‘এই যে নিন সোনা, এবার টাকা দিন’, গরু জমা দিয়ে ঋণ নিতে হাজির চাষী

দিলীপ ঘোষের মন্তব্যের জের ৷ গরু ও তাঁর বাছুর নিয়ে গোল্ড লোন সংস্থায় ঋণ নিতে হাজির চাষী ৷

Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Nov 07, 2019 07:06 PM IST
‘এই যে নিন সোনা, এবার টাকা দিন’, গরু জমা দিয়ে ঋণ নিতে হাজির চাষী
Bangla Editor | News18 Bangla
Updated:Nov 07, 2019 07:06 PM IST

#কলকাতা: দিলীপ ঘোষের মন্তব্যের জের ৷ গরু ও তাঁর বাছুর নিয়ে গোল্ড লোন সংস্থায় ঋণ নিতে হাজির চাষী ৷ না, সোশ্যাল মিডিয়ার কোনও মিম নয়, সোদপুরে ঘটেছে এমনই ঘটনা ৷ সোমবার বর্ধমানের এক জনসভায় দিলীপ ঘোষ দাবি করেন, ‘গরুর দুধে সোনা থাকে ৷ তাই দুধের রঙ হলুদ ৷ আমাদের দেশী গাভির পিঠের কুঁজে স্বর্ণনালী থাকে। সূর্যের আলো পরলে সেখান থেকে সোনা তৈরি হয়।’

রাজ্য বিজেপি সভাপতির সেই মন্তব্য শুনেই যেমন ভাবা তেমনি কাজ ৷ নিজের পোষ্য, প্রমাণ মাপের গরুকে সঙ্গে নিয়ে পেশায় চাষি সুশান্ত মণ্ডল হাজির গোল্ড লোন সংস্থায় ৷ দাবি, দিলীপবাবু বলেছেন গরুর দুধে সোনা আছে অতএব তা জমা রেখে দিতে হবে ঋণ ৷ ওই টাকা দিয়ে বহুদিনের ইচ্ছেপূরণ করবেন বলে পরিকল্পনা সুশান্তর ৷ নিজের ব্যবসাকে আরও বাড়াবেন ৷ এমন দাবি সোজাসুজি খারিজ গোল্ড লোন অফিসের ৷

মুখের উপর ঋণের আবেদন খারিজ হতেই ক্ষুব্ধ চাষী সটান গিয়ে অভিযোগ কেন স্থানীয় তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধানের বাড়িতে ৷ বলেন,‘টিভিতে শুনেছি দিলীপ ঘোষ বলেছেন, গরুর কুঁজে স্বর্ণনাড়ি আছে। তাতে সূর্যের আলো পড়লেই সোনা বেরোয়। তাই গরু বন্ধক রেখে টাকা চাইতে গিয়েছিলাম। কিন্তু ওরা কিছুতেই গরু রেখে টাকা দিল না ৷’ সুশান্তবাবুর দাবি ছিল এর বিহিত করতেই হবে ৷ অন্যদিকে, এমন দাবি নিয়ে সমস্যায় পঞ্চায়েত প্রধানরাও ৷ কারণ, সুশান্তবাবুই প্রথম নয়, এর আগে অনেকে গরু বন্ধক রেখে টাকা ধার নেওয়ার প্রস্তাব নিয়ে আসছে ৷

বর্ধমানে গাভি কল্যাণ সমিতির অনুষ্ঠানে এসে দিলীপ ঘোষ বলেন, ‘আমাদের দেশী গাভির পিঠের কুঁজে স্বর্ণনালী থাকে। সূর্যের আলো পরলে সেখান থেকে সোনা তৈরি হয়।’  রাজ্য বিজেপি সভাপতির গরুর দুধে সোনা মন্তব্য ভাইরাল সোশ্যাল মিডিয়ায় ৷ একের পর এক মিম ৷ এখানেই শেষ নয়, ওই সভা থেকেই দিলীপ ঘোষ বলেন,  ‘বিদেশি গরু হাম্বা হাম্বা বলে ডাকে না। তাই, তারা গোমাতা নয়। তারা আন্টি গোরু।’

First published: 07:06:02 PM Nov 07, 2019
পুরো খবর পড়ুন
Loading...
अगली ख़बर