Home /News /south-bengal /
Bangla News: ঘর বন্ধ সকাল থেকে, ডোমকলের বাড়িতে ঢুকতেই দেখা মিলল জোড়া লাশের! হাড়হিম কাণ্ড

Bangla News: ঘর বন্ধ সকাল থেকে, ডোমকলের বাড়িতে ঢুকতেই দেখা মিলল জোড়া লাশের! হাড়হিম কাণ্ড

মারাত্মক ঘটনা

মারাত্মক ঘটনা

Bangla News: ডোমকলে দম্পতির রহস্যজনকভাবে মৃত্যুকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য।

  • Share this:

    #ডোমকল: ডোমকলে দম্পতির রহস্যজনকভাবে মৃত্যুকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য বাড়ি থেকে দম্পতির মৃতদেহ উদ্ধারকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য ডোমকলে। মৃতদের নাম সুনীল কুণ্ডু(৫৫) ও আন্না হালদার (৪২)। মঙ্গলবার রাতে ডোমকলের রমনাএতবার নগর পুরোনো বিডিও মোড় সংলগ্ন এলাকায় ভাড়া বাড়ি থেকে উদ্ধার হয় স্বামী স্ত্রীর মৃতদেহ। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ডোমকল থানার পুলিশ এসে দেহ উদ্ধার করে। ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায়। মৃত্যুর আসল রহস্য কি তা খতিয়ে দেখতে তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

    ডামকলে দম্পতির রহস্যজনকভাবে মৃত্যুকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য। জানা যায় সুনীল কুণ্ডুর বাড়ি ডোমকলের অম্বরপুর এলাকায়। পেশায় ডোমকল ব্লকের খাদ্য দপ্তরের অস্থায়ী কর্মী। স্ত্রী আন্না হালদার অঙ্গন ওয়াড়ি কর্মী। বাড়ি ডোমকলের মধুরকুলে। বিগত দেড় বছর আগে আন্না হালদারের স্বামী মারা যাওয়ার পরে সুনীল কুন্ডুর সঙ্গে বিয়ে হয়। দুজনেরই দ্বিতীয় বিয়ে এটি। বিয়ের পরেই ডোমকলের পুরোনো বিডিও মোড় সংলগ্ন এলাকায় একটি বাড়ি ভাড়া নিয়ে বসবাস করত তারা। জানা যায় সুনীল কুন্ডুর প্রথম পক্ষের দুই ছেলে ও এক মেয়ে রয়েছে। আন্না হালদারেরও আগের পক্ষের ছেলে রয়েছে। তাদের সঙ্গে যোগাযোগ কমেছে দ্বিতীয় বিয়ের পরেই। তবে স্থানীয় সূত্রে জানা যায় বাড়িতে স্বামী স্ত্রীর সঙ্গে মাঝেমধ্যেই বিবাদ লেগেই থাকত। মঙ্গলবার সকাল থেকেই আন্না হালদারের সঙ্গে পরিবারের লোকেদের যোগাযোগ করতে না পারায় সন্দেহ দানা বাঁধে। আর তারপরেই আন্না হালদারের পরিবারের লোকেরা বাড়িতে খোঁজ করতে আসে।

    আরও পড়ুন: নেশা করে গাড়ি চালাবে না, চালককে নিষেধ করেছিলেন মালকিন, তার জেরেই ঘটল তাজ্জব ঘটনা!

    কিন্তু বাড়িতে এসে গেটের ভিতর থেকে তালা লাগানো দেখতে পাই। ডাকাডাকি করেও কোনো সাড়া না পাওয়ায় থানায় খবর দেওয়া হয়। পুলিশ এসে তালা ভেঙে বাড়ির ভিতরে ঢুকতেই আন্না হালদারের মৃতদেহ উদ্ধার হয়। মাথায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। পাশের ঘরে উদ্ধার হয় সুনীল কুন্ডুর মৃতদেহ। বিছানা থেকে উদ্ধার হয়েছে কীটনাশকের বোতল। পুলিশের অনুমান স্ত্রী আন্না হালদারকে খুন করে সুনীল কুন্ডু নিজেই আত্মঘাতী হয়েছে। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। আন্না হালদারের আগের পক্ষের পুত্রবধূ রাখি বিশ্বাস বলেন, সকাল থেকে ফোনে না পেয়ে আমরা। বাড়িতে খোঁজ নিতে আসি।

    আরও পড়ুন: 'আস্তে আস্তে দোকান গুটিয়ে ফেলো', বাঁকুড়ায় দাঁড়িয়ে হুঙ্কার মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের

    কিন্তু ডাকাডাকি করেও কোনো সাড়া না পেয়ে থানায় খবর দেওয়া হয়। পুলিশ তালা খুলতেই দুজনের মৃতদেহ উদ্ধার হয়। কিন্তু কিভাবে মৃত্যু হল সেটা এখনও আমাদের কাছে স্পষ্ট না। আন্না হালদারের বোন চাইনা হালদার বলেন, মৃত্যুর খবর পেয়ে আমরা ছুটে আসি। তবে দিদির মাথায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তাই আমাদের অনুমান দিদিকে খুন করে ওর স্বামী আত্মহত্যা করেছে। পুলিশ তদন্ত করলে মৃত্যুর সঠিক কারন জানা যাবে।

    Published by:Suman Biswas
    First published:

    Tags: Murshidabad, West Bengal news

    পরবর্তী খবর