Home /News /south-bengal /
ষষ্ঠ দফা মিটতেই বারাসত, দাঁতন, রামনগরে

ষষ্ঠ দফা মিটতেই বারাসত, দাঁতন, রামনগরে

photo: News18 Bangla

photo: News18 Bangla

  • Share this:
    #বারাসত: শেষ দফার ভোটের আগে উত্তেজনা বারাসতে। বহিরাগত জমায়েতের অভিযোগে বিজেপি নেতার বাড়ি ঘেরাও। তৃণমূলের ঘেরাওয়ের মুখে পদ্মশিবিরের কেন্দ্রীয় নেতাও। পুলিশের সামনেই বিজেপি কর্মীকে মারধরের অভিযোগ। রাজনৈতিক উত্তেজনা দাঁতন, রামনগর, কাঁকসাতেও। সোমবার সন্ধেয় বারাসত-টাকি রোডের একটি হোটেলে বিজেপির কেন্দ্রীয় নেতা অরবিন্দ মেননের সঙ্গে জেলা নেতৃত্বের বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। পরে বৈঠক সরে যায় স্থানীয় বিজেপি নেতা তুহিন মণ্ডলের বাড়িতে। বহিরাগত জময়েতের অভিযোগে ওই বাড়ি ঘেরাও করেন তৃণমূল কর্মীরা। বাড়ি ভাঙচুরও হয়। পুলিশ অরবিন্দ মেনন সহ বাকিদের থানায় নিয়ে যায়। সেখানেও বিক্ষোভ দেখায় তৃণমূল। তাপস মিত্র নামে এক বিজেপি নেতাকে পুলিশের সামনেই মারধর করা হয় বলে অভিযোগ। নকল তারা লাগানোর অভিযোগে ৫টি গাড়ি আটক করেছে পুলিশ। গ্রেফতার করা হয়েছে ৩ চালককে। অশোকনগরের গুমা নবপল্লি ও বড় বামুনিয়ায় বিজেপি, কংগ্রেস, সিপিএমের ফ্ল্যাগ ও ফেস্টুন ছেঁড়ার অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে। প্রতিবাদে মিছিল করে বিজেপি। অশোকনগর থানায় অভিযোগ দায়ের করে পদ্মশিবির। অভিযোগ অস্বীকার তৃণমূলের। পশ্চিম মেদিনীপুরের দাঁতনে তৃণমূল কর্মীর বাড়িতে হামলা। বেধড়ক মারধর করা হয় তাঁর পরিবারের লোকেদের। মারধরের অভিযোগ অস্বীকার বিজেপির। ২ বিজেপি নেতাকে আটক করা ঘিরে উত্তেজনা পূর্ব মেদিনীপুরের রামনগরে। থানা ঘেরাও বিজেপির। পোলিং এজেন্টকে মারধরের অভিযোগ জানাতে থানায় গিয়েছিলেন তাঁরা। সেখানে পুলিশের সঙ্গে বচসায় জড়ান। তারপরই সত্যেন পঞ্চধায়ী ও নিত্যগোপাল দাসকে আটক করে পুলিশ। প্রতিবাদে থানার সামনেই বিক্ষোভ বিজেপির। পরে অবশ্য ২ বিজেপি নেতাকে ছেড়ে দেওয়া হয়। পঞ্চায়েত প্রধানের বাড়িতে হামলার অভিযোগ বিজেপির বিরুদ্ধে। পশ্চিম বর্ধমানের কাঁকসার মলানদিঘির ঘটনা। চব্বিশ প্রহরের শোভাযাত্রার সময় এক মহিলাকে উত্ত্যক্ত করার অভিযোগ ঘিরে শুরু। অভিযোগ দায়ের করায় ওই মহিলার বাড়িতে ভাঙচুর করা হয়। তৃণমূলের অভিযোগ, অভিযুক্তরা বিজেপি কর্মী। ভাঙচুর করা হয় তৃণমূল পঞ্চায়েত প্রধানের বাড়িও। ভাঙচুর করা হয় তাঁর গাড়িও। পরে ২ পক্ষের সংঘর্ষও হয়। আহত ৬জন দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে ভরতি। পালটা তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের অভিযোগ বিজেপির।
    First published:

    Tags: Elections 2019, Loksabha Elections 2019, West Bengal Lok Sabha Elections 2019

    পরবর্তী খবর