corona virus btn
corona virus btn
Loading

করোনা ঠেকাতে দলগুলির কাছে জন সমাগম বন্ধ রাখার আর্জি জেলা প্রশাসনের

করোনা  ঠেকাতে দলগুলির কাছে জন সমাগম বন্ধ রাখার আর্জি জেলা প্রশাসনের

পুলিশের কাছেও কোনও অনুমতি নেওয়া হয়নি। বিরোধী দল বিজেপিও এই ঘটনার কথা উল্লেখ করে শাসক দলের তীব্র সমালোচনা করেছে।

  • Share this:

#বর্ধমান: করোনার সংক্রমণ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। এই অবস্থায় কর্মী সমর্থকদের নিয়ে জন সমাগম করে রাজনৈতিক কর্মসূচি পালিত হলে তার খারাপ প্রভাব পড়তে পারে। তাই এই সময় সেই কাজে বিরত থাকার ব্যাপারে রাজনৈতিক দলগুলির কাছে আবেদন জানাবে পূর্ব বর্ধমান জেলা প্রশাসন।

সোমবার পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক বিজয় ভারতী বলেন, একসঙ্গে অনেকে সীমিত জায়গায় জমায়েত হলে তা থেকে করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা থেকেই যাচ্ছে। তাই এখন এই ধরনের কর্মসূচি থেকে বিরত থাকতে রাজনৈতিক দলগুলির কাছে আবেদন জানাবো।

রবিবার বর্ধমানের লোকো গোলঘর বাজার এলাকায় তৃণমূল কংগ্রেসের ত্রাণ বিলিকে কেন্দ্র করে ব্যাপক বিতর্ক তৈরি হয়। সেখানে এক হাজারেরও বেশি বাসিন্দাকে খাদ্য সামগ্রীর প্যাকেট দেওয়া হয়। কিন্তু সেখানে তারও অনেক বেশি বাসিন্দা ভিড় করেছিলেন বলে অভিযোগ। একে অপরের গা ঘেঁষাঘেঁষি করে খাদ্য সামগ্রী নেওয়ার লাইনে দাঁড়িয়েছিলেন। তাঁদের অনেকের মুখেই মাস্ক বা ফেস কভার ছিল না।

কিছু দূরেই রায়নগর এলাকায় করোনার সংক্রমণ দেখা দেওয়ায় সেখানে কন্টেইনমেন্ট জোন গড়ে লক ডাউন চলছে। সেই পরিস্থিতিতে এভাবে এতো পুরুষ মহিলার জমায়েত করে এই কর্মসূচি কী ভাবে পালিত হল তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

প্রশ্ন উঠেছে প্রশাসনের ভূমিকা নিয়েও। জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ওই কর্মসূচির ব্যাপারে প্রশাসনকে কিছুই জানানো হয়নি। পুলিশের কাছেও কোনও অনুমতি নেওয়া হয়নি। বিরোধী দল বিজেপিও এই ঘটনার কথা উল্লেখ করে শাসক দলের তীব্র সমালোচনা করেছে।

এই ধরণের ঘটনার পুনরাবৃত্তি হোক চাইছে না জেলা প্রশাসন। জমায়েত থেকে দ্রুত সংক্রমণ ছড়িয়ে পড়তে পারে বলে আশংকা প্রকাশ করে রাজনৈতিক দলগুলির কাছে আপাতত জন সমাগম বন্ধ রাখার আবেদন জানানোর পরিকল্পনা নিয়েছে তারা। প্রয়োজনে সব রাজনৈতিক দলগুলিকে ডেকে করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে তাদের সহযোগিতা চাওয়ার কথাও ভাবছে জেলা প্রশাসন।

SARADINDU GHOSH

Published by: Arindam Gupta
First published: July 13, 2020, 11:55 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर