'এলিট মন্ত্রীরা এ বার কাশ্মীর গিয়ে একগুচ্ছ শেখানো মিথ্যে দেশবাসীকে শোনাবেন,' কটাক্ষ অধীরের

'এলিট মন্ত্রীরা এ বার কাশ্মীর গিয়ে একগুচ্ছ শেখানো মিথ্যে দেশবাসীকে শোনাবেন,' কটাক্ষ অধীরের
অধীর চৌধুরী

গত বছর অগাস্টে জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বাতিল করেছে কেন্দ্র৷ তারপর এই প্রথম কাশ্মীরের যাচ্ছেন ৩৬ জন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর একটি দল৷ আগামী ১৮ জানুয়ারি মন্ত্রীদের এই দল কাশ্মীর যাবেন৷ যাবেন জম্মু-কাশ্মীরের সংবেদনশীল এলাকাগুলিতেও৷

  • Share this:

#দক্ষিণবঙ্গ: কাশ্মীরের পরিস্থিতি বুঝতে ও ৩৭০ ধারা বাতিলের প্রয়োজনীয়তা বোঝাতে ৩৬ জন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আগামী ১৮ জানুয়ারি যাচ্ছেন জম্মু-কাশ্মীরে৷ মন্ত্রীদের এই সফরকে তীব্র কটাক্ষ করলেন লোকসভায় কংগ্রেসের দলনেতা সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরী৷ অধীরের ট্যুইট, 'এলিট মন্ত্রীরা এ বার কাশ্মীর যাবেন৷ তারপর দেশকে একগুচ্ছ শেখানো মিথ্যে বুলি শোনাবেন তাঁরা৷ এক শেয়ার ডাকলে বাকি শেয়ালরাও একই ভাবে ডাকতে শুরু করে দেয়৷'

একই সঙ্গে সব দলের একটি প্রতিনিধি দল কাশ্মীরে পাঠানোর পক্ষেও জোরাল সওয়াল করেন তিনি৷ অধীর ট্যুইটারে লেখেন, 'আমি সংসদে একাধিক বার আবেদন জানিয়েছি, মাননীয় স্পিকারের নেতৃত্বে সব দলের সদস্যদের প্রতিনিধিদল কাশ্মীর সফরে যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হোক৷ কাশ্মীরের পরিস্থিতি খতিয়ে দেখতে দেওয়া হোক৷'

গত বছর অগাস্টে জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বাতিল করেছে কেন্দ্র৷ তারপর এই প্রথম কাশ্মীরের যাচ্ছেন ৩৬ জন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর একটি দল৷ আগামী ১৮ জানুয়ারি মন্ত্রীদের এই দল কাশ্মীর যাবেন৷ যাবেন জম্মু-কাশ্মীরের সংবেদনশীল এলাকাগুলিতেও৷  

৩৬ জন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী কেন্দ্র শাসিত জম্মু-কাশ্মীরের বিভিন্ন জেলায় ঘুরবেন৷ ১৮ জানুয়ারি থেকে ২৪ জানুয়ারি পর্যন্ত৷ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের উদ্যোগেই মূলত এই সফর৷ সরকারি সূত্রের খবর, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী জি কিষেণ রেড্ডি জম্মু-কাশ্মীরের মুখ্যসচিব বিভিআর সুব্রহ্মণ্যমকে একটি চিঠি লিখে বুধবার ৩৬ জন মন্ত্রীর কাশ্মীরের সফরের বিষয়টি জানিয়েছেন৷

চিঠিতে রেড্ডি লিখেছেন, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর ইচ্ছে, কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার সব সদস্য জম্মু-কাশ্মীরে যাবেন৷ কেন্দ্র শাসিত জম্মু-কাশ্মীরের সামগ্রিক উন্নয়নের জন্য কেন্দ্রীয় নীতি প্রণয়নের বিষয়ে তথ্য সংগ্রহ করবেন তাঁরা৷ কোথায় উন্নয়ন প্রয়োজন তা খতিয়ে দেখবেন৷

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী স্মৃতি ইরানি রায়েসি জেলার কাটরা, পান্থাল যাবেন ১৯ জানুয়ারি৷ ওই দিনই কেন্দ্রীয় মন্ত্রী পীযুষ গয়াল যাবেন শ্রীনগরে৷ রেড্ডি ২২ জানুয়ারি থাকবেন গান্ডেরবালে৷ ২৪ জানুয়ারি কেন্দ্রীয় আইনমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ যাবেন বারামুলা জেলার সোপোরে৷

কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ভি কে সিং ২০ জানুয়ারি যাবেন উধমপুরে, কিরেন রিজিজু যাবেন জম্মুর সুচেতনগরে৷ ১৭ জানুয়ারির বৈঠকে এই সফরের চূড়ান্ত তালিকা তৈরি হয়ে যাবে৷

গত ৫ অগাস্ট জম্মু-কাশ্মীরে ৩৭০ ধারা বাতিল করে কেন্দ্র৷ একই সঙ্গে জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখকে পৃথক কেন্দ্র শাসিত অঞ্চল ঘোষণা করা হয়৷

First published: January 16, 2020, 1:07 PM IST
পুরো খবর পড়ুন
अगली ख़बर