• Home
  • »
  • News
  • »
  • south-bengal
  • »
  • DEBATE ERUPTS IN EAST BARDHAMAN OVER TMC PROPAGANDA TO ATTRACT PEOPLE TO GOVERNMENT CEREMONIES SR

সরকারি অনুষ্ঠান মাটি উৎসবে লোক টানতে তৃনমূলের প্রচারকে ঘিরে জোর বিতর্ক পূর্ব বর্ধমানে 

পুরোপুরি সরকারি অনুষ্ঠানে তৃণমূলের দলে দলে যোগদানের আহ্বানের সমালোচনায় সরব হয়েছে বিরোধীরা।

পুরোপুরি সরকারি অনুষ্ঠানে তৃণমূলের দলে দলে যোগদানের আহ্বানের সমালোচনায় সরব হয়েছে বিরোধীরা।

  • Share this:

Saradindu Ghosh

#বর্ধমান: মাইক বেঁধে দলীয় পতাকা লাগিয়ে মাটি উৎসব যাওয়ার জন্য পূর্ব বর্ধমান জেলায় প্রচার চালাচ্ছে তৃণমূল কংগ্রেস। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সূচনা করবেন উৎসবের। সেই উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বাসিন্দাদের দলে দলে যোগদান করার আহ্বান জানাচ্ছে রাজ্যের শাসক দল। বিভিন্ন রাস্তায় ঘুরে ঘুরে, গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় দাঁড়িয়ে টোটো থেকে সেই প্রচার চালানো হচ্ছে। পুরোপুরি সরকারি অনুষ্ঠানকে ঘিরে এই রাজনৈতিক প্রচার বিতর্ক তৈরি করেছে পূর্ব বর্ধমান জেলায়। বিধানসভা নির্বাচনের মুখে সরকারি অনুষ্ঠানকে পুরোপুরি রাজনৈতিক স্বার্থে ব্যবহার করছে তৃণমূল কংগ্রেস- এমনই অভিযোগ তুলেছে কংগ্রেস ও বিজেপি। যদিও এরমধ্যে অন্যায় কিছু নেই বলেই মনে করছে তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব।

আগামীকাল মঙ্গলবার পূর্ব বর্ধমান জেলা সফরে আসছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। কালনায় তিনি নির্বাচনী জনসভা করবেন। এরপর বর্ধমানের কৃষি খামারে মাটি তীর্থ কৃষিকথা মঞ্চ থেকে এ বারের মাটি উৎসবের উদ্বোধন করবেন মুখ্যমন্ত্রী। রাজ্য সরকারের কৃষি, কৃষি বিপণন, বন, উদ্যানপালন, পশুপালন,স্বাস্থ্য, খাদ্য, পূর্ত দপ্তর সহ বেশ কয়েকটি বিভাগ যৌথভাবে এই উৎসব করে থাকে। মাটি উৎসব উদ্বোধনেরর পাশাপাশি কৃষি ভবনের নতুন বিল্ডিংয়ের উদ্বোধন ও কৃষি কলেজের নবনির্মিত একাডেমিক ক্যাম্পাসেরও উদ্বোধন করবেন মুখ্যমন্ত্রী।

পুরোপুরি সরকারি অনুষ্ঠানে তৃণমূলের দলে দলে যোগদানের আহ্বানের সমালোচনায় সরব হয়েছে বিরোধীরা। তাঁদের বক্তব্য, সরকারি অনুষ্ঠানকে রাজনৈতিক স্বার্থে ব্যবহার করছে রাজ্যের শাসক দল। বিজেপি যুব মোর্চার জেলা সভাপতি শুভম নিয়োগী বলেন, ভিক্টোরিয়া মেমোরিয়ালের সরকারি অনুষ্ঠানে শুধুমাত্র কয়েকজন জয় শ্রীরাম বলায় মুখ্যমন্ত্রী বক্তব্য না রেখে চলে গিয়েছিলেন। অথচ মাটি উৎসবের মতো সরকারি অনুষ্ঠানে লোক টানতে দলীয় পতাকা নিয়ে প্রচার চালাচ্ছে তৃণমূল। এই দ্বিচারিতা কেন সেই প্রশ্নের উত্তর চাইছি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের কাছে।

কংগ্রেস নেতা গৌরব সমাদ্দার বলেন, মুখ্যমন্ত্রী সরকারি অনুষ্ঠানে জয় শ্রীরাম ধ্বনি শুনে প্রতিবাদ জানিয়ে বক্তব্য রাখেননি ভাল কথা। তা হলে সরকারি অনুষ্ঠানে তৃণমূলের এই প্রচারে মুখ্যমন্ত্রী আজ কেন হস্তক্ষেপ করবেন না জানতে চাইছি। তৃণমূল কংগ্রেসের এই ভূমিকার তীব্র প্রতিবাদ জানাচ্ছি আমরা। যদিও বিরোধীদের এইসব অভিযোগে পাত্তা দিতে নারাজ জেলা তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব। পূর্ব বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ বলেন, মাটি উৎসবের মঞ্চে নিশ্চয়ই তৃণমূলের পতাকা থাকবে না। মুখ্যমন্ত্রী সকলের। তাই তাঁর অনুষ্ঠানে রাজ্যের সব মানুষকে আহ্বান জানানো যেতেই পারে। এর মধ্যে অন্যায়ের কিছু নেই।

Published by:Simli Raha
First published: