• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ ইলিশ ! ডিজেলের দাম বাড়ায় আতঙ্কে মৎস্যজীবীরা

জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ ইলিশ ! ডিজেলের দাম বাড়ায় আতঙ্কে মৎস্যজীবীরা

Representational Image

Representational Image

জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ হবে ইলিশ। ডিজেলের দাম বাড়ায় আতঙ্কে দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার মৎস্যজীবীরা।

  • Share this:

    #কলকাতা: জ্বালানির জ্বালায় মহার্ঘ হবে ইলিশ। ডিজেলের দাম বাড়ায় আতঙ্কে দক্ষিণ চব্বিশ পরগনার মৎস্যজীবীরা। বাড়ছে ট্রলার চালানোর খরচ। ইলিশ ধরতে অনেকেই এবার ট্রলার নিয়ে গভীর সমুদ্রে যেতে চাইছেন না। বাকি যে ট্রলার চলবে তাতে যা ইলিশ উঠবে, তার দাম হবে দ্বিগুণ।

    অপেক্ষা শেষ। ১৫ জুন থেকে শুরু হচ্ছে ইলিশের মরশুম। সেদিন জলের রূপোলি শস্যের খোঁজে প্রথম ট্রলার যাবে সমুদ্রে। তবে ডিজেলের দাম যে হারে বাড়ছে তাতে মরশুম আসার আগেই বাড়ছে আশঙ্কা। প্রচুর পরিমাণে ইলিশ না উঠলে এবার ব্যবসা গোটানোর কথা ভাবছেন সাগর, নামখানা, কাকদ্বীপ, রায়দিঘি , পাথরপ্রতিমার ট্রলার ব্যবসায়ীরা।

    ---দক্ষিণ ২৪ পরগনায় ১২০০ ট্রলার আছে --৮০০টি ট্রলার ইলিশ ধরতে গভীর সমুদ্রে যায় ---এবার ইলিশ ধরতে যাওয়া নিয়ে সংশয়ে রয়েছে ৩৫০টি ট্রলার

    ট্রলার চালানোর খরচের বেশিরভাগটাই জ্বালানির খরচ। গত বছর ডিজেলের দাম ছিল লিটার প্রতি ৫৫ টাকা। এবছর দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে প্রায় ৭২ টাকায়। জ্বালানির ঝাঁজে বসে যাবে বেশ কয়েকটি ট্রলার। আশঙ্কায় ট্রলার মালিকরা।

    ৮০০ লিটার ডিজেল লাগে এক ট্রিপে। খরচ হয় কয়েক লক্ষ টাকা। এরপর যথেষ্ট পরিমাণ ইলিশ জালে না পড়লে লোকসান বাড়ে। এবার আর সেই লোকসান সহ্য হবে না। তাই প্রথমদিকের ট্রিপে ট্রলার পাঠাবেন না বলে সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন মালিকরা। তাঁদের এই ধীরে চলো নীতিতেই সিঁদুরে মেঘ দেখছেন মৎস্যজীবীরা।

    প্রথম কয়েকটি ট্রিপে অন্যান্যরা কেমন মাছ পাচ্ছেন দেখেই পরবর্তী সিদ্ধান্ত। যদি ট্রিপ হয়ও, তাহলেও তার সংখ্যা প্রতি বছরের মত হবে না। পরিবেশগত কারণে একেই সমুদ্রে ইলিশের পরিমাণ কমছে। তাই এবার যেটুকু মাছ ধরা পড়বে তাও বিকোবে বেশ চড়া দরেই। জ্বালানির কোপে আরও পারদ চড়তে চলেছে বাঙালির প্রিয় ইলিশের।

    First published: