দক্ষিণবঙ্গ

corona virus btn
corona virus btn
Loading

জোগান কম, চড়া দামে পঞ্জাবের আলুর বীজ কিনতে হচ্ছে কৃষকদের

জোগান কম, চড়া দামে পঞ্জাবের আলুর বীজ কিনতে হচ্ছে কৃষকদের

পূর্ব বর্ধমান জেলায় ৭২ হাজার হেক্টর জমিতে আলু চাষ হয়ে থাকে। এবার আলুর তুলনামূলক ভালো দাম মেলায় ফের আলু চাষে ঝুঁকেছেন অনেক চাষী।

  • Share this:

#বর্ধমান: আলুর দাম যেমন বেশি তেমনই এবার আকাশ ছোঁয়া দামে বিক্রি হচ্ছে বীজ আলু। আলু বসানোর মুখে আলু বীজ সংগ্রহ করতে গিয়ে হিমশিম খেতে হচ্ছে কৃষকদের। পোখরাজ আলুর বীজ বারোশো থেকে চোদ্দশো টাকা বস্তা দরে বিক্রি শুরু হয়েছিল। জ্যোতি আলু বীজ বিক্রি শুরু হয়েছে চার হাজার আটশো টাকা থেকে পাঁচ হাজার টাকা বস্তা দরে। পাঞ্জাবের চন্দ্রমুখী আলু বীজের দাম আরও বেশি। এত বেশি টাকায় বীজ কিনে চাষের সব খরচ সামনে মুনাফা তুলতে ভালো বেগ পেতে হবে বলেই মনে করছেন পূর্ব বর্ধমান জেলার কৃষকরা।

কৃষকরা বলছেন, বাজারে পঞ্জাবের আলু বীজের হাহাকার চলছে। আগাম টাকা দিয়েও বীজ পাওয়া যাচ্ছে না। ব্যবসায়ীদের কাছে টাকা জমা দিয়েও বীজ পেতে সমস্যা হচ্ছে। সকাল থেকে হত্যে দিয়ে বসে থাকতে হচ্ছে। কৃষকদের অভিযোগ, বাজারে আলু বীজের ব্যাপক চাহিদা দেখেই ইচ্ছামত দাম তুলছেন আলুবীজ ব্যবসায়ীরা। চড়া দাম দিতে চেয়েও অনেক ক্ষেত্রে আলু বীজ পাওয়া যাচ্ছে না। তাই চাষ টিকিয়ে রাখতে অনেকেই বেশি দাম দিয়ে আলু বীজ কিনতে বাধ্য হচ্ছেন। আলু বীজ বিক্রির ক্ষেত্রে সরকারি নিয়ন্ত্রণ ও নজরদারি থাকা জরুরি বলে মনে করছেন কৃষকদের অনেকেই।

পূর্ব বর্ধমান জেলায় ৭২ হাজার হেক্টর জমিতে আলু চাষ হয়ে থাকে। এবার আলুর তুলনামূলক ভালো দাম মেলায় ফের আলু চাষে ঝুঁকেছেন অনেক চাষী। এই জেলায় কালনা মহকুমা ও বর্ধমানের শক্তিগড়ও তার আশপাশ এলাকায় জলদি জাতের পোখরাজ আলু চাষ হয়। জ্যোতি আলু চাষ শুরু হওয়ার পর পরই বাজারে পোখরাজ আলু এসে যায়। এবার আলুর দাম ভালো থাকায় অনেকেই পোখরাজ চাষের দিকে ঝুঁকেছেন। বাজারে আলুর চাহিদা থাকতে থাকতে চড়া দামে সেই আলু বিক্রি করে দেওয়ার উদ্দেশ্যেই পোখরাজ আলুর চাষ বাড়বে বলে মনে করছে কৃষি দফতর।

 চাহিদার তুলনায় আলু বীজের যোগান অনেক কম। পরিযায়ী শ্রমিকরা যে যার রাজ্যে চলে যাওয়ায় এবার পাঞ্জাব থেকে চাহিদামত আলু বীজ পাওয়া যাচ্ছে না বলে জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। লরি বোঝাই করে আলু বীজ এলেও নিমেষেই তা উধাও হয়ে যাচ্ছে। তারই মধ্যে তড়িঘড়ি ধান কেটে নিয়ে আলুর জমি তৈরিতে ব্যস্ত কৃষকরা।

Published by: Dolon Chattopadhyay
First published: November 10, 2020, 10:23 AM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर