corona virus btn
corona virus btn
Loading

কৃষক বাজারগুলিকে এবার কৃষি শিল্প তালুকের রূপ, উদ্যোগ সরকারের, বদলাবে আর্থসামজিক চিত্র

কৃষক বাজারগুলিকে এবার কৃষি শিল্প তালুকের রূপ, উদ্যোগ সরকারের, বদলাবে আর্থসামজিক চিত্র

প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে কৃষি শিল্প তালুকগুলিতে কৃষকদের জন্য একটি করে কৃষি সহায়তা কেন্দ্র থাকবে। সেখানে কৃষকদের নিত্যনতুন তথ্য সরবরাহ করা হবে।

  • Share this:

#পূর্ব বর্ধমান: ভোল বদল হচ্ছে কৃষক বাজারগুলির। কৃষক বাজারগুলিকে এবার কৃষি শিল্প তালুকের রূপ দিতে উদ্যোগ নিল রাজ্য সরকার। ইতিমধ্যেই সেই লক্ষ্যে কৃষি বাজারের পরিকাঠামো তৈরির কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে পূর্ব বর্ধমান জেলায়। এর ফলে কৃষক বাজার গুলির কার্যকারিতা অনেকটাই বাড়বে, এলাকার বাসিন্দারা উপকৃত হবেন। তা বাস্তবায়িত হলে কৃষি শিল্প তালুকের হাত ধরে এলাকার আর্থসামাজিক পরিকাঠামোর আমূল পরিবর্তন ঘটানো সম্ভব বলে মনে করছেন জেলা প্রশাসনের আধিকারিকরা।

পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক বিজয় ভারতী জানান, রাজ্য সরকারের নির্দেশ অনুযায়ী কৃষক বাজারগুলিকে এগ্রি বিজনেস ইন্ডাস্ট্রিয়াল হাব হিসেবে গড়ে তোলার জন্য ইতিমধ্যেই জেলার আধিকারিকদের নিয়ে বৈঠক করা হয়েছে। যত দ্রুত সম্ভব কৃষক বাজারগুলিকে কৃষি শিল্প তালুকে পরিণত করা হবে। ছ মাসের মধ্যে পরিকল্পনা বাস্তবায়িত করার লক্ষ্যমাত্রা নেওয়া হয়েছে। পূর্ব বর্ধমান জেলায় যেকটি কৃষক বাজার রয়েছে সেইগুলি এখন কী অবস্থায় রয়েছে,কী কী পরিকাঠামো সেখানে রয়েছে, কৃষি শিল্প তালুক গড়তে আর কী কী প্রয়োজন সেইসব বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহ করা হচ্ছে। দ্রুত এই পরিকল্পনা কার্যকর করার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, কার্যকারিতার দিক দিয়ে পূর্ব বর্ধমান জেলার ২০টি কৃষক বাজারকে তিনটি ভাগে ভাগ করা হয়েছে। ১১টি কৃষক বাজার ভালোভাবে কাজ করছে। আটটি কৃষক বাজারের কাজ মোটামুটি, ১টি কৃষক বাজার কার্যত বন্ধ হয়ে পড়ে রয়েছে। এমনিতে কৃষক বাজারগুলিতে হাট বসে। সেখানে উৎপাদিত ফসল নিয়ে এসে বিক্রি করেন কৃষকরা। অনেক কৃষক বাজারে খাদ্যশস্য  মজুতের ব্যবস্থা রয়েছে। আবার অনেকগুলি কৃষক বাজার লোকালয়ের বাইরে হওয়ায় সেগুলিকে খুব ভালোভাবে কাজে লাগানো যায়নি। কৃষি শিল্প তালুক গড়ে এই কৃষক বাজারগুলিকেই অনেক বেশি কার্যকরী করে তোলা সম্ভব বলেই মনে করা হচ্ছে।

প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে কৃষি শিল্প তালুকগুলিতে কৃষকদের জন্য একটি করে কৃষি সহায়তা কেন্দ্র থাকবে। সেখানে কৃষকদের নিত্যনতুন তথ্য সরবরাহ করা হবে। সেই সঙ্গে বিজ্ঞানসম্মত পদ্ধতিতে চাষের ব্যাপারে পরামর্শ, মাটি পরীক্ষা, বিকল্প চাষ, উদ্যান পালন বিষয়ে চাষীদের পরামর্শ দেওয়া হবে। সেখান থেকে উন্নত মানের বীজ, সার বিক্রির ব্যবস্থা থাকবে বলে পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে।

জেলাশাসক বিজয় ভারতী জানান, কৃষক বাজারে উন্নত মানের বীজ ও সার বিক্রির ব্যবস্থা থাকবে। তার ফলে সেখানে কৃষকদের আসা-যাওয়া বাড়বে। চাষ করা বা ফসল কাটার যে সব যন্ত্রাংশের প্রয়োজন হয় তাও মিলবে কৃষক বাজারেই। কৃষকরা তাদের প্রয়োজনমতো যন্ত্রাংশ সেখান থেকে ভাড়া নিতে পারবেন। সব মিলিয়ে কৃষকদের উপযোগী কেন্দ্র হিসেবে কৃষক বাজারগুলিকে গড়ে তোলার পরিকল্পনা নেওয়া হয়েছে।

Published by: Pooja Basu
First published: June 17, 2020, 6:14 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर