প্রতিমা না এনে এভাবে দুর্গা পুজোর আয়োজন করা হয় এই গ্রামে?

গ্রামের অধিষ্ঠাত্রী দেবী শঙ্করীমাতা। মায়ের পাথরের মূর্তি কুড়িয়ে পাওয়া গিয়েছিল দেব খালের ধারে। মা দুর্গার স্বপ্নাদেশে নদীর ধার থেকে সেই মূর্তি উদ্ধার করে এনে তা গ্রামের সবচেয়ে উঁচু জায়গায় প্রতিষ্ঠা করা হয়। এখন বিশাল মন্দিরে অধিষ্ঠাত্রী মা শংকরী। মায়ের নামে গ্রামের নাম শাঁকারি।

মায়ের সেই মন্দিরে প্রথম থেকেই মহিলাদের প্রবেশ নিষেধ। দুর্গাপুজোর মত বছরের সেরা উৎসবে মহিলারা ব্রাত্য থেকে যাবেন তাই কি করে হয় তাছাড়া শংকরী মাতার মন্দির কে ঘিরে শরিকি বিবাদ দেখা দিয়েছিল পরিবারের মহিলাদের পুজো দেখার সুযোগ করে দিতে শংকরী মাতার মন্দির এর কিছুটা দূরে আলাদা করে দুর্গাপুজো চালু করার দাবি তুললেন অনেকেই। সেই দাবি মেনে তিনশো বছর আগে আলাদাভাবে পুজোর আয়োজন করল রায় পরিবার। প্রবল উৎসাহে তৈরি হল মা দুর্গার মাটির প্রতিমা। সব আয়োজন যখন সম্পূর্ণ ঠিক তখন ঘটলো এক আশ্চর্য ঘটনা ষষ্ঠীর কল্পারম্ভের আগেই ভেঙে পড়ল সেই মূর্তি। সবার মনেই প্রশ্ন কেন এমন হলো অবশেষে রায় পরিবারের গৃহকর্তাকে স্বপ্নে দেখা দিলেন কালো কষ্টিপাথরের শঙ্করী। তবে কি কালো মা আর পছন্দ হচ্ছে না? গৃহকর্তার কাছে স্বপ্নে এমনই প্রশ্ন ছুঁড়ে দিলেন মা শংকরী।

দেবী রুষ্ট হয়েছেন বুঝে প্রতিমা পুজো বন্ধ হল প্রথম বছর থেকেই। সিদ্ধান্ত নেওয়া হল আর কোনোদিনই মা দুর্গার মূর্তি পূজা হবে না এখানে। তার বদলে মা দুর্গার ছবি এঁকে সামনে মাটির ঘট রেখে পুজো শুরু হল। মাটির ভাঁড়ে মা দুর্গার আরাধনা। এ দুর্গার নাম তাই ভাঁড়ে মা।

সেই প্রথাই চলে আসছে আজও। মা দুর্গার মুখ আঁকা হয় মোটা কাগজে। তাতেই পরানো হয় সোনার গয়না। সামনে ঘট রেখে শুরু হয় ভাঁড়ে মার আরাধনা। দশমীতে সিদুঁর খেলার পর গয়না খুলে নিয়ে জলে ভাসিয়ে দেওয়া হয় সেই ছবি।

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: October 6, 2020, 2:04 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर