গভীর রাতে আদিবাসীর বাড়িতে আগুন, পুড়ে শেষ সবকিছু !

গভীর রাতে আদিবাসীর বাড়িতে আগুন, পুড়ে শেষ সবকিছু !

আগুনের গ্রাসে পুড়ে যায় বাড়ির আসবাব থেকে সবকিছুই। গ্রামবাসীরা দমকলে ফোন করলে দমকলের একটি ইঞ্জিন আসে ঘটনাস্থলে ৷ প্রায় ঘণ্টাখানেকের চেষ্টায় আগুন আয়ত্তে আনে।

  • Share this:

SUPRATIM DAS

#বীরভূম: বীরভূমের সিউড়ি থানা এলাকায় সুরেন্দ্র বাসকি নামে এক আদিবাসীর বাড়িতে গভীর রাতে হঠাৎই আগুন ধরে যায়। মুহূর্তের মধ্যে আগুন ছড়িয়ে পড়ে গোটা বাড়িতে। পুড়ে শেষ যায় সব কিছু। তবে বাড়িতে ছিল না কোনও ইলেকট্রিক কানেকশন ৷ সেই কারনে শর্ট সার্কিট থেকে আগুন লেগেছে তা বলা যাবে না। তারপরেও কী ভাবে আগুন ধরে যায় ধোঁয়াশায় গ্রামবাসীরা।

আগুনের গ্রাসে পুড়ে যায় বাড়ির আসবাব থেকে সবকিছুই। গ্রামবাসীরা দমকলে ফোন করলে দমকলের একটি ইঞ্জিন আসে ঘটনাস্থলে ৷ প্রায় ঘণ্টাখানেকের চেষ্টায় আগুন আয়ত্তে আনে।

জানা গিয়েছে প্রতিদিনের মতোই রাতে বাড়িতে ঘুমাচ্ছিলেন সুরেন্দ্র নাথ বাসকি ও তার পরিবার। গ্রামবাসীদের চিৎকার-চেঁচামেচিতে জেগে যান ৷ বাড়িতে আগুন লেগে গিয়েছে দেখে তৎক্ষণাৎ বাড়ি থেকে সুরেন্দ্রনাথ তার পরিবার নিয়ে বেরিয়ে আসেন ৷ ততক্ষণে আগুন ছড়িয়ে গিয়েছে গোটা বাড়িতে।

গ্রামবাসীদের তৎপরতায় বেঁচে যায় ওই পরিবার। কী কারণে আগুন লাগল তা নিয়ে সংশয় থেকেই যাচ্ছে। গ্রামবাসীদের তৎপরতায় আগুন ওই বাড়ি থেকে গ্রামের অন্যান্য জায়গায় ছড়িয়ে পড়েনি।

এরপর সকালে তৃণমূলের তরফে অভিযোগ করা হয় যে বাড়িতে আগুন লেগেছে তা তাদের সমর্থকের এবং ওই বাড়িতে আগুন লাগিয়েছে বিজেপি আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। তবে এই ঘটনাকে সম্পূর্ণ অস্বীকার করেছে বিজেপির জেলা সভাপতি ৷ উল্টে তাদের অভিযোগ আগুন লাগার খবর নিতে গিয়ে তাদের দুই সমর্থককে আটকে রেখেছিল তৃণমূল সমর্থকরা ৷

First published: 01:05:24 PM Dec 11, 2019
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर