বাবুল সুপ্রিয়র বিরুদ্ধে FIR-র নির্দেশ নির্বাচন কমিশনের

বাবুল সুপ্রিয়র বিরুদ্ধে FIR-র নির্দেশ নির্বাচন কমিশনের
  • Share this:

#আসানসোল: ভোট ঘোষণার সময় থেকেই তিনি বারবার কেন্দ্রীয় বাহিনী মোতায়েনের দাবি তুলেছেন। সেই দাবি মেনে নজিরবিহীনভাবে আসানসোলের একশো শতাংশ বুথে মোতায়েন হয় আধাসেনা। কিন্তু দিনের শেষে সেই আধাসেনার বিরুদ্ধেই ক্ষোভ উগরে দিলেন বিজেপি প্রার্থী বাবুল। আর দিনভর বিক্ষোভের মুখে পড়ে মেজাজ হারানোয় পালটা তাঁর বিরুদ্ধেই এফআইআর দায়ের করল কমিশন।

২০১৪-তে দুঁদে বাম সাংসদকে হারিয়ে আসানসোলে পদ্ম ফুটিয়েছিলেন বাবুল সুপ্রিয়। এবার লড়াইটা শক্ত বুঝেই সকাল থেকে শুরু করেছিলেন বুথে বুথে ঘোরা। প্রথমেই পৌঁছন বারাবনির কাশীডাঙার বুথে। বিজেপির এজেন্ট নেই কেন? বুথে ঢুকে অন্য পোলিং এজেন্টদের ধমক দেন বাবুল সুপ্রিয় । ঘটনাস্থলে দেরিতে আসায় পুলিশকেও রীতিমত ধমক বাবুলের। ক্ষোভের সুরে বাবুল বলেন, ‘এজেন্ট ঢুকিয়ে দিয়েছি.. ভয় দেখাচ্ছে, কটা কাঁচ ভাঙবে... আটকাতে চেষ্টা করছে আমাকে, কিন্তু আমি যাবই ৷’

খোট্টাডহিতেও বাবুলকে ঘিরে বিক্ষোভ দেখায় উত্তেজিত জনতা ৷ ওঠে গো ব্যাক স্লোগানও ৷

বাবুলের অভিযোগ, বিজেপির পোলিং এজেন্টকে বের করে দেওয়া হয়েছে। হুমকিও দেওয়া হয়েছে ৷

সকাল থেকে একের পর এক জায়গায় গিয়ে বিক্ষোভের মুখে পিছু হটেছেন বাবুল। অবশেষে যে কেন্দ্রীয় বাহিনী ও কমিশনে ভরসা রেখেছিলেন তাদের বিরুদ্ধেই ক্ষোভ উগরে দিলেন বাবুল সুপ্রিয় ৷

বুথে ঢুকে উত্তেজনা ছড়ানোর অভিযোগে বাবুলের বিরুদ্ধে কমিশনে পালটা অভিযোগ করেছে তৃণমূল। তার জেরেই বাবুলের বিরুদ্ধে এফআইআরের নির্দেশ দিয়েছে কমিশন। ভোটের শেষবেলায় আসানসোলের বেশ কিছু বুথে পুনরায় ভোটের দাবি তুলেছেন বাবুল। কেন্দ্রীয় বাহিনী থেকে কমিশনের বিরুদ্ধে অভিযোগে হতাশাই স্পষ্ট হয়েছে।

First published: April 29, 2019, 5:39 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर